BREAKING NEWS

১০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৬ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

রেনাল ফাংশানের উন্নতি প্রয়োজন, সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের ডায়ালিসিসের সিদ্ধান্ত চিকিৎসকদের

Published by: Suparna Majumder |    Posted: October 28, 2020 5:00 pm|    Updated: October 28, 2020 5:00 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: গত ৪৮ ঘণ্টা ধরে প্রায় একইরকম রয়েছে সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের (Soumitra Chatterjee) শারীরিক অবস্থা। কিংবদন্তি অভিনেতার রেনাল ফাংশানের উন্নতির জন্য ডায়ালিসিস করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন চিকিৎসকরা। প্রথম দফায় ২-৩টি এপিসোডের ডায়ালিসিস করা হবে বলে বেলভিউ হাসপাতালের পক্ষ থেকে জানিয়েছেন ডা. অরিন্দম কর।

এদিন ডা. কর জানান, নতুন করে সৌমিত্রবাবুর শারীরিক অবস্থার উন্নতি যেমন হয়নি, তেমনই পরিস্থিতির অবনতিও হয়নি। তাঁর রক্তক্ষরণ বন্ধ করা গিয়েছে। হিমোগ্লোবিন-সহ অন্যান্য বিষয়গুলিও স্থিতিশীল। গত ২৪ ঘণ্টায় ১.৫ লিটার ইউরিন হয়েছে। তবে রেনাল ফাংশানের উন্নতির প্রয়োজন। এর জন্য ২-৩টি এপিসোডের ডায়ালিসিসের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। এতে ইউরিয়া ক্রিয়েটিনিনের পরিমাণ কমবে। যার ফলে আচ্ছন্নভাব কিছুটা হলেও কাটবে বলে আশা করা হচ্ছে।

[আরও পড়ুন: যে কোনও সময় গ্রেপ্তার করতে পারে সিবিআই! ভয়ে বম্বে হাই কোর্টের দ্বারস্থ সুশান্তের দুই দিদি]

এই মুহূর্তে মস্তিষ্কের স্নায়ুর সচেতনতা অর্থাৎ গ্লাসগো কোমা স্কেলে সূচক ৯ থেকে ১০-এর মধ্যে রয়েছে। ফুসফুসের অবস্থাও মোটামুটি স্থিতিশীল। প্রবীণ অভিনেতার অক্সিজেন স্যাচুরেশন ৪০ থেকে ৫০ শতাংশের মধ্যেই রয়েছে। তারও কোনও পরিবর্তন নেই বলেই জানা গিয়েছে। ক্ষতিকারক ব্যাকটিরিয়া চিহ্নিত করা গিয়েছে। সেই অনুযায়ীই অ্যান্টিবায়োটিক দেওয়া হচ্ছে বলে বেলভিউর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

৬ অক্টোবর থেকে বেলভিউ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অভিনেতা। করোনা (CorinaVirus) আক্রান্ত অবস্থায় তাঁকে হাসপাতালে ভরতি করা হয়। প্লাজমা থেরাপির পর তাঁর করোনা (COVID-19) রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। সেইসঙ্গে চিকিৎসাতেও সাড়া দিতে থাকেন তিনি। কিন্তু আচমকাই তাঁর শারীরিক অবস্থা সংকটজনক হয়ে পড়ে। চিকিৎসকরা জানান, সৌমিত্রর শরীরে সমস্যা বাড়িয়েছে কোভিড এনসেফ্যালোপ্যাথি। তারপর থেকেই তাঁর চেতনা ক্রমশ কমতে শুরু করে। বয়স এবং কো-মর্বিডিটি সৌমিত্রর চিকিৎসার পথে বাধা হয়ে দাঁড়াচ্ছে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।  

[আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্ত অভিনেত্রী অপরাজিতা আঢ্য, রয়েছেন হোম আইসোলেশনে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement