BREAKING NEWS

১৫  আষাঢ়  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ৩০ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রেলের গাফিলতিতেই দুর্ঘটনা সাঁতরাগাছিতে, এফআইআর জিআরপি-র

Published by: Tanumoy Ghosal |    Posted: October 24, 2018 1:52 pm|    Updated: October 24, 2018 1:52 pm

FIR filed on Santragachi station stamped case

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সাঁতরাগাছি স্টেশনে দুর্ঘটনায় রেলের গাফিলতিকেই দায়ী করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর বক্তব্য, স্টেশন কিংবা ফুটব্রিজে যাতে যাত্রীদের পদপিষ্ট হতে না হয়, সে ব্যাপারে রেলের আরও দায়িত্ববান হওয়া উচিত। মঙ্গলবার রেলের বিরুদ্ধে গাফিলতিতে মৃত্যু, গুরুতর আঘাত-সহ একাধিক ধারায় এফআইআর করেছে জিআরপি। একজনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে বলে খবর। ঘটনার সময়ের সিসিটিভি ফুটেজও জোগাড় করার চেষ্টা করছেন।

[ হুড়োহুড়ির মাঝে বারবার ফোন, তবুও নট রিচেবল]

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় যখন রেড রোডে পুজো কার্নিভাল চলছিল, তখন ভয়াবহ দুর্ঘটনা ঘটে সাঁতরাগাছি স্টেশনে।  যাত্রীদের হুড়োহুড়িতে ফুটব্রিজে পদপিষ্ট হয়ে মারা যান ২ জন। আহত হন ১৪ জন। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, সন্ধ্যে পৌনে ছ’টা নাগাদ একসঙ্গে তিনটে ট্রেন চলে আসে সাঁতরাগাছি স্টেশনে। ট্রেন আসার ঘোষণা হতেই যাত্রীদের মধ্যে হুড়োহুড়ি পড়ে যায়। ফুটব্রিজে উঠতে গিয়ে পড়ে যান বেশ কয়েকজন। তাঁদের পিষে দিয়ে চলে যান বাকিরাও। পদপিষ্ট হয়ে আহত হয় দুই শিশু-সহ ১৪ জন। পরে হাসপাতালে মারা যান দু’জন। রেড রোডে কার্নিভাল শেষে সাঁতরাগাছি স্টেশনে যান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দুর্ঘটনার জন্য রেলের গাফিলতিকে দায়ী করেন তিনি। মৃতদের পরিবারপিছু ৫ লক্ষ টাকা ও আহতদের পরিবারপিছু ১ লক্ষ টাকা আর্থিক সাহায্যের কথাও ঘোষণা করা হয়।

এদিকে, সাঁতরাগাছি স্টেশনে দুর্ঘটনার উচ্চ পর্যায়ের তদন্ত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রেলও। নিহতদের পরিবারপিছু ৫ লক্ষ টাকা ও গুরুতর আহতদের ১ লক্ষ টাকা আর্থিক সাহায্য করবে দক্ষিণ-পূর্ব রেল কর্তৃপক্ষ। রেলের সাফাই, ফুটব্রিজে অতিরিক্ত যাত্রী উঠে পড়েছিলেন। সেকারণেই দুর্ঘটনা ঘটেছে। কিন্তু, দুর্ঘটনায় আহত এক যাত্রীই রেলের বিরুদ্ধে গাফিলতির অভিযোগ করেছেন বলে জানা গিয়েছে। সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই গাফিলতিতে মৃত্যু, গুরুতর আঘাত-সহ একাধিক ধারায় মামলা রুজু করেছে জিআরপি। একজনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদও করা হচ্ছে বলে খবর।  ঘটনার ভিডিও ফুটেজ জোগাড় করার চেষ্টা করছেন তদন্তকারীরা।

[ ‘ প্ল্যাটফর্মে দাঁড়িয়ে দম বন্ধ হয়ে যাচ্ছিল, মনে হচ্ছিল আর বাঁচব না’]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে