২৬ কার্তিক  ১৪২৬  বুধবার ১৩ নভেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বঙ্গন্ধুর বায়োপিক নিয়ে দীর্ঘক্ষণ শ্যাম বেনেগালের সঙ্গে কথা বললেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ভারত ও বাংলাদেশের যৌথ উদ্যোগে বঙ্গবন্ধু মুজিবর রহমানকে নিয়ে বায়োপিক তৈরি হতে চলেছে। এটি পরিচালনা করবেন শ্যাম বেনেগাল। ছবির চিত্রনাট্য লিখছেন অতুল তিওয়ারি। রবিবার আলোচনায় একটি তথ্যচিত্র তৈরির কথাও হয়।

হাসিনার উপদেষ্টা গওহর রিজভির নেতৃত্বে বাংলাদেশের একটি প্রতিনিধিদল তথ্য-সম্প্রচার মন্ত্রকের সচিবের সঙ্গে বৈঠক করেছে। ছবিটি নিয়ে দু’তরফে আলোচনাও হয়েছে। জানা গিয়েছে, চিত্রনাট্যের জন্য গবেষণা করতে অতুল বাংলাদেশে যাবেন।  বাংলাদেশের ফিল্ম-ব্যক্তিত্ব পিপলু খান তাঁকে সাহায্য করবেন। এছাড়া টেলিভিশনের জন্যও উদ্যোগ নিয়েছে দু’দেশ। প্রসার ভারতী ডিডি ফ্রেশ প্ল্যাটফর্মে বাংলাদেশ টিভি দেখানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এর জন্য কোনও টাকা লাগবে না। বাংলাদেশে ডিটিএইচ পরিষেবা চালুর পর দূরদর্শন সেখানে সম্প্রচারিত হবে।

[ আরও পড়ুন: শুরু প্রজননের মরশুম, ইলিশ ধরা নিষিদ্ধ করল বাংলাদেশ ]

বাংলাদেশ-ভারতের যৌথ প্রযোজনায় বঙ্গবন্ধুর বায়োপিক তৈরির কাজ ২০২১ সালের ২৬ মার্চের মধ্যে শেষ হবে বলেও জানান পরিচালক শ্যাম বেনেগাল। তিনি জানিয়েছেন, শ্যাম বেনেগাল বলেন, “জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে সিনেমা পরিচালনার দায়িত্ব পেয়ে আমি গর্বিত। এ ধরনের চলচ্চিত্র নির্মাণের ক্ষেত্রে ইতিহাসের প্রতি সৎ থাকা বড় একটি বিষয়। আমি সেটাই করতে চাই। এটা হবে জীবনীভিত্তিক একটি চলচ্চিত্র, এর মধ্যে আরও অনেক কিছু আসবে। এটা একটি জাতির জন্মের কথা বলবে, এর একটি মহাকাব্যিক দিকও থাকবে। এতে এমন এক ব্যক্তির গল্প থাকবে, যিনি একটা দেশের বিজয় নিয়ে এসেছেন। এছাড়া গ্রিক থিয়েটারের মতো শেষের দিকে ট্র্যাজেডিও থাকবে। এটা হবে অন্যরকম একটা গল্পের চিত্রায়ন। এটা সঠিকভাবে করাটা বেশ কঠিন। কিন্তু, আমি আমার সাধ্যমতো চেষ্টা করব।” তিনি আরও বলেন, “যৌথ প্রযোজনার হলেও সিনেমার পুরো চিত্রায়ন হবে বাংলাদেশে। আমি আশা করি দুই দেশের সবাই নিষ্ঠার সঙ্গে কাজটি করবেন। তবেই এটা একটা সফল কাজ হবে।” তিনি আরও বলেন, “আমরা সবাই আশাকরি বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকীর শেষে ও ২০২১ সালে স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তির মধ্যেই সিনেমাটির নির্মাণ সমাপ্ত হবে। সিনেমার মূল ভার্সনের ভাষা হবে বাংলা। অন্যান্য দেশের ক্ষেত্রে সেই দেশের ভাষার সাব টাইটেল থাকবে।”

[ আরও পড়ুন: নিরামিষ পদে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীকে আপ্যায়ণ মোদির, হাসাহাসি রাজনৈতিক মহলে ]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং