BREAKING NEWS

২৭ আষাঢ়  ১৪২৭  রবিবার ১২ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

গভীর রাতে এলাকায় মদ্যপের দাপাদাপি, প্রতিবাদ করায় খুন ব্যবসায়ী

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: June 19, 2020 4:06 pm|    Updated: June 19, 2020 4:14 pm

An Images

ছবিটি প্রতীকী

সুরজিৎ দেব, ডায়মন্ড হারবার: গভীর রাতে মদ্যপ অবস্থায় এলাকায় দাপিয়ে বেড়াচ্ছিল এক যুবক। তাকে শান্ত করে ঘরে পাঠানোর চেষ্টা করেছিলেন এলাকারই বাসিন্দা এক ব্যবসায়ী। কিন্তু সেটাই কাল হল। মদ্যপ যুবকের হাতে প্রাণ গেল ওই ব্যক্তির। বৃহ্স্পতিবার গভীর রাতে ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার বিষ্ণুপুর (Bishnupur) থানার ঝাঁজরা মণ্ডলপাড়ায়। ইতিমধ্যেই অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

জানা গিয়েছে, বৃহ্স্পতিবার রাতে কাজ থেকে ফিরে বাড়ির সিঁড়িতে বসে বিশ্রাম নিচ্ছিলেন মুদি দোকানের মালিক বছর ৪২-এর সুদীপ মণ্ডল। সেই সময় মান্তু মণ্ডল নামে এলাকারই এক যুবক মদ্যপ অবস্থায় পাড়ায় ঢুকে চিৎকার চেঁচামেচি শুরু করে। বিষয়টি সুদীপবাবুর নজরে পড়তেই তিনি মান্তুকে চুপ করতে বলেন। বুঝিয়ে শুনিয়ে বাড়ি পাঠানোর চেষ্টাও করেন। আর এতেই খেপে যায় ওই মদ্যপ যুবক। তেড়ে যায় ওই ব্যবসায়ীর দিকে। আচমকাই বাঁশ দিয়ে সুদীপবাবুর মাথায় আঘাত করে সে। সঙ্গে সঙ্গে রক্তাক্ত অবস্থায় মাটিতে লুটিয়ে পড়েন তিনি। তাঁর চিৎকার শুনে পরিবারের সদস্যরা ঘর থেকে বেড়িয়ে ধরে ফেলে অভিযুক্ত মান্তুকে। বেধড়ক মারধরের পর তাকে তুলে দেওয়া হয় পুলিশের হাতে।

s24-1

[আরও পড়ুন: জমি বিতর্কে বিশ্বভারতী, উপাচার্যের বাংলো-সহ একাধিক প্লটের রেকর্ড নিয়ে প্রশ্ন]

পুলিশের উপস্থিতিতে রাতেই আশঙ্কাজনক অবস্থায় সুদীপবাবুকে নিয়ে যাওয়া হয় আমতলা গ্রামীণ হাসপাতালে।সেখানেই মৃত্যু হয় তাঁর। প্রতিবেশীদের কথায়, অভিযুক্ত যুবক প্রায়ই মদ খেয়ে এলাকায় ঝামেলা করত। প্রতিবেশীরা প্রতিবাদ করলে তাঁদের নানারকমভাবে হুমকি দিত সে। আগেও এলাকার একাধিক ব্যক্তিকে মারধরও করেছে মান্তু। তবে এতদিন বিষয়টিকে খুব একটা গুরুত্ব না দিলেও বৃহ্স্পতিবারের ঘটনার পর অভিযুক্তের কঠোর শাস্তির দাবি জানিয়েছেন স্থানীয়রা। পুলিশ সূত্রে খবর, শুক্রবার বিষ্ণুপুর থানার পুলিশ আলাদতে পাঠিয়েছে ধৃতকে। ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়েছে ব্যবসায়ীর দেহ। 

[আরও পড়ুন: ‘পুলিশের মদতেই হামলা তৃণমূলের’, দাঁতনে দলীয় কর্মীর মৃত্যুতে বিস্ফোরক অভিযোগ বিজেপির]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement