BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

একাধিক ডিগ্রিধারীর মধ্যেও চাকরি পেল বিধায়ক পুত্র!

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 6, 2018 3:41 pm|    Updated: January 6, 2018 3:41 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ১৮ জনকে নিয়োগ করা হবে রাজস্থান বিধানসভায় পিওন পদে। ঘোষণার পর সেই পদে আবেদন করলেন কিনা ১২৯ জন ইঞ্জিনিয়ার, ৩৯৩ জন স্নাতকোত্তর এবং ১ জন চার্টাড অ্যাকাউন্ট্যান্ট। সব মিলিয়ে আবেদনকারীর সংখ্যা ১২ হাজার ৪৫৩ জন। শুনতে অবাক লাগলেও এমনটাই ঘটেছে সে রাজ্যে। এখানেই শেষ নয়, ফলাফল বেরোনোর পর দেখা যায়, যে ১৮ জনকে নিয়োগ করা হচ্ছে তাঁদের মধ্যে রয়েছেন এক বিধায়ক পুত্র। অর্থাৎ যোগ্য ব্যক্তিরা থাকা সত্ত্বেও কেবলমাত্র ক্ষমতার দৌলতে সরকারি চাকরি পেলেন তিনি। আর এই ঘটনার কথা প্রকাশ্যে আসতেই চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে গোটা রাজ্য জুড়ে। বিরোধীরাও এ নিয়ে সোচ্চার হতে শুরু করেছেন।

[অনুরাগী থেকে রাজনৈতিক স্বেচ্ছাসেবক, রজনীর প্রচারে ওয়েবসাইটের নামবদল ভক্তদের]

জানা গিয়েছে, কয়েকদিন আগেই পিওনের চাকরির জন্য বিজ্ঞপ্তি জারি করে রাজস্থান সরকার। এরপরই ১২ হাজারেরও বেশি প্রার্থী আবেদনপত্র জমা দেন। তাঁদের মধ্যে থেকেই বেছে নেওয়া হয় ১৮ জনকে। এর মধ্যেই দেখা যায় নাম রয়েছে ৩০ বছর বয়সের রামকৃষ্ণ মিনার। দশম শ্রেণি পর্যন্ত পড়াশোনা করা মিনার বাবার নাম জগদীশ নারায়ন মিনা। যিনি আবার জামওয়া রামগড়ের বিধায়ক। এই ঘটনার কথা প্রকাশ্যে আসার পরই গোটা রাজ্যে অসন্তোষ দেখা দেয়। অনেকেই রাজস্থান সরকারের বিরুদ্ধে মুখ খোলেন। দাবি করেন, স্বচ্ছভাবে প্রার্থী নির্বাচন হয়নি। বাবা বিধায়ক বলেই চাকরি পেয়েছেন রামকৃষ্ণ মিনা। কংগ্রেস নেতা শচীন পাইলটের দাবি, সরকার এতটাই দুর্নীতিগ্রস্থ যে রাজ্যে বেকারত্ব বেড়েই চলেছে। উলটোদিকে, নেতা-মন্ত্রীরা নিজেদের বাড়ির লোককেই চাকরি প্রদান করে চলেছে।

[ভীমা-কোরেগাঁও সংঘর্ষের দায় নিয়ে পদত্যাগ করুন ফড়ণবিস, সরব কংগ্রেস]

যদিও বিরোধীদের এই অভিযোগ পুরোটাই উড়িয়ে দিয়েছে বিজেপি। এমনকী জগদীশ মিনা জানিয়েছেন, তাঁর ছেলে নিয়মমাফিক আবেদনপত্র জমা দিয়েছিল। আর প্রার্থী নির্বাচনেও পুরোপুরি স্বচ্ছতা বজায় রাখা হয়েছে। তাঁর মতে, যদি ক্ষমতা অপব্যবহার করতেই হত তাহলে ছেলেকে কেন পিওনের চাকরি দেবেন? আরও উঁচু পোস্টে চাকরি দিতে পারতেন। যতই অজুহাত দিন না কেন, এতজন ডিগ্রিধারীর মধ্যে বিধায়কপুত্রের চাকরি পাওয়ার খবরে অনেকেই কিন্তু প্রশ্ন তুলছেন।

[ফটোগ্রাফারের লেন্সে কৃষ্ণবর্ণ হয়ে ধরা দিলেন লক্ষ্মী-সরস্বতী]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement