১০ মাঘ  ১৪২৮  সোমবার ২৪ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

গুরুগ্রামে চলন্ত বাসে ইটবৃষ্টি কর্ণি সেনার, প্রকাশ্যে এল ভয়াবহ সিসিটিভি ফুটেজ 

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 27, 2018 4:51 am|    Updated: January 27, 2018 4:51 am

Watch CCTV visuals of protesters pelting stones on a Haryana Roadways bus in Gurugram

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘পদ্মাবত’ সিনেমার মুক্তির বিরোধিতায় অনেকটা রাম রহিমের অনুরাগীদের কায়দায় গুরুগ্রামের বিভিন্ন জায়গায় গন্ডগোল পাকায় কর্ণি সেনা নামের ভুইফোঁড় সংগঠন। সংগঠনের হাতে গোনা কয়েকজন সদস্যর তাণ্ডবের হাত থেকে রেহাই পায়নি স্কুলের শিশুরাও। সেই কর্ণি সেনার তাণ্ডবেরই এক ভয়াবহ সিসিটিভি ফুটেজ শনিবার প্রকাশ্যে আনল সংবাদ সংস্থা এএনআই।

[‘ভাল না লাগলে দেখো না’, পদ্মাবত নিয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য রূপার]

ভিডিওটি গত বুধবারের। সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যাচ্ছে, গুরুগ্রামে হরিয়ানা রোডওয়েজের একটি বাসের দিকে তেড়ে যাচ্ছে জনা দশেক কর্ণি সেনা। বাসের ভিতরে থাকা যাত্রী ও চালককে লক্ষ্য করে ব্যাপক ইট ছোড়া হয়। আতঙ্কে বাসের যাত্রীরা চিৎকার করে ওঠেন। বাসটিতে ব্যাপক ভাঙচুরও চালানো হয়। চালকের তৎপরতায় কোনওমতে বাসটির যাত্রীরা প্রাণে বাঁচেন। এই ঘটনায় এলাকায় যানজট সৃষ্টি হয়। রাজপুত সম্প্রদায়ের কয়েকজন যুবক মুখে রুমাল বেধে তাণ্ডব চালায় এলাকায়। ঘটনায় দু’জনকে আটক করে পুলিশ। পুলিশ সূত্রে খবর, ‘পদ্মাবত’-এর জন্য রবিবার পর্যন্ত গুরুগ্রামে ১৪৪ ধারা জারি থাকবে। ৪০টিরও বেশি মাল্টিপ্লেক্স ও সিনেমা হলের বাইরে থাকবে অতিরিক্ত পুলিশি নিরাপত্তা। শুধু বাসে নয়, এই সংগঠনের সদস্যরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাথর ছোড়ে।

[‘পদ্মাবত’ দেখাতে ব্যর্থ চার রাজ্যের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার মামলা]

এছাড়াও হরিয়ানা রোডওয়েজের আর একটি বাসে আগুনও ধরিয়ে দেয় প্রায় ৫০ জন কর্ণি সেনা। ওই ঘটনাটি ঘটে গুরুগ্রাম-আলওয়ার জাতীয় সড়কে। বাসটিতে আগুন ধরানোর আগে অবশ্য যাত্রীদের নেমে যেতে বলা হয়। তবে কর্ণি সেনার বিরুদ্ধে সবচেয়ে ঘৃণ্য অভিযোগটি উঠেছে একটি স্কুল বাসে পাথর ছোড়ার ঘটনাকে কেন্দ্র করে। ওই ঘটনার ভিডিও প্রকাশ্যে আসার পর ভাইরাল হয়। স্কুল বাসের ভিতরে তখন আতঙ্কে কাঁপছে শিশুরা। শিক্ষিকারা কোনওমতে তাদের আগলে রয়েছেন। এই ঘটনার তীব্র নিন্দায় মুখর হয় দেশের শিক্ষিত সমাজ।

দেখুন ভিডিও:

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে