BREAKING NEWS

১৪ কার্তিক  ১৪২৭  শনিবার ৩১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

রেলে চাকরির টোপ দিয়ে ডেকে ভোপাল স্টেশনে যুবতীকে ধর্ষণ, ধৃত আধিকারিক

Published by: Paramita Paul |    Posted: September 27, 2020 6:19 pm|    Updated: October 1, 2020 2:26 pm

An Images

সুব্রত বিশ্বাস: ফেসবুকে আলাপ। রেলে চাকরি পাইয়ে দেওয়ার নাম করে যুবতীকে স্টেশনে ডেকে পাঠায় এক রেল আধিকারিক (Rail Officer)। এরপর স্টেশনের ভিআইপি রেস্ট হাউসে খাবারে মাদক মিশিয়ে যুবতীকে ধর্ষণ (Rape) করল সেই আধিকারিক। একা নয়, বন্ধুকে নিয়ে এই অপকর্ম করে গ্রেপ্তার হল সেই রেল আধিকারিক। বন্ধু পলাতক। শনিবার পশ্চিম মধ্য রেলের ভোপাল স্টেশনে (Bhopal Station) এই ঘটনার পর দেশের নানা প্রান্তের স্টেশনের রেস্ট রুমগুলিতে নজর রাখতে রাখতে নির্দেশ দিল রেল বোর্ড। সংকটময় পরিস্থিতিতে ট্রেন নামমাত্র চলছে। ফলে স্টেশনগুলি শুনশান। এই সুযোগকে কাজে লাগিয়ে যাতে এমন অপরাধ কেউ না করতে পারে সে জন্য নজরদারির এই নির্দেশ।

ঘটনা সম্পর্কে ভোপাল রেল পুলিশ জানিয়েছে, অভিযুক্ত রাজেশ তিওয়ারি ডিআরএম দপ্তরের সিকিউরিটি কাউন্সিল-এর আধিকারিক। উত্তরপ্রদেশের মহাবা জেলার এক যুবতীর সঙ্গে ফেসবুকে বন্ধুত্ব হয়। চরম দুঃসময়ে ওই যুবতীকে রেলে চাকরি পাইয়ে দেওয়ার নাম করে ভোপাল স্টেশনে ডেকে পাঠায়। শুক্রবার রাতে ওই যুবতী কথা মতো ভোপাল স্টেশনে আসেন। তাঁকে স্টেশনের ১ নম্বর প্লাটফর্মের ভিআইপি রেস্ট রুমে রাখা হয়। শনিবার যুবতীর খাবারে মাদক দেওয়ায় তিনি প্রায় অচৈতন্য হয়ে পড়েন। এরপর রাজেশ ও তাঁর বন্ধু মিলিত ভাবে যুবতীকে ধর্ষণ করে। যুবতী কোনওক্রমে ছাড়া পেয়ে জিআরপি থানায় গিয়ে দুজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন।

[আরও পড়ুন ; উত্তরপ্রদেশে দলিত যুবতীকে গণধর্ষণ, কাটা হল জিভ! গ্রেপ্তার উচ্চবর্ণের ৪ যুবক]

রাজেশ গ্রেপ্তার হলেও বন্ধু পলাতক। পুলিশ রেস্টহাউস থেকে মদের বোতল ও আপত্তিকর বেশ কিছু সামগ্রী আটক করেছে। রেস্ট হাউসটি সিল করে দেয়। পুলিশ তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করে জানতে চাইছে, কোথা থেকে ঘরটি কীভাবে বুক করেছিল। দেশের নানা প্রান্তে রেল স্টেশনের রেস্ট হাউসগুলো নানাভাবে ব্যবহার করা হয়। ফলে অপরাধ সংগঠিত হওয়ার সম্ভবনা থাকে। প্রায় বাইশ বছর আগে হাওড়া নিউ কমপ্লেক্স যাত্রী নিবাসে গণধর্ষিতা হয়েছিলেন এক আওয়ামী লীগ নেত্রী। রেলকর্মী থেকে দালালদের কয়েকজন এই ধর্ষণে যুক্ত ছিলেন। গ্রেপ্তারও হয়েছিল।

[আরও পড়ুন : প্যাকেট ছাড়া বিড়ি-সিগারেট বিক্রি বন্ধ, দেশের প্রথম রাজ্য হিসেবে সিদ্ধান্ত মহারাষ্ট্রের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement