জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে বাংলা ক্যালেন্ডারে এবার কন্যাশ্রীদের কর্মকাণ্ড

সৌরভ মাজি, বর্ধমান: বর্ধমানের কন্যাশ্রীদের আবদারেই বিশ্ববিদ্যালয় স্তরেও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কন্যাশ্রী প্রকল্প চালু করেছিলেন। বর্ধমানের কন্যাশ্রীরাই প্রথম বাল্যবিবাহ রোধে রাজ্যে নজির গড়ে মুখ্যমন্ত্রীর প্রশংসা পেয়েছিল। তাদের পুরস্কৃত করার কথাও ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী। বর্ধমানের কন্যাশ্রীরাই প্রথম বিভিন্ন সামাজিক সচেতনতার প্রচারে ক্যালেন্ডার মেনে কাজ শুরু করে। বর্ধমানের কন্যাশ্রীদের জন্য স্বাস্থ্যসম্মত স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্যবহারে কন্যাসাথী প্রকল্প চালু করে পূর্ব বর্ধমান জেলা প্রশাসন। আবার এই জেলাতেই প্রথম কন্যাশ্রীদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হয় কেক-পেস্ট্রি তৈরির। তাতেও সাফল্য মিলেছে। এবার পূর্ব বর্ধমান জেলা কন্যাশ্রীদের নিয়ে তৈরি করে ফেলেছে বাংলা ক্যালেন্ডার।

[বাড়ছে আইনি জট, পঞ্চায়েত ভোট পিছিয়ে কবে?]

নববর্ষ ছিল ছুটির দিনে। তাই সোমবার ১৪২৫ সালের বাংলা ক্যালেন্ডার প্রকাশ করা হল। আর ক্যালেন্ডারের প্রতিটি পাতায় ফুটে উঠেছে জেলার ছাত্রীদের বিজয় গাথা। জেলা শাসক অনুরাগ শ্রীবাস্তব, সদ্য প্রয়াত অতিরিক্ত জেলা শাসক (উন্নয়ন) রত্নেশ্বর রায় ও সর্বশিক্ষা মিশনের জেলা প্রকল্প আধিকারিক তথা কন্যাশ্রী প্রকল্পের ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক শারদ্বতী চৌধুরিদের প্রচেষ্টায় প্রকাশিত হয়েছে কন্যাশ্রী ক্যালেন্ডার।

[যানজটে জর্জরিত বাগনান, জট থেকে মুক্তির পথ খুঁজছে শাসকদল]

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, ক্যালেন্ডারের প্রতিটি মাসে এক-একটি স্কুলের কন্যাশ্রী ক্লাবের সাফল্যের ছবি তুলে ধরা হয়েছে। সঙ্গে ছন্দ মিলিয়ে কন্যাশ্রীদের কর্মকাণ্ডও ফুটে উঠবে সেখানে। বৈশাখে রয়েছে আউশগ্রাম ২ ব্লকের পিপিডিআই হাইস্কুলের কন্যাশ্রী ক্লাব। সেই পাতায় লেখা হয়েছে, ‘বাল্যবিবাহ রোধে, তুমি করলে মোদের উৎসাহিত, দিলে মোদের চেতনা, হলাম মোরা আপ্লুত।’ জ্যৈষ্ঠতে রয়েছে কাটোয়া ১ ব্লকের সুদপুর হাইস্কুলের কন্যাশ্রী ক্লাব। আষাঢ়ে কাটোয়া ২ ব্লকের মেঝিয়ারি চঞ্চলাবালা বালিকা বিদ্যালয়। শ্রাবণে পূর্বস্থলী-২ ব্লকের পারুলিয়া কুলকামিনী উচ্চ বিদ্যালয়। ভাদ্র মাসে মেমারি ২ ব্লকের বোহার গার্লস হাইস্কুল।
আশ্বিনে কালনা ২ ব্লকের আনুখাল উচ্চ বিদ্যালয়। কার্তিকে কালনা পুরসভার কালনা মহিষমর্দিনী গার্লস ইনস্টিটিউশন। অগ্রহায়ণে খণ্ডঘোষের সরঙ্গা হাইস্কুল। পৌষ মাসে বর্ধমান ২ ব্লকের জোতরাম বিদ্যাপীঠ (উচ্চ মাধ্যমিক)। মাঘে জামালপুরের পর্বতপুর হার্লস হাইস্কুল। ফাল্গুনে মঙ্গলকোটের মাজিগ্রাম বিশ্বেশ্বরী উচ্চ বিদ্যালয় ও চৈত্র মাসের পাতায় এসেছে ভাতার ব্লকের বিজয়পুর পলসোনা হাইস্কুলের কন্যাশ্রী ক্লাবের কথা। শারদ্বতী চৌধুরি জানান, এই ক্যালেন্ডারের মাধ্যমে কন্যাশ্রীদের উৎসাহিত করা ও সচেতনতা বাড়ানোই লক্ষ্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *