৩০ শ্রাবণ  ১৪২৫  বুধবার ১৫ আগস্ট ২০১৮  |  মোর নাম এই বলে খ্যাত হোক, আমি তোমাদেরই লোক: রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও রাশিয়ায় মহারণ ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কবে প্রধানমন্ত্রী পদে শপথ গ্রহণ করতে চলেছেন ইমরান খান? জল্পনা ছিল তুঙ্গে৷ অবশেষে শুক্রবার চূড়ান্ত দিন ঘোষণা করলেন পাকিস্তানের তেহরিক-ই-ইনসাফের এক নেতা৷ জানালেন, আগামী ১৮ আগস্ট শপথগ্রহণ করতে চলেছেন কিংবদন্তি ক্রিকেটার৷

প্রথমে শোনা গিয়েছিল, ১১ আগস্ট শপথ নেবেন তিনি৷ তবে এদিন সেনেটর ফৈসাল জাভেদও টুইট করে জানিয়ে দেন, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে ১৮ আগস্টই শপথ নেবেন ইমরান৷ এই অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিতদের তালিকায় রয়েছেন তিন ভারতীয় ক্রিকেটারও৷ কপিল দেব, নভজ্যোত সিং সিধু এবং সুনীল গাভাসকর৷ প্রথমে শোনা গিয়েছিল শপথগ্রহণে নরেন্দ্র মোদিকে আমন্ত্রণ জানাবেন পাকিস্তানের হবু প্রধানমন্ত্রী। তবে সেপথে না হেঁটে অন্য রাস্তা নেন পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফের সুপ্রিমো। তাঁর সমসাময়িক ভারতীয় ক্রিকেট তারকাদের আমন্ত্রণ জানান। শুধু তাই নয়, আমন্ত্রিতদের তালিকায় রয়েছেন অভিনেতা আমির খানও। সিধু এবং কপিল দেব আগেই জানিয়েছিলেন, বন্ধুত্বের খাতিরেই অনুষ্ঠানে হাজির থাকবেন তাঁরা। তবে দিন পালটানোর পর তাঁরা কী করবেন, তা এখনও জানা যায়নি।

[অন্য ধর্মের মহিলার সঙ্গে করমর্দনে আপত্তি, চাকরি খোয়ালেন মুসলিম শিক্ষক]

৩৪২ আসন বিশিষ্ট পাক পার্লামেন্ট বা ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলিতে নির্বাচন হয় গত ২৫ জুলাই৷ লড়াই হয় মোট ২৭২টি আসনে। ৭০টি আসন সংরক্ষিত থাকে মহিলা ও প্রতিবন্ধীদের জন্য। যেখানে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতার জন্য কোনও রাজনৈতিক দলকে পেতে হত ১৩৭ টি আসন। ওই নির্বাচনে ইমরান খানের পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) পায় ১১৫টি আসন৷ তুলনায় অনেকটাই পিছিয়ে ছিলেন নওয়াজ শরিফের দল পিএমলএন ও বিলাওয়াল ভুট্টোর পিপিপি। পিএমলএন পায় ৬৪টি আসন৷ ৪৩টি আসন বেনজির ভুট্টোর পিপিপি। গত সোমবার দেশের পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী হিসেবে ইমরানের নামই মনোনীত করেছিলেন পিটিআইয়ের সংসদীয় কমিটি৷

তবে নির্বাচনে পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেলেও, সরকার গঠনের জন্য আরও ২২টি আসন দরকার পিটিআই-র৷ অবশেষে সব শর্ত পূরণ করেই মসনদে বসতে চলেছেন বাইশ গজের কিংবদন্তি৷পাকিস্তানের স্বাধীনতা দিবস ১৪ আগস্ট৷ তারপরই প্রধানমন্ত্রী পদে শপথ নেবেন ইমরান খান৷ যদিও পিটিআই-র প্রত্যেক সদস্য চেয়েছিলেন ১৪ আগস্টের আগেই শপথ গ্রহণের পর্ব শেষ হোক৷ কিন্তু তেমনটা হচ্ছে না৷ তবে জানা গিয়েছে, শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকতে স্কটল্যান্ড সফরও স্থগিত রেখেছেন রাষ্ট্রপতি মামনুন হোসেন৷ আগামী ১৬ থেকে ১৯ আগস্ট স্কটল্যান্ডে থাকার কথা ছিল তাঁর৷ তবে ১৮ আগস্টের পরই সফরে যাবেন তিনি৷

[নাবালক ছেলেকে দিয়ে লালসা মেটাত মা ও সৎ বাবা, ভিডিও যেত পর্নসাইটে]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং