১ মাঘ  ১৪২৫  বুধবার ১৬ জানুয়ারি ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফিরে দেখা ২০১৮ ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সোম রায়: একের পর এক খারাপ পারফরম্যান্সের জের। পদত্যাগ করলেন মোহনবাগান কোচ শংকরলাল চক্রবর্তী। সূত্রের খবর, ঘরের মাঠে রিয়েল কাশ্মীরের বিরুদ্ধে হারের পরই কর্মকর্তাদের জানিয়ে দিয়েছেন তিনি আর মোহনবাগানের দায়িত্বে থাকতে চাইছেন না। তাঁকে অব্যাহতি দেওয়া হোক। দলকে সাফল্য এনে দিতে না পারার ফলেই এই সিদ্ধান্ত বলে জানিয়েছেন মোহনবাগান কোচ। ক্লাবের তরফেও এ খবর স্বীকার করে নিয়েছেন সহ-সচিব সৃঞ্জয় বোস। তিনি বলেন, “ম্যাচের পর উনি নিজেই ফোন করে পদত্যাগের কথা জানান। এই মুহূর্তে দেশের বাইরে অর্থ সচিব দেবাশিস দত্ত। অর্থ সচিব, সচিবের সঙ্গে আলোচনা করেই পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।”

[ঘরের মাঠে ফের হার, লিগের দৌড় থেকে হারিয়ে যাচ্ছে মোহনবাগান]

রবিবার রিয়েল কাশ্মীরের বিরুদ্ধে হারের পর ১১ ম্যাচে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের ষষ্ঠ স্থানে নেমে এসেছে মোহনবাগান। আই লিগ জয়ের সম্ভাবনা কার্যত শেষ। ঘরের মাঠে এ বছর একটিমাত্র ম্যাচে জয় পেয়েছে সবুজ মেরুন শিবির। সব মিলিয়ে গোটা দলই খারাপ পারফর্ম করছে। এই ব্যর্থতার জন্য সমর্থকদের অনেকেই দায়ী করছিলেন কোচের স্ট্র্যাটেজিকে। সোশ্যাল মিডিয়াই ইতিমধ্যেই শংকরলালকে সরানোর দাবি উঠতে শুরু করেছে। এরই মধ্যে পদত্যাগ করছেন ৮ মরশুম পরে মোহনবাগানকে কলকাতা লিগ জেতানো কোচ। গত মরশুমে আই লিগের মাঝপথে স্থায়ী কোচ হিসেবে দায়িত্ব নেন শংকর। দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকে দলকে একাধিক সাফল্য এনে দিয়েছেন। গত মরশুমে আই লিগেও ভাল শেষ করে মোহনবাগান। এবছর আট মরশুম পরে শংকরের কোচিংয়েই কলকাতা লিগে শাপমোচন হয় সবুজ মেরুনের। তাঁর সাফল্যের পুরস্কার স্বরূপই আই লিগে দায়িত্ব দেওয়া হয়। কিন্তু এবারের আই লিগে সেভাবে দলকে মেলে ধরতে পারেননি মোহনবাগান কোচ।

[এশিয়া কাপের প্রথম ম্যাচ, ৩২ বছর পর থাইল্যান্ডকে হারাতে মরিয়া সুনীলরা]

শংকরলাল পদত্যাগ করতে চাইলেও কর্তারা এখনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাননি। শংকরকে যদি এখনই সরিয়ে দেওয়া হয় সেক্ষেত্রে সমস্যায় পড়তে হবে গোটা দলকে। আগামী ৬ দিনের মধ্যে আরও ২টি ম্যাচ খেলতে হবে সবুজ মেরুন শিবিরকে। ২৭ তারিখ ফিরতি লেগের ডার্বি। তাই এই পরিস্থিতিতে এত তাড়াতাড়ি নতুন কোচ আনাটা ঝুঁকিপূর্ণ।তবে, মোহনবাগান সহ-সচিব সৃঞ্জয় বোসের কথাতে ইঙ্গিত মিলেছে তাঁর পদত্যাগপত্র গৃহীত হবে এবং আগামী ২-৩ দিনের মধ্যেই আলোচনা করেই নতুন কোচের নাম জানানো হবে।

 

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং