BREAKING NEWS

১৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  সোমবার ৬ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

প্রধানমন্ত্রী চোরেদের সর্দার! ‘প্রমাণ’ দিয়ে বিস্ফোরক টুইট রাহুলের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: September 24, 2018 8:10 pm|    Updated: September 24, 2018 8:10 pm

Rahul Gandhi calls Modi Commander in Thief

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রাক্তন ফ্রান্স প্রেসিডেন্ট ফ্রাঁসোয়া ওলাদেঁর যুক্তি-বোমার পর এখনও পর্যন্ত রাফালে ইস্যুতে মোদিকে সম্ভবত সবচেয়ে তীব্র আক্রমণটি শানালেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী। প্রধানমন্ত্রীকে এক্কেবারে চোরেদের সর্দার বলে বসলেন রাহুল। নিজের যুক্তির স্বপক্ষেও পেশ করলেন জোরাল প্রমাণ। কংগ্রেসের দাবি, এবারে রাহুল যে প্রমাণ পেশ করলেন তাতেই পরিষ্কার হয়ে যাচ্ছে, মোদির ইচ্ছেতেই সরকারি সংস্থার পরিবর্তে রাফালের বরাত পেয়েছিল রিলায়েন্স।

 

[আমেঠিতে রাহুলকে স্বাগত জানাতে গেরুয়া বসনধারীদের ভিড়, উঠল ‘ব্যোম ভোলে’ রব]

সোমবার একটি বিস্ফোরক টুইট করেন কংগ্রেস সভাপতি। টুইটে ” আমাদের চোরেদের সর্দারের দুঃখের কাহিনী” শীর্ষক একটি ভিডিও পোস্ট করেন কংগ্রেস সভাপতি। কংগ্রেসের দাবি, চুক্তি হওয়ার ঠিক ১৭ দিন আগে অর্থাৎ, ২৫ মার্চ ২০১৫ রাফালে প্রস্তুতকারী সংস্থা দাসাল্টের প্রধান এরিক ট্রিপেয়ার প্রকাশ্যে ঘোষণা করছেন ভারত সরকার এবং হ্যাল (HAL)-এর সঙ্গে রাফালে চুক্তির কাজ প্রায় শেষের দিকে। কিছুদিনের মধ্যেই তা সম্পন্ন হবে। কিন্তু দাসাল্ট মালিকের এই ঘোষণার ১৭ দিন বাদে (অর্থাৎ ১০ এপ্রিল ২০১৫ সাল) সরকার যে রাফালে চুক্তি করে তাতে হালের পরিবর্তে বরাত দেওয়া হয় রিলায়েন্সকে। এখানেই প্রশ্ন তোলে কংগ্রেস। কংগ্রেস নেতাদের দাবি, ইউপিএ আমলে চুক্তি হয়েছিল হ্যালের সঙ্গেই তা প্রমাণিত হয়ে গেল দাসাল্ট মালিকের কথায়। আর এই ঘোষণার মাত্র ১৭ দিনের মধ্যে চুক্তি বদল হল মোদিজির সঙ্গে ওলাদেঁর সাক্ষাতের পর। সুতরাং এতেই প্রমাণিত, মোদিজিই নিজের বন্ধুকে সুবিধা পাইয়ে দিয়েছেন। ওলাদেঁর পর দাসাল্ট মালিক ট্রিপেয়ারের মন্তব্যকে হাতিয়ার করে কংগ্রেস সুর আরও চড়ালেন কংগ্রেস। এর আগে বুলি দিয়েছিলেন “গলি গলি মে শোর হ্যায়, দেশ কা চৌকিদার চোর হ্যায়।” রাহুলের এই স্লোগানের পর টুইটারে ট্রেন্ডিং ছিল “হামারা পিএম চোর হ্যায়” হ্যাশট্যাগ। এরপর রাহুলের এই নতুন আক্রমণও ট্রেন্ডিং টুইটারে। এর আগে প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ রাহুলের পুরো পরিবারকে চোর বলেছিলেন। এদিন তারই জবাবে বোমা ফাটালেন কংগ্রেস সভাপতি, এমনটাই মত রাজনৈতিক মহলে।

[অসাধারণ ফটোগ্রাফার নরেন্দ্র মোদি, এই ছবিগুলি তারই প্রমাণ]

এদিকে রাহুল একা নয়, গোটা কংগ্রেস দলটাই আপাতত রাফালে ইস্যুতে মোদিকে চাপে ফেলার চেষ্টা করছে। সোমবার সাংসদ আনন্দ শর্মার নেতৃত্বে কংগ্রেসের একটি প্রতিনিধিদল সিভিসির সঙ্গে দেখা করেন। এবং দাবি করেন, রাফালে এই শতকের বৃহত্তম দুর্নীতি। বিজেপিও পালটা আসরে নেমেছে। বিজেপির অভিযোগ, ফ্রান্সের প্রাক্তন রাষ্ট্রপতির সঙ্গে মিলে ষড়যন্ত্র করছে কংগ্রেস। সেই সঙ্গে রবার্ট বঢরারও এর সঙ্গে যোগ থাকতে পারে দাবি করেছেন বিজেপির এক মুখপাত্র।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে