BREAKING NEWS

৫ আশ্বিন  ১৪২৮  বুধবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

মুহূর্তে ধ্বংস হবে শত্রুর রণতরী, ভারতের হাতে আসছে অত্যাধুনিক Harpoon missile

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: August 3, 2021 4:16 pm|    Updated: August 3, 2021 4:17 pm

US approves sale of anti-ship Harpoon missile deal with India | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: চিন ও পাকিস্তানের উদ্বেগ বাড়িয়ে ভারতের হতে আসতে চলেছে অত্যাধুনিক হারপুন মিসাইল (Harpoon missile)। ভারতের কাছে এই জাহাজ বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্রের বিক্রিতে সবুজ সংকেত দিল আমেরিকা (America)।

[আরও পড়ুন: Afghanistan: হেলমন্দ কারাগারে ব্যর্থ তালিবানি হামলা, রক্ষীদের গুলিতে খতম ৩৮ জেহাদি]

সোমবার ভারতের কাছে হারপুন মিসাইল বিক্রির জন্য প্রয়োজনীয় ছাড়পত্র মার্কিন কংগ্রেসে পেশ করে পেন্টাগন। সহজ কথায় নয়াদিল্লি চাইলে এবার মিসাইল চুক্তি স্বাক্ষর করতে আর কোনও বাধা রইল না। বিশ্লেষকদের মতে, চিনের উত্থান ও আগ্রাসনের মুখে ভারতের হাতে এমন একটি হাতিয়ার এলে তা যুদ্ধে গেম চেঞ্জার হয়ে উঠতে পারে। মার্কিন কংগ্রেসে দেওয়া বিবৃতিতে পেন্টাগন জানিয়েছে, “একটি Harpoon Joint Common Test Set (JCTS) কেনার জন্য আবেদন জানিয়েছিল ভারত সরকার। এই প্যাকজে অস্ত্রটির সঙ্গে রক্ষণাবেক্ষণ, অতিরিক্ত যন্ত্রাংশ, প্রশিক্ষণ, ইঞ্জিনিয়ারিং ও কৌশলগত মদত থাকবে। সবমিলিয়ে একটি ইউনিটের দাম পড়বে ৮২ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। এই চুক্তির ফলে আমেরিকা-ভারত সম্পর্ক আরও মজবুত হবে এবং সেই সূত্রে প্রশান্ত মহাসাগরীয় ও দক্ষিণ চিন সাগরাঞ্চলে রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা, শান্তি ও অর্থনৈতিক প্রগতি স্থাপন করতে ভারতের মতো শক্তিশালী দেশের হাত আরও শক্ত করবে।”

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আমেরিকা সফরে দুই দেশের মধ্যে এক নতুন অধ্যায়ের সূচনা হয়। সেবার ভারতকে ‘ডিফেন্স পার্টনার’ তথা প্রতিরক্ষা সহযোগীর মর্যাদা দেয় ওয়াশিংটন। ফলে দুই দেশের মধ্যে সামরিক সম্পর্ক আরও গভীর হয়। জানা গিয়েছে, হারপুন মিসাইল তৈরি করবে বোয়িং। এবং তা পি-৮১ যুদ্ধবিমানে যুক্ত করা হবে। এই বিমানের নকশা তৈরি করা হয়েছে দূরপাল্লার সাবমেরিন যুদ্ধ, আকাশযুদ্ধ ছাড়াও নজরদারি, গোয়েন্দা ও প্রত্যাঘাতজনিত অভিযানের কথা মাথায় রেখে। ৩.৮৪ মিটার দীর্ঘ ক্ষেপণাস্ত্রটির ওজন ৫০০ পাউন্ড। এতে রয়েছে তীব্র বিস্ফোরণ ঘটাতে সক্ষম ওয়ারহেড, যা উপকূল যুদ্ধ এবং আকাশে শত্রুপক্ষের ক্ষেপণাস্ত্র ধ্বংস করতে খুবই কার্যকরী।

[আরও পড়ুন: দু’বছর পর সাধারণ নির্বাচন, প্রধানমন্ত্রী পদে নিজেকে বসিয়ে ঘোষণা Myanmar সেনাপ্রধানের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

×