৩০ কার্তিক  ১৪২৬  রবিবার ১৭ নভেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ধর্ষণের ভয়াবহতা কোনওকিছুর সঙ্গেই তুলনীয় নয়। সে পরিস্থিতি যতই খারাপ হোক। এই সহজ সত্যি কথাটা হয়তো বুঝতে পারেননি কেরলের কংগ্রেস সাংসদ হিবি এডেনের স্ত্রী আনা লিন্ডা এডেন। সেকারণেই হয়তো কটাক্ষ করতে গিয়ে কোচির নিকাশি সমস্যাকে ধর্ষণের সঙ্গে তুলনা করে বসলেন তিনি। যা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় তীব্র কটাক্ষের শিকার হতে হল কংগ্রেস নেতার স্ত্রীকে।


কংগ্রেস সাংসদ হিবি এডেনের স্ত্রী হওয়ার পাশাপাশি লিন্ডা এডেন একজন প্রতিষ্ঠিত সাংবাদিকও। নিজের সোশ্যাল মিডিয়ায় অ্যাকাউন্টে কংগ্রেস নেতার স্ত্রী লিখেছিলেন, ভাগ্য আসলে ধর্ষণের মতো। যদি প্রতিরোধ করা না যায়, তাহলে উপভোগ করার চেষ্টা করা উচিত। তাঁর এই টুইটের পরই সোশ্যাল মিডিয়ায় সমালোচনার ঝড় ওঠে। নিজে একজন মহিলা সাংবাদিক হওয়া সত্ত্বেও ধর্ষণ সম্পর্কে লিন্ডা এমন দায়িত্বজ্ঞানহীন মন্তব্য কী করে করেন, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলতে শুরু করেন নেটিজেনরা।

[আরও পড়ুন: দুই বিএসপি নেতাকে জুতোর মালা পরিয়ে গাধায় ঘোরালেন কর্মীরা, ভাইরাল ভিডিও ]

কিছুক্ষণ পরই অবশ্য টুইটটি ডিলিট করে দেন লিন্ডা। সোশ্যাল মিডিয়ায় নিঃশর্ত ক্ষমা চেয়ে আরও একটি পোস্ট করেন।  তাতে তিনি বলেন, কোচিতে জলনিকাশি সমস্যার ভয়াবহতা বুঝিয়ে তুলতেই ওই টুইট তিনি করেছেন। তাতেও ড্যামেজ কন্ট্রোল হয়নি। জোর বিতর্ক শুরু হয় রাজনৈতিক মহলেও। লিন্ডার স্বামী তথা হিবি এডেন অবশ্য তাঁর পাশেই দাঁড়িয়েছেন। আসলে, সোমবার থেকে প্রবল বৃষ্টিতে জলমগ্ন কোচির বিস্তির্ণ অঞ্চল। বেহাল নিকাশি ব্যবস্থাকে কটাক্ষ করতেই এই টুইট করেন তিনি। লিন্ডার এই মন্তব্যতে বেশি বিপাকে পড়েছেন কংগ্রেস সাংসদ। শেষমেশ অবশ্য স্ত্রীর পাশে দাঁড়িয়ে নেটিজেনদের টুইটকেই কটাক্ষ করেছেন তিনি।

[আরও পড়ুন: দুইয়ের বেশি সন্তান হলে মিলবে না সরকারি চাকরি, নজিরবিহীন সিদ্ধান্ত অসম সরকারের]

উল্লেখ্য, সদ্য শেষ হওয়া লোকসভা নির্বাচনে গোটা দেশে খারাপ ফল করলেও কেরলে দুর্দান্ত ফল করেছে কংগ্রেস। এবারই প্রথম লোকসভা ভোটের ময়দানে নামেন লিন্ডার স্বামী হিবি এডেন। আর প্রথম দফাতেই জয় পান তিনি।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং