অবশেষে মিলল সেন্সর বোর্ডের সম্মতি, প্রকাশ্যে ‘পিউপা’র টিজার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লড়াইটা কাজে লাগল। এতদিনে ফল মিলল। কোনও কাট ছাড়াই পরিচালক ইন্দ্রাশিস আচার্যর ‘পিউপা’কে শংসাপত্র দিতে সম্মত হল মুম্বই সিবিএফসি। শংসাপত্রটি এখনও অবশ্য হাতে এসে পৌঁছায়নি। তবে নতুন মুক্তির তারিখ পেল বহুচর্চিত বাংলা ছবিটি। জুন মাসের প্রথম দিনই মুক্তি পাচ্ছে ‘পিউপা’।  তার আগে প্রকাশ্যে এল ছবির টিজার।

একদিকে সুন্দর ভবিষ্যতের হাতছানি, অন্যদিকে শিকড়ের প্রতি দায়বদ্ধতা- কোনটাকে বেছে নেবে মানুষ? এই প্রশ্নের উত্তরই নিজের ছবিতে খুঁজেছেন পরিচালক ইন্দ্রাশিস আচার্য। মুখ্য চরিত্রে রয়েছেন রাহুল বন্দ্যোপাধ্যায়, সুদীপ্তা চক্রবর্তী, কমলেশ্বর মুখোপাধ্যায় ও প্রদীপ মুখোপাধ্যায়ের মতো তুখড় অভিনেতারা। ঔরঙ্গাবাদ আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে সেরা পরিচালক, সেরা অভিনেতা, সেরা সাউন্ড ডিজাইনের পুরস্কার পেয়েছে এ কাহিনি।  এক সাক্ষাৎকারে সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল-কে পরিচালক জানিয়েছিলেন, ছবিতে একটি খুনের দৃশ্য রয়েছে। সে দৃশ্য নিয়েই আপত্তি তুলেছিল সেন্সর। পালটাতে বলা হয়েছিল খুনের পদ্ধতি। কিন্তু ইন্ডিপেনডেন্ট ফিল্ম মেকার ইন্দ্রাশিস হাল ছাড়তে নারাজ ছিলেন। প্যাশন থেকেই ছবি তৈরি করেন। একটা অর্থবহ সিনেমা দর্শকদের উপহার দিতে চান। ওই একটা দৃশ্য বাদ দিলে সিনেমার কাহিনিতে ভীষণভাবে তার প্রভাব পড়বে। তাই কিছুতেই দৃশ্যটি বাদ দিতে রাজি হননি পরিচালক।

[কাঠুয়া কাণ্ডের প্রতিবাদ করে বিদ্রুপের মুখে করিনা, পালটা দিলেন স্বরা]

সিবিএফসি-র মুম্বই বিভাগে পাঠানো হয় ছবি। সেখানে ছবিটি দেখেন সেন্সরের অন্যতম সদস্য বিদ্যা বালান। সিনেমাটি ভীষণ পছন্দ হয় তাঁর। কোনও দৃশ্য বাদ দিয়েই ছবিকে শংসাপত্র দেওয়ার কথা বলে তিনি। জানিয়ে দেন, এ ছবিতে বাদ দেওয়ার মতো কোনও দৃশ্যই নেই। কেবল ছবি শুরুর আগে একটি ডিসক্লেমার দিয়ে দিলেই হবে।

IMG_5273

১৯ জানুয়ারি ‘পিউপা’র মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। কলকাতা সিবিএফসির টালবাহানায় সে তারিখ পিছিয়ে দিতে হয়। গত কলকাতা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে ‘ইন্ডিয়ান ল্যাঙ্গোয়েজ ফিল্মস’-এর কম্পিটিশন বিভাগে মনোনীত হয় ইন্দ্রাশিসের ছবি। সেখানে ঘটে আরেক বিপত্তি। প্রদর্শনের সময়ই বন্ধ হয়ে যায় প্রজেক্টর। একরকম বিরক্ত হয়েই উঠে যান আন্তর্জাতিক জুরিরা। হতাশ হন উপস্থিত দর্শকরাও। বিরক্তি প্রকাশ করেন অভিনেতা রাহুল। হতাশা জাহির করেন পরিচালকও। তবে সে সব এখন অতীত। ‘মন শক্ত করে থাকলে গাছের সাথেও বাঁচা যায়’-  এই মন্ত্রকে সঙ্গী করেই দর্শকের দরবারে আসার অপেক্ষায় ‘পিউপা’।

[সৃজিতের ‘উমা’র অকালবোধন, টিজারে যীশু-কন্যার আগমনী ]

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *