BREAKING NEWS

৯ মাঘ  ১৪২৮  রবিবার ২৩ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

মরিয়া লড়াই অ্যান্ডারসনদের, অ্যাশেজে হার বাঁচাল ইংল্যান্ড, হোয়াইটওয়াশের স্বপ্নভঙ্গ অজিদের

Published by: Krishanu Mazumder |    Posted: January 9, 2022 4:21 pm|    Updated: January 9, 2022 5:18 pm

James Anderson and Stuart Broad fought valiantly in Ashes fourth test and drew the match| Sangbad Pratidin

অস্ট্রেলিয়া: ৪১৬/৮ ডিক্লেয়ার্ড (খওয়াজা ১৩৭) ২৬৫/৬ ডিক্লেয়ার্ড (খওয়াজা ১০১ অপরাজিত)
ইংল্যান্ড: ২৯৪ (বেয়ারস্টো ১১৩) ও ২৭০/৯ (ক্রলি ৭৭, স্টোকস ৬০)
ম্যাচ ড্র। 

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: উত্তেজনার অ্যাশেজ (The Ashes)। এ ছাড়া আর কী বলা যেতে পারে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার চতুর্থ টেস্টকে ! আর একটা বল খেলে দিতে পারলেই ইংল্যান্ড ড্র করে ফেলবে সিডনিতে। জেমস অ্যান্ডারসন কি পারবেন? তাঁর সতীর্থ বেন স্টোকস পর্যন্ত টেনশনে মুখ ঢেকে ফেলেন। একই অবস্থা ছিল ইংল্যান্ড সমর্থকদেরও। এরকম উত্তেজনার ম্যাচ শেষপর্যন্ত ড্রই রাখল ইংল্যান্ড। আর তার ফলে ইংল্যান্ডকে হোয়াইওয়াশ করার স্বপ্নভঙ্গ হল অস্ট্রেলিয়ার।সিডনিতে ইংল্যান্ড টেল এন্ডারদের এই মরিয়া লড়াই মনে থেকে যাবে ক্রিকেটপ্রেমীদের। 

চতুর্থ টেস্টের শেষ দিনে এমন টেনশন ছিল গোড়া থেকেই। ইংল্যান্ডের (England) ইনিংসে ৯১.২ ওভারে জনি বেয়ারস্টো আউট হওয়ার পর থেকেই রক্তের গতি বেড়ে যাওয়ার মতো পরিস্থিতি তৈরি হয়। পঞ্চম দিনের খেলা শেষ হতে তখনও ১০ ওভার বাকি। ইংল্যান্ডের হাতে মাত্র ২ উইকেট। মরিয়া লড়াই করছিলেন জ্যাক লিচ ও স্টুয়ার্ট ব্রড। অস্ট্রেলিয়ার (Australia) বোলারদের বিরুদ্ধে লড়ে তাঁরা দু’ জন ম্যাচ নিয়ে যান ১০০ তম ওভারে।

[আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্ত হওয়ার পরও একাধিক অনুষ্ঠানে যোগ, নয়া বিতর্কে জকোভিচ]

লিচকে (২৬) ফিরিয়ে দিয়ে ইংল্যান্ডের উপরে আরও চাপ বাড়ান স্মিথ। সবার চোখ তখন ব্রড আর অ্যান্ডারসনের দিকে। শেষের আগের ওভার করেন অস্ট্রেলিয়ার লিয়ঁ। সেই ওভার খেলে দেন ব্রড (৮*)। স্মিথের পরের ওভারটাও সামলে দেন অ্যান্ডারসন (0*)। এই দুই ব্যাটসম্যানের জন্যই টেস্টটা ড্র করল ইংল্যান্ড। সিডনির এই ড্র ইংল্যান্ডের কাছে জয়েরই শামিল। অন্তত ইংল্যান্ড সমর্থকদের কাছে তো বটেই।  

গত দিনের বিনা উইকেটে ৩০ রান নিয়ে এদিন খেলতে নেমে শুরুতেই হাসিব হামিদকে (৯) দলীয় ৪৬ রানে হারায় ইংল্যান্ড। দলের রান যখন ৭৪ তখন আউট হন ডেভিড ম্যালান (৪)। জ্যাক ক্রলি (৭৭) ফেরেন দলের ৯৬ রানে। রুট ও স্টোকস চতুর্থ উইকেটে ৬০ রান জোড়েন। ২৪ রানে আউট হন রুট। চা বিরতিতে ইংল্যান্ডের রান ছিল ৪ উইকেটে ১৭৪। এরপর লিয়ঁ ফেরান স্টোকসকে (৬০)। একে একে ফিরে যান বাটলার (১১), মার্ক উড (০) ও বেয়ারস্টো (৪১)। চাপে পড়ে যায় ইংল্যান্ড। সমর্থকদেরও রক্তের গতি বাড়ে। শেষ বল পর্যন্ত ছিল সেই উত্তেজনা। সমর্থকদের স্বস্তি এনে দেন অ্যান্ডারসন ও ব্রড। হোবার্টে পঞ্চম টেস্ট শুরু ১৪ তারিখ। অস্ট্রেলিয়া সিরিজে এগিয়ে ৩-০-এ। 

[আরও পড়ুন: বিজেপি নেতাদের ‘বিদ্রোহ’ অব্যাহত! এবার যুব মোর্চার হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ ছাড়লেন শঙ্কুদেব পাণ্ডা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে