×

৫ ফাল্গুন  ১৪২৫  সোমবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
নিউজলেটার

৫ ফাল্গুন  ১৪২৫  সোমবার ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

BREAKING NEWS

ভারত- ২৫২ অলআউট (রায়ডু ৯০, হেনরি ৩৫/৪)
নিউজিল্যান্ড- ২১৭ অলআউট (নিশাম ৪৪, চাহাল ৪১/৩)
ভারত ৩৫ রানে জয়ী

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আগের ম্যাচের দুঃস্বপ্ন ভুলে ফের সপ্রতিভ টিম ইন্ডিয়া। পঞ্চম তথা সিরিজের শেষ একদিনের ম্যাচে জয় দিয়ে শেষ করল ভারত। নিউজিল্যান্ডকে হারাল ৩৫ রানে। ব্যাটিং বিপর্যয় সামলে বোলারদের দক্ষতায় কম স্কোরের ম্যাচ অনায়াসে বের করলেন রোহিত শর্মারা। ভারত ৪-১ সিরিজ জিতল। ব্যাট হাতে আম্বাতি রায়ডু এবং বলে চাহাল কামাল দেখালেন। বিশ্বকাপের আগে ফের একটা সিরিজ জয় ভারতীয় শিবিরকে আরও টগবগে করে দিল বলা বাহুল্য।

চতুর্থ ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের মাটিতে সবচেয়ে কম রানে অলআউট হয়েছিল কোহলি-ধোনিহীন রোহিত শর্মার দল। রবিবারের ম্যাচের আগে পর্যন্ত সেসব আর মাথায় রাখতে চাননি কেউ। বরং ওয়েলিংটনে ম্যাচ জিতে সিরিজ শেষ করার ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী ছিল টিম। আত্মবিশ্বাসের অবশ্য আরও একটা কারণ ছিল। চোট সারিয়ে এই ম্যাচে ফেরেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। হ্যামস্ট্রিংয়ে চোটের জন্য আগের দু’টো ম্যাচে খেলতে পারেননি তিনি। ধোনির টিমে ফেরা মানে যে দলের আত্মবিশ্বাস আরও বেড়ে যাওয়া, তা নতুন করে বলার কিছু নেই। বিশেষ করে কঠিন পরিস্থিতিতে ধোনির অভিজ্ঞতা বিরাট একটা ফ্যাক্টর। অস্ট্রেলিয়ায় ওয়ানডে সিরিজে তা বারবার প্রমাণ হয়েছে। এদিনও বারবার সেই কথা প্রমাণিত হল। আগে ব্যাট করে অবশ্য খুব একটা সুবিধা করতে পারেননি ভারতীয় ব্যাটসম্যানরা। একটা হতাশাজনক সিরিজ গেল রোহিত শর্মার। এদিনও তিনি ব্যর্থ। আম্বাতি রায়ডু (৯০) এদিন ব্যাট হাতে জ্বলে না উঠলে আগের ম্যাচের পুনরাবৃত্তি হতে পারত। ব্যাটিং বিপর্যয়কে কিছুটা সামাল দেন বিজয় শংকর (৪৫), কেদার যাদব (৩৪) এবং হার্দিক পাণ্ডিয়া (৪৫)। বিতর্ক ঝেড়ে ফেলে বেশ চনমনে লাগল এদিন হার্দিককে। সর্বসাকুল্যে এদিন ভারত তোলে ২৫২ রান।

[চিকিৎসার জন্য ভিক্ষা করছেন প্রাক্তন সেনা জওয়ান, পাশে দাঁড়ালেন গম্ভীর]

জবাবে ব্যাট করতে নেমে নিয়মিত ব্যবধানে উইকেট হারায় নিউজিল্যান্ড। অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন (৩৯), লাথাম (৩৭) এবং নিশাম (৪৪) কিছুটা প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু ভারতীয় বোলারদের নিষ্ফলা করতে পারেননি তাঁরা। সবচেয়ে সফল বোলার চাহাল নেন ৩ উইকেট। এই ম্যাচে জয় না পেলে বিফলে যেত রায়ডুর ঝকঝকে ইনিংস। বিশ্বকাপের আগে ব্যাটিং লাইন আপে ৪ নম্বর জায়গাটা পাকা করতে এই ইনিংস তাঁকে অনেকটাই সাহায্য করবে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। এদিন ম্যান অফ দ্য ম্যাচও নির্বাচিত হন তিনি। প্লেয়ার অফ দ্য সিরিজ হয়েছেন মহম্মদ শামি। এদিন তিনি দুটি উইকেট নেন।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং