৯ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

টানা পাঁচদিন ম্যারাথন যোগ, গিনেসে নাম ভারতীয় গৃহবধূর

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: December 29, 2017 5:40 am|    Updated: September 18, 2019 1:38 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: যোগব্যায়ামকে বরাবরই বাড়তি গুরুত্ব দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। চালু হয়েছে আন্তর্জাতিক যোগ দিবস পালন। গোটা বিশ্বেই তা জনপ্রিয়তা পাচ্ছে ক্রমশ। এবার ভারতীয় যোগ ব্যায়ামকে অন্য উচ্চতায় পৌঁছে দিলেন চেন্নাইয়ের গৃহবধূ কবিতা ভারানিদরন। টানা পাঁচটিন যোগ অভ্যাস করে গিনেসে নাম তুললেন তিনি।

তৎকাল টিকিট নিয়ে ব্যাপক কেলেঙ্কারির পর্দাফাঁস রেলে, ধৃত সিবিআইয়ের কর্মী ]

বয়স ৩১। সাড়ে তিন বছরের সন্তানের মা। আদতে গৃহবধূ। কিন্তু এ সবকিছুই তাঁর যোগ অভ্যাসের পথে বাধা হয়ে দাঁড়ায়নি। যোগে দক্ষ এই মহিলা বড় কিছু করার পণ করেছিলেন। সেইমতো আসরে নামেন। গত ২৩ ডিসেম্বর থেকে তিনি টানা পাঁচদিন যোগ চালিয়ে গিয়েছেন। সেদিন সকাল সাতটায় যোগ ব্যায়াম শুরু করেন। তারপর তা চালিয়েই যান। আজ শুক্রবার অর্থাৎ ২৮ ডিসেম্বর টানা পাঁচদিনে পড়ল তাঁর কাজ। এতক্ষণ টানা যোগের কেরামতি দেখানোর রেকর্ড বিশ্বে কারও নেই। ফলে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে নাম তুলে ফেললেন এই মহিলা। এর আগে সবথেকে বেশিক্ষণ যোগ অভ্যাসের রেকর্ড ছিল নাসিকের প্রদ্যনা পাটিলের। টানা ১০৩ ঘণ্টা যোগ অভ্যাস করেছিলেন তিনি। চেন্নাইয়ের গৃহবধূর ম্যারাথন যোগ তাঁকেও পরাস্ত করল।

তবে এখানেই শেষ নয়। গোটা দেশ যখন ধন্য ধন্য করছে, তখনও নিজের কাজে ইতি টানেননি তিনি। ইতিমধ্যে নয়া বিশ্বরেকর্ড হয়ে গিয়েছে। কিন্তু ক্ষান্ত নন কবিতা। নিজের সামনেই ছুড়ে দিয়েছেন আর এক চ্যালেঞ্জ। রেকর্ডকে আরও উচ্চতা দিতে চাইছেন। তাঁর আশা, আগামী ৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত তিনি এই যোগ অভ্যাস চালিয়ে যেতে পারবেন। অর্থাৎ টানা এক সপ্তাহ যোগ অভ্যাস করতে চাইছেন তিনি। যদি তিনি তা পারেন তবে বিশ্বে সে রেকর্ড কারও তো থাকবেই না, সহজে কারও পক্ষে ভাঙাও সম্ভব হবে না।

ঐতিহাসিক মুহূর্ত, ভোটাভুটি শেষে লোকসভায় পাশ তিন তালাক বিল ]

ভারতের যোগকে বিশ্বের দরবারে পৌঁছে দিতে চেষ্টার কসুর করেননি প্রধানমন্ত্রী। নিজে যোগ অভ্যাস করে দেশের সামনে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। দেশের বাইরে গিয়েও ভারতের যোগকে প্রমোট করেছেন। এবং আন্তর্জাতিক যোগ দিবস পালনের রেওয়াজ শুরু হয়েছে তাঁর জমানা থেকেই। প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্ন, যোগ অভ্যাসে ভারতবাসী নিজেদেরকে সক্ষম করে তুলুন। শারীরিক ও মানসিকভাবে। পাশাপাশি গেটা বিশ্বকে দেখিয়ে দিক ভাররতীয় যোগের ক্ষমতা ও গুরুত্ব। সেই স্বপ্নকে সাফল্যের চূড়ান্ত শৃঙ্গে পৌঁছে দিলেন কবিতা।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement