BREAKING NEWS

১৭ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শনিবার ৪ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ভরতির নামে তোলাবাজির অভিযোগ, গ্রেপ্তার জয়পুরিয়া কলেজের প্রাক্তন জিএস

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: July 2, 2018 10:37 am|    Updated: July 2, 2018 10:37 am

Kolkata: Former GS of Jaipuria College held

প্রতীকী ছবি।

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কলেজে ভরতির নামে তোলাবাজির অভিযোগে জয়পুরিয়া কলেজের প্রাক্তন জিএস তিতান সাহাকে গ্রেপ্তার করল পুলিশ। এই তিতান কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়েরও টিএমসিপির সক্রিয় সদস্য। তাঁর বিরুদ্ধে ১৭টি অভিযোগ রয়েছে। প্রায় ১৮টি জায়গায় তল্লাশি চালানোর পর শনিবার রাতে তাঁকে গ্রেপ্তার করে লালবাজারের গোয়েন্দারা। ধৃত তিতান সাহাকে সোমবার ব্যাংকশাল কোর্টে তোলা হবে। এই নিয়ে তোলাবাজির অভিযোগে পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করল পুলিশ

[কলেজে ভরতির নামে তোলাবাজি, ছাত্র নেতাদের বৈঠকে ডাকলেন ক্ষুব্ধ মমতা]

জানা গিয়েছে, তিতান সাহা তৃণমূলের জয়া দত্ত ঘনিষ্ঠ। অন্যদিকে ব্যাপক তোলাবাজির অভিযোগ মিলেছে রাতুল ঘোষ নামে এক গ্রুপ-ডি কর্মীর বিরুদ্ধে। তিনি সুরেন্দ্রনাথ কলেজে কর্মরত। তাঁর বাড়িতেও তল্লাশি চালান লালাবাজারের গোয়েন্দারা। তবে রাতুল ঘোষকে গ্রেপ্তার করা যায়নি। উলটে তাঁর বাড়ি থেকে প্রচুর মার্কশিট ও অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ নথি উদ্ধার করা হয়েছে। এদিকে ভরতি নিয়ে তোলাবাজিতে গ্রুপ-ডি কর্মীর নাম জড়ালেও মুখ খোলেননি কলেজ কর্তৃপক্ষ।

অন্যদিকে মুখ্যমন্ত্রীর নিষেধ উপেক্ষা করেই প্রফুল্ল চন্দ্র কলেজে তোলাবাজির অভিযোগে ধৃত দু’জনকে ছেড়ে দিয়েছে পুলিশ। এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ পড়ুয়াদের একাংশ। মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ অমান্যের ঘটনায় দলের অন্দরেও ক্ষোভ তৈরি হয়েছে। একই সঙ্গে তিতান সাহাকে গ্রেপ্তারির পর জয়া দত্তকে চূড়ান্ত হুঁশিয়ারিও দেওয়া হয়েছে। সোমবারও কলেজগুলিতে ভরতি প্রক্রিয়া চলবে। তবে এবার তোলাবাজি রুখতে বিশেষ ভূমিকা নিচ্ছে পুলিশ। কলেজের বাইরে ও ভিতরে থাকবে কড়া পুলিশি প্রহরা। একই সঙ্গে লালবাজারের গুন্ডাদমন শাখার আধিকারিকরাও কলেজের ভিতরে থাকবেন। কোথাও সামান্যতম গরমিল দেখলেই তৎক্ষণাৎ পদক্ষেপ করতেই এই ব্যবস্থা, বলে জানা গিয়েছে। পড়ুয়া ও তাদের অভিভাবকদের ছাড়া কাউকেই কলেজের আশপাশে আসা চলবে না। কলেজ চত্বরে চলবে পুলিশি টহলদারি। এরপরেও যদি তোলাবাজির কোনও ঘটনা ঘটে সঙ্গেসঙ্গেই কলকাতা পুলিশের হেল্পলাইনে যোগাযোগ করতে বলা হচ্ছে।

[পার্টির রাজনৈতিক স্লোগান গ্রহণ করছে না জনগণ, স্বীকারোক্তি সূর্যকান্তর]

উল্লেখ্য, এদিন টাকা নিয়ে কলেজে ছাত্র ভরতি রুখতে ছাত্র নেতাদের ডেকে জরুরি বৈঠকে বসছেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ ছাত্র ভরতি সংক্রান্ত একাধিক অভিযোগ ওঠায় ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রী শনিবারই কড়া বার্তা দেন৷ অভিযোগ রুখতে পুলিশকে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশও দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী৷ প্রশাসনিক ভাবে কড়াকড়ি ব্যবস্থা নিশ্চিত করার পর এবার নিজের দলের ছাত্র নেতাদের ডেকে তৃণমূল ভবনে জরুরি বৈঠক বসছেন দলনেত্রী৷ এদিনের বৈঠকে সমস্ত জেলার প্রতিনিধিদের তৃণমূল ভবনে উপস্থিত থাকার নির্দেশও পাঠানো হয়েছে৷ গত সপ্তাহে তৃণমূলের কোর কমিটির বৈঠকে ওঠে কলেজে ছাত্র ভরতির সময় টাকা নেওয়ার প্রসঙ্গ৷ ওই বৈঠকেই দলের ছাত্র সংগঠনকে সাবধান করে দিয়েছিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ কিন্তু তারপরেও ছাত্র ভরতি প্রক্রিয়া শুরু হতে না হতেই টিএমসিপির বিরুদ্ধে উঠছে তোলাবাজির অভিযোগ৷ তাতেই বেজায় ক্ষুব্ধ মুখ্যমন্ত্রী৷ অভিযুক্তদের রেয়াত করা হবে না বলেও সাফ জানিয়ে দিয়েছেন তিনি৷মহারাজা শ্রীশচন্দ্র কলেজে ভরতি করিয়ে দেওয়ার বিনিময়ে মোটা টাকা চাওয়ায় গ্রেপ্তার হয় ও রীতেশ জয়সওয়াল ও লালসাহেব গুপ্ত৷ পরে জামিনও পেয়ে যায় তারা অন্যদিকে রবিবার রাতে জয়পুরিয়া কলেজের প্রাক্তন জিএস তিতান সাহাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এদিন ধৃত ছাত্র নেতাকে ব্যাংকশাল কোর্টে তোলা হবে৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে