১৪ চৈত্র  ১৪২৬  শনিবার ২৮ মার্চ ২০২০ 

Advertisement

পরিবেশ রক্ষার উদ্যোগ, সরস্বতী পুজোর প্রসাদের সঙ্গে দেওয়া হল চারাগাছ

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: January 29, 2020 9:08 pm|    Updated: January 30, 2020 12:14 pm

An Images

সুমিত বিশ্বাস, পুরুলিয়া: সরস্বতী পুজোর দিন বৃক্ষ রোপন করা মঙ্গলসূচক। সেই অভিনব রীতি পালন হল এবার পুরুলিয়ার এক স্কুলে। সরস্বতী পুজোর প্রসাদের সঙ্গে গাছের চারা বিলি করে নজর কাড়ল ঝালদার কলেজ। পুরুলিয়ার ঝালদা অচ্ছ্ররাম মেমোরিয়াল কলেজ বুধবার তাদের সরস্বতী পুজো শেষে প্রসাদ বিতরণের সময় দর্শনার্থীদের চারা গাছ বিলি করে সকলের মন জয় করে নিল। 

কলেজের তৃণমূল পরিচালিত ছাত্র-সংসদের এই উদ্যোগ ইতিমধ্যেই বৃক্ষরোপণের বার্তা দিয়ে প্রশংসা কুড়োল। বিশ্ব উষ্ণায়নের প্রভাবে আবহাওয়া পরিবর্তনের ফল ভুগছে এই রুক্ষ্ম প্রকৃতির জেলা। কয়েকবছর ধরেই এই জেলায় গ্রীষ্মকালে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা যেভাবে বাড়ছে তাতে হাঁসফাঁস অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে ক্রমশ। ফলস্বরূপ, বর্ষা আসতেও দেরি হচ্ছে। এমনকী, শীতকালেও বর্ষাকালের মতো বৃষ্টি হচ্ছে। সেইসঙ্গে চলছে অবাধে গাছ কাটা। তাই কলেজের এই ছাত্র সংসদ সরস্বতী পুজোর প্রসাদ বিলির মধ্য দিয়েই পরিবেশকে রক্ষা করার এই অভিনব বার্তা দেওয়ার উদ্যোগ নেয়।

[আরও পড়ুন:  প্রয়াত সুন্দরবনের উন্নয়নের কান্ডারী, শোকবার্তা পাঠালেন মমতা]

এদিন এই কলেজের পুজো দেখতে এসেছিলেন ঝালদা এক নম্বর ব্লকের খাড়জুরি এলাকার প্রাথমিক শিক্ষক বিবেক মুখোপাধ্যায়। তাঁর কথায়, “এই কাজ সত্যিই দারুন। ছাত্র সংসদের এমন কাজ দেখে সত্যিই অভিভূত হয়ে গেলাম।” ঝালদা দু’নম্বর ব্লক এলাকার আরেক প্রাথমিক শিক্ষক উষা দাসও আম গাছের চারা পেয়ে খুশি। তাঁর কথায়, “আমার খুব ইচ্ছে ছিল বাড়িতে আম গাছের চারা লাগাব। কিন্তু সময়ের অভাবে তা আনতে পারিনি। কলেজে সরস্বতী পুজো দেখতে এসে সেই আমগাছের চারা পেয়ে খুবই ভাল লাগল। আমগাছটা এবার রোপণ করতে পারব।”

তুলিনের বাসিন্দা তথা এই কলেজের ইতিহাস বিভাগের তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী মনি পোদ্দার বলেন, “আমার কলেজের ছাত্র-সংসদ এই কাজ করায় আমি ছাত্রী হিসাবে গর্বিত।” সেগুন, আম, জাম, পেয়ারা-সহ বিভিন্ন ফুল গাছের চারাও বিলি করা হয়। কলেজের ছাত্র সংসদের সাধারণ সম্পাদক নেহাল হাজরা বলেন, “যেভাবে প্রতিদিন গাছ কাটা হচ্ছে তাতে আবহাওয়া বদলে যাচ্ছে। পৃথিবী যেন ক্রমশ উষ্ণ হয়ে যাচ্ছে। তাই এই সরস্বতী পুজোয় চারা গাছ বিলি করে উষ্ণায়ণ ঠেকাতে বৃক্ষরোপণের বার্তা দেওয়া ছাত্র সংসদের তরফে একটা ক্ষুদ্র প্রয়াস।”

[আরও পড়ুন: ফের প্রথা ভেঙে সরস্বতী পুজো, শিলিগুড়ির স্কুলে পুরোহিতের আসনে একাদশ শ্রেণির ছাত্রী]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement