BREAKING NEWS

১৫ মাঘ  ১৪২৮  শনিবার ২৯ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

‘পা ভেঙে হাতে ক্র্যাচ ধরিয়ে দেব’, প্রতিবন্ধীদের অনুষ্ঠানে মেজাজ হারালেন বাবুল

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: September 19, 2018 9:47 am|    Updated: September 20, 2018 10:06 am

Babul Supriyo losses temo in public

চন্দ্রশেখর চট্টোপাধ্যায়, আসানসোল: ফের জনসমক্ষে মেজাজ হারিয়ে বিতর্কে জড়ালেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী তথা আসানসোলের সাংসদ বাবুল সুপ্রিয়। নিজের লোকসভা কেন্দ্র আসানসোলে প্রতিবন্ধীদের একটি অনুষ্ঠানে গিয়ে প্রকাশ্যে এক ব্যক্তির সঙ্গে উগ্রভাবে কথা বলতে শোনা গেল কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে। মেজাজ হারিয়ে বলে ফেললেন, “আর একটু নড়াচড়া করলে আপনার পা ভেঙে হাতে ক্রাচ ধরিয়ে দেব।”

[ত্রিপুরার কায়দাতেই বাংলা জয়ের লক্ষ্যে ঝাঁপাচ্ছে বঙ্গ বিজেপি]

মূল ঘটনাটি মঙ্গলবারের। প্রতিবন্ধীদের একটি অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত ছিলেন সাংসদ বাবুল। ‘সামাজিক অধিকার শিবির’ নামের ওই অনুষ্ঠানে প্রতিবন্ধীদের জন্য হুইল চেয়ার বিলি করার কথা ছিল বাবুল সুপ্রিয়র। প্রতিবন্ধীদের জন্য অন্যান্য সরঞ্জামও বিলি করা হয় ওই অনুষ্ঠানে। অনুষ্ঠান মঞ্চে যখন বাবুল সুপ্রিয় বক্তব্য রাখছেন, তখন দর্শকদের মধ্যে থেকে এক ব্যক্তি বারবার চলাফেরা করছিলেন বলে অভিযোগ। ওই ব্যক্তির হাঁটাচলায় নাকি বক্তব্য রাখতে অসুবিধা হচ্ছিল কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর। বক্তব্য চলাকালীন ওই ব্যক্তিকে একবার স্থির হয়ে দাঁড়ানোরও নির্দেশ দেন আসানসোলের সাংসদ। কিন্তু ওই ব্যক্তি মন্ত্রীর কথা না শুনে ফের হাঁটাচলা শুরু করেন। আর তাতেই মেজাজ হারান বাবুল। বলে বসেন, আপনার সমস্যা কী, আপনার এক পা ভেঙে হাতে ক্র্যাচ ধরিয়ে দেব। এরপর নড়াচড়া বন্ধ করে এক জায়গায় স্থির হয়ে দাঁড়িয়ে থাকুন।” এরপর বাবুল নিজের নিরাপত্তারক্ষীদের ওই ব্যক্তির গতিবিধির উপর নজর রাখার নির্দেশও দেন।

[ফেসবুকে মুখ্যমন্ত্রীর কুরুচিকর ছবি পোস্ট, আটক বিজেপি কর্মী]

স্বাভাবিকভাবেই মন্ত্রীর এই আচরণে ক্ষোভ প্রকাশ করেছে বিরোধীরা। তাছাড়া এই প্রথম নয়, এর আগেও প্রকাশ্যে বেফাঁস মন্তব্য করে শিরোনামে আসেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। রামনবমী পরবর্তী গোষ্ঠী সংঘর্ষের পর এলাকা পরিদর্শনে গিয়ে স্থানীয়দের বিক্ষোভের মুখে পড়েছিলেন বাবুল। তখনই সমবেত জনতাকে জ্যান্ত জ্বালিয়ে দেওয়ার হুমকি দেন মন্ত্রী। বারবার বিতর্কিত মন্তব্য সাংসদের ভাবমূর্তির ক্ষতি করবে বলেই মত রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে