BREAKING NEWS

২৫ চৈত্র  ১৪২৬  বুধবার ৮ এপ্রিল ২০২০ 

Advertisement

গার্গী কলেজের ঘটনায় তীব্র নিন্দা স্বরার, হুমা বললেন ‘গণশ্লীলতাহানি’

Published by: Bishakha Pal |    Posted: February 13, 2020 8:13 pm|    Updated: February 13, 2020 8:13 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: জেএনইউয়ে ছাত্রী নিগ্রহের ঘটনার প্রতিবাদে মুখ খুলেছিলেন স্বরা ভাস্কর। এবার গার্গী কলেজে ছাত্রীদের শ্লীলতাহানির ঘটনায় ফের ক্ষুব্ধ অভিনেত্রী। টুইটারে তিনি প্রশ্ন ছুঁড়ে দিলেন, “দিল্লিতে এসব কী হচ্ছে?” স্বরার পাশাপাশি হুমা কুরেশিও এই ঘটনার প্রতিবাদ করেছেন। তিনি গার্গী কলেজেই পড়াশোনা করেছেন। স্বাভাবিকভাবেই তিনি ফুঁসে উঠেছেন এমন ঘটনায়। টুইটারে তিনি লিখেছেন, গার্গী কলেজে যা ঘটেছে, তা ‘গণশ্লীলতাহানি’।

গত ৬ ফেব্রুয়ারি দিল্লির গার্গী কলেজে অনুষ্ঠান চলছিল। ছাত্রীদের দাবি, সেই সময় কলেজের সামনে দিয়ে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের সমর্থনে মিছিলকারীরা যাচ্ছিলেন। ছাত্রীরা বলেন, “ওই মিছিলে পা মেলানো বেশ কয়েকজন মধ্যবয়স্ক ব্যক্তি কলেজে ঢুকে পড়ে। কলেজের ভিতরে আমাদের হেনস্তা করা হয়। তারা আমাদের সামনেই হস্তমৈথুন করে। শৌচালয়েও আটকে দেওয়া হয় বেশ কয়েকজন ছাত্রীকে। সেখানেও তাঁদের সঙ্গে অভব্য আচরণ করা হয়।” আচমকা ‘বহিরাগত’দের হামলায় আতঙ্কিত হয়ে পড়েন ছাত্রীরা। তড়িঘড়ি কলেজ ছেড়ে বেরিয়ে বাড়ির উদ্দেশে রওনা দেন কেউ কেউ। সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘটনার প্রতিবাদে গর্জে ওঠেন ছাত্রীরা। কলেজ কর্তৃপক্ষকেও বিষয়টি জানান অনেকেই।

[ আরও পড়ুন: প্রেমদিবসেই দেবেন বিয়ের খবর? অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলার পোস্ট ঘিরে জল্পনা তুঙ্গে ]

ছাত্রীদের উপর এমন ঘটনায় সরব হন স্বরা ভাস্কর ও হুমা কুরেশি। টুইটারে স্বরা লেখেন, “দিল্লিতে এসব কী হচ্ছে? বিকৃতকাম আর পাগলামো চলছে গার্গী কলেজে।” হুমা কুরেশি লেখেন, “গণশ্লীলতাহানি হয়েছে গার্গী কলেজে। কী চলছে এসব? এখানেই আমি পড়াশোনা করেছি? এইসব ঘটনা আমাকে অসুস্থ ও ক্রুদ্ধ করে তুলেছে। কেন আমরা আমাদের মেয়েদের সুরক্ষা দিতে পারি না? আমরা কেন দেশের ছাত্রীদের রক্ষা করতে পারি না?”

গার্গী কলেজের ঘটনায় এখনও পর্যন্ত ১০ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ধৃতদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৪৫২, ৩৫৪, ৫০৯, ৩৪ ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। তথ্যের খোঁজে ঘটনার সময় উপস্থিত ছাত্রীদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। কলেজ কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলছেন তদন্তকারীরা। জাতীয় মহিলা কমিশনের সদস্যরাও কলেজ পরিদর্শন করেন। ছাত্রীদের সঙ্গে এহেন আচরণের তীব্র নিন্দা করেন দিল্লির ভাবী মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল। অভিযুক্তদের কঠোরতম শাস্তির দাবি করেছেন তিনি।

[ আরও পড়ুন: রাতারাতি ফর্সা ‘কৃষ্ণকলি’র শ্যামা, নেটদুনিয়ায় হাসির খোরাক ধারাবাহিক ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement