৩০ আশ্বিন  ১৪২৬  শুক্রবার ১৮ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

শম্পালী মৌলিক: সবাই যখন পুজো রিলিজের প্রস্তুতিতে মগ্ন, সেই সময় সুরিন্দর ফিল্মসের বড় চমক। এই প্রথমবার তারা যশ-প্রিয়াঙ্কা জুটিকে পরস্পরের বিপরীতে আনতে চলেছে। ছবি পরিচালনায় সুজিত মণ্ডল। আর মিউজিক করছেন জিৎ গাঙ্গুলি। এই ছবি প্রধানত প্রেমের গল্প নিয়ে। হিয়া আর অর্জুনের চরিত্রে প্রিয়াঙ্কা এবং যশ। ভালবাসার যে জীবন বদলে দেওয়ার ক্ষমতা আছে সেই কথাই বলবে এই নতুন ছবি। তবে মোটেই আর পাঁচটা গতে বাঁধা কমার্শিয়াল ছবির ধরনে নয়, এমনটাই জানালেন ছবির প্রধান দুই অ্যাক্টর। কাহিনি লিখেছেন শ্বেতা ভরদ্বাজ ও মণীশ শর্মা।

নায়ক যশকে উচ্ছসিত শোনাল। বলেই দিলেন, ‘‘অনেক কিছু প্রথমবার ঘটছে এই ছবিতে। এই প্রথম সুরিন্দর ফিল্মসের সঙ্গে কাজ করতে চলেছি। প্রিয়াঙ্কার সঙ্গেও এটাই হবে আমার প্রথম ফিল্ম। এটা লাভস্টোরি হলেও গড়পড়তা ভালবাসার গল্প নয়। ইট’স আ স্যাড লাভ স্টোরি। আমার চরিত্রটা দারুণ ইন্টারেস্টিং। যেমনটা আমি আগে কখনও করিনি। আই অ্যাম প্লেয়িং অ্যান অ্যালকোহলিক। ছবিতে ছোটবেলার একটা দিক আছে। বড় হয়ে ছেলেটা ডিপ্রেশনে ডুবে যায়। আমার চরিত্রের নাম অর্জুন, আর প্রিয়াঙ্কা করছে হিয়ার রোল।’’

[ আরও পড়ুন: গান্ধীকে শ্রদ্ধার্ঘ, বছর পাঁচেক পর ছবি পরিচালনায় সুভাষ ঘাই ]

স্টোরি খুব বেশি রিভিল করতে চাইছেন না নায়ক-নায়িকা। তবে পুজোর মুখে এটা যে সুখবর মেনে নিলেন প্রিয়াঙ্কাও। হেসে বললেন, ‘হ্যাঁ, যশের বিপরীতে এটা আমার প্রথম কাজ হতে চলেছে। আমার চরিত্রটায় অনেক শেড আছে। বলতে পারেন আমার চরিত্রটা ভীষণই ডিফিকাল্ট। আই অ্যাম ভেরি এক্সাইটেড। এটা একদম প্রেমের গল্প। দুটো বাচ্চা দিয়ে শুরু। তারপর তাদের লাইফটা ট্র‌্যাভেল করে। আমার চরিত্রটা ভীষণ প্রাণবন্ত, বাবলি ধরনের। জীবনের প্রতিটা মুহূর্ত উপভোগ করে সে। নিজের কোনও স্বপ্ন অসম্পূর্ণ রাখতে চায় না। হিয়া আর অর্জুনের কেমিস্ট্রি দারুণ লাগবে দর্শকের মনে হয়।’’ সবকিছু ঠিকঠাক চললে পুজোর আগেই, এ মাসের শেষের দিকেই শুটিং শুরু। কলকাতা আর কিছুটা বিদেশে মিলিয়ে শুটিং হবে।

[ আরও পড়ুন: এমি অ্যাওয়ার্ডের বিশেষ বিভাগে মনোনীত অনুরাগের ৩টি ওয়েব সিরিজ ]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং