২ কার্তিক  ১৪২৬  রবিবার ২০ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সম্পর্কে ভাঙন অথবা প্রিয়জনকে চিরতরে হারিয়ে ফেলা। এমন নানা কারণেই একটা সময় যৌন চাহিদা ফুরিয়ে যায় মহিলাদের। মিলনে লিপ্ত হতে আর ইচ্ছে করে না তখন। কিন্তু অনেক মহিলারই হয়তো জানা নেই, দীর্ঘদিনের যৌন মিলনের অভ্যাস আচমকাই বন্ধ হয়ে গেলে শরীরে নানা পরিবর্তন দেখা দিতে পারে। যাতে সমস্যাও হতে পারে নানাবিধ। জেনে রাখুন, হঠাৎ করে মিলনের অভ্যেস ছেড়ে দিলে কী কী সমস্যার সম্মুখীন হতে পারেন।

চিকিৎসকরা জানাচ্ছেন, যৌন মিলনের ইচ্ছে প্রথমবার কখন হারিয়ে ফেলেন মহিলারা, তা তাঁরা নিজেরাও মনে করতে পারেন না। তবে শারীরিক ও মানসিক দু’রকম পরিস্থিতিতেই এমনটা ঘটতে পারে। আর তাই মিলনের অভ্যেস বন্ধ হলে শরীর ও মন দুই জায়গাতেই প্রভাব ফেলে।

[অন্ধকারে থাকলে যৌন চাহিদা কমে! কী বলছেন বিশেষজ্ঞরা?]

সেক্সের ইচ্ছা: অনেক সময় যোনি শুকনো অনুভূত হলে মিলনের ইচ্ছা চলে যায়। মহিলাদের যৌন চাহিদা আচমকাই কেন শেষ হয়ে যায়, তা নিয়ে গবেষণা চললেও এখনও সঠিকভাবে কারণ ব্যাখ্যা করা যায়নি। কিন্তু সম্পর্কে ভাঙন যদি একটা কারণ হয়, তবে যোনির শুকিয়ে যাওয়াও একটি কারণ। যা মনের উপরও খারাপ প্রভাব ফেলে।

men_fall_asleep_after_sex_1345346925_460x460

পেটের রোগ: হঠাৎ মিলন বন্ধ করে দিলে আস্তে আস্তে যোনির চেহারায় পরিবর্তন ঘটে। মিলনের অভ্যেসে ইস্ট্রোজেন যোনিকে বড় করে, আর্দ্রতা বজায় থাকে। কিন্তু অভ্যেস ছাড়লে ক্রমেই তা সংকুচিত হতে থাকে। শরীরে উপস্থিত মুকাস মেমব্রেন নামের চিটচিটে পদার্থ আপনার পাচন ক্রিয়াকেও স্বাভাবিক রাখে। আর তা না থাকলে পেটের সমস্যা হতে পারে।

[সিক্স প্যাক নয়, পুরুষদের এই বিষয়গুলিই বেশি আকর্ষণ করে মহিলাদের]

পাতলা যোনি: মিলনের অনভ্যেস যোনির দেওয়ালকে ধীরে ধীরে পাতলা করে দেয়। তবে একে স্বাভাবিক অবস্থায় ফেরানো সম্ভব অরগ্যাজমের মাধ্যমে। অনেক দিন অভ্যেস না থাকলে, সময় লাগতে পারে, তবে চেষ্টা করলে পূর্ব অবস্থায় ফেরাই যায়।

চাপ বাড়ে: স্বাভাবিক যৌন সম্পর্ক পুরুষ ও মহিলা উভয়কেই মানসিকভাবে অনেকখানি চাপ মুক্ত রাখে। শরীর ও মন দুইই ভাল থাকে। কিন্তু রতিক্রিয়া বন্ধ হয়ে গেলে ধীরে ধীরে দুশ্চিন্তা ও মানসিক চাপ বাড়ে। তাই মিলন বন্ধ করে দেওয়া আগে দুবার ভাবুন।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং