BREAKING NEWS

১০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  রবিবার ২৭ নভেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘মণিপুরের জলপ্রকল্প মহিলাদের রাখিবন্ধনের উপহার’, ঘোষণা প্রধানমন্ত্রীর

Published by: Paramita Paul |    Posted: July 23, 2020 11:58 am|    Updated: July 23, 2020 1:09 pm

PM Modi inaugurates Manipur water supply project

ফাইল ফটো

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: জোড়া বিপর্যয়ে বিধ্বস্ত উত্তর-পূর্ব ভারত। একদিকে করোনা মহামারী, অন্যদিকে বন্যা। তবে দুই পরিস্থিতি সামাল দিতে দিনরাত পরিশ্রম করছে রাজ্য সরকার। বৃহস্পতিবার মণিপুরের জলপ্রকল্পে ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের সময় উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলির সরকারকে দরাজ সার্টিফিকেট দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi)। একইসঙ্গে এই প্রকল্পকে উত্তর-পূর্বের মহিলাদের রাখিবন্ধনের উপহার বলেও উল্লেখ করলেন মোদি। পাশাপাশি, এই রাজ্যগুলির পরিকাঠামো উন্নয়নে জোর দেওয়ার কথাও জানান তিনি। তাঁর কথায়, পর্যটকদের কাছে এই রাজ্যগুলির আকর্ষণ রয়েছে। তবে তাঁদের টানতে প্রয়োজন উন্নত পরিকাঠামো। তবে উত্তর-পূর্ব ভারতের পরিকাঠামো উন্নয়নের পিছনে অন্য কারণ দেখছে ওয়াকিবহাল মহল।

এদিন দিল্লি থেকেই ভারচুয়াল অনুষ্ঠানের মাধ্যেমে মণিপুরের (Manipur) জল প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপরন করেন প্রধানমন্ত্রী (Narendra Modi)। এই প্রকল্পের ফলে গ্রেটার ইম্ফল ও মণিপুরের (Manipur) ১৭০০ গ্রামে জল পৌঁছে যাবে।  পাশাপাশি, এই প্রকল্পে হাজার হাজার স্থানীয় বাসিন্দার কর্ম সংস্থান হবে বলেও আশা প্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রী। তাঁর কথায়, “করোনা মহামারীর জেরে স্তব্ধ গোটা দেশ। তারমধ্যে একের পর এক উন্নয়নমূলক কাজ করে চলেছে কেন্দ্র সরকার। মণিপুরের জলপ্রকল্প তার উৎকৃষ্ট উদাহরণ।” 

[আরও পড়ুন : বিজ্ঞাপন নয়, সংবাদপত্রের সঙ্গে বিনামূল্যে মাস্ক দিয়ে সচেতনতা প্রচার কাশ্মীরের পত্রিকার]

এদিন প্রধানমন্ত্রী বলেন, ” উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলি জোড়া বিপর্যয়ের মোকাবিলা করছে। একদিকে কোভিড সংক্রমণ অপরদিকে বন্যা পরিস্থিতি। প্রবল বৃষ্টিতে বহু মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন। অনেকেই ঘরছাড়া।” মৃতদের প্রতি শোকজ্ঞাপন করেন মোদি। পাশাপাশি, কঠিন সময়ে গোটা দেশ উত্তর-পূর্ব ভারতের পাশে আছে বলেও আশ্বাস দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। একই সঙ্গে এই রাজ্যগুলিকে ভারতের বৈচিত্র্যের মধ্যে ঐক্যের উৎকৃষ্ট উদাহরণ বলে উল্লেখ করেন তিনি। তাঁর কথায়, “আধুনিক পরিকাঠামো তৈরি হয়ে গেলে এই রাজ্যগুলি পর্যটনের অন্যতম ক্ষেত্র হয়ে উঠবে।” মোদির কথায়, “যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতি হলে যে কোনও রাজ্যের আর্থিক সমৃদ্ধি অনেক বেশি সহজ হয়ে যায়।” 

[আরও পড়ুন : করোনা আবহে ‘পৌষমাস’ মুকেশ আম্বানির, বিশ্বের পঞ্চম ধনী ব্যক্তি হলেন রিলায়েন্সের কর্ণধার]

ওয়াকিবহাল মহলের ধারণা, লাদাখে ভারত-চিন টানাপোড়েনের জেরেই উত্তর-পূর্ব ভারতের পরিকাঠামো, যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নয়নে জোর দিচ্ছে কেন্দ্র সরকার। 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে