১১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

৭২ ঘণ্টা পার, সিলেটে এখনও জঙ্গিমুক্ত হল না আতিয়া মহল

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: March 26, 2017 3:00 pm|    Updated: December 27, 2019 3:00 pm

72 Hours gone, Terrorist still fighting with Army in Sylhet

সুকুমার সরকার, ঢাকা: সিলেটের দক্ষিণ সুরমার জঙ্গি ডেরায় অন্তত দুই জঙ্গি মারা পড়েছে বলে সেনাবাহিনী জানিয়েছে। তবে ভেতরে আরও জঙ্গি থাকায় অভিযান অব্যাহত। শিববাড়ীর পাঠানপাড়ার আতিয়া মহল ঘিরে অভিযানের তৃতীয় দিন রবিবার বিকেলে সর্বশেষ পরিস্থিতি জানান সেনাবাহিনীর কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ফখরুল আহসান। ভেতরে অবস্থানরত জঙ্গিরা বেশ কৌশলী জানিয়ে তিনি বলেছেন, অভিযানে ‘ভাল’ ঝুঁকি রয়েছে। ফলে বলা যাচ্ছে না, কখন তা শেষ হবে। গত বৃহস্পতিবার গভীর রাতে একই ব্যক্তির মালিকানাধীন এই পাঁচ তলা ও চার তলা বাড়ি দুটি জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে ঘিরে ফেলে পুলিশ।

[সিলেটে এখনও চলছে ‘অপারেশন টোয়াইলাইট’, নিহত দুই পুলিশকর্মী-সহ ৬]

রবিবার সকাল থেকে কয়েক দফা গুলিযুদ্ধ ও বিস্ফোরণের শব্দ পাওয়ার পর বিকেলে সাংবাদিকদের সামনে আসেন সেনা সদর দপ্তরের ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ফখরুল। তিনি বলেন, “দুজন নিহত হয়েছে বলে আমরা নিশ্চিত। একজনের দেহে সুইসাইড ভেস্ট লাগানো, দুজনকে দৌড়নো অবস্থায় দেখে আমাদের কমান্ডোরা ফায়ার করেছে। তারা পড়ে যাওয়ার পর একজন সুইসাইড ভেস্ট বিস্ফোরণ ঘটায়। নিহত দুজন। ভিতরে একজন মহিলা জঙ্গি রয়েছে বলে আগে জানানো হয়। বাড়িটি জঙ্গিরা ভাড়া নিয়েছিল। কওসর আলি ও মর্জিনা বেগম নামে এক দম্পতি তিন মাস আগে ওঠেন বলে জানান বাড়ির মালিক উস্তার আলি। ভিতরে থাকা জঙ্গিরা অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত এবং বেশ দক্ষ বলে মনে করছে সেনাবাহিনী। ব্রিগেডিয়ার ফখরুল বলেন, তাদের কাছে স্মল আর্মস আছে, এক্সপ্লোসিভ আছে, আইইডি আছে, তারা ওয়েল ইকুইপড। আমরা যে গ্রেনেড ছুড়েছি, তারা সেগুলি ধরে উল্টা আবার আমাদের দিকে নিক্ষেপ করেছে। টিয়ার শেল ছুড়লে যে আগুন জ্বালাতে হয়, তারা এসব টেকনিক জানে।”

ভিতরে বড়মাপের জঙ্গি থাকার কথা জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালও। নানা স্থানে বিস্ফোরক স্থাপন করে জঙ্গিরা বাড়ি দুটিতে অভিযান চালানো কঠিন করে তুলেছে বলে জানান ব্রিগেডিয়ার ফখরুল।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে