BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

লোকসভা নির্বাচনে পথ দেখাবে উন্নয়ন, অনুব্রতর মন্তব্যে চাঙ্গা তৃণমূল

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: July 9, 2018 11:57 am|    Updated: April 22, 2019 6:01 pm

An Images

নন্দন দত্ত, সিউড়ি: ‘পঞ্চায়েত নির্বাচনে উন্নয়ন রাস্তায় দাঁড়িয়ে ছিল৷ এবারের লোকসভা নির্বাচনে সেই উন্নয়নই হাত ধরে নিয়ে গিয়ে পথ দেখাবে৷’- লোকসভা নির্বাচনের আগেই দলীয় কর্মীদের চাঙ্গা করতে এমনই মন্তব্য করেন তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল৷ এই মন্তব্যের পর বিজেপি ও সংঘ পরিবারকেও আক্রমণ করেন তিনি৷ বিজেপি গ্রামে গ্রামে যে বিস্তারক পাঠানোর পরিকল্পনা নিয়েছে সেখানে তাঁদের সঙ্গে কী ধরনের ব্যবহার করতে হবে তাও ইঙ্গিতে বুঝিয়ে দেন অনুব্রত৷

[ব্যান্ডেল স্টেশনে বসে হস্তমৈথুন, ফেসবুক লাইভে বিকৃতকামীকে চেনালেন তরুণী]

শেষ আষাঢ়ে রাজ্যে প্রথম লোকসভা প্রচারের ঘণ্টা বাজালেন বীরভূমের অনুব্রত৷  রবিবার রামপুরহাট পাঁচমাথা মোড়ে লোকসভা ভোটের প্রস্তুতিসভার আয়োজন করে তৃণমূল। মহকুমার আটটি ব্লক থেকে কর্মী সমর্থকেরা জমায়েত হয় পাঁচমাথা মোড়ে। রামপুরহাট হাইস্কুল মাঠ থেকে মিছিলের নেতৃত্ব দেন কৃষিমন্ত্রী আশিস বন্দ্যোপাধ্যায়৷ ভাঁড়শালা মোড়ে ছিলেন মৎস্যমন্ত্রী চন্দ্রনাথ সিনহা৷ মূল মিছিলটি হয় রামপুরহাট মহাজনপট্টি মোড় থেকে। ওই মিছিলের নেতৃত্ব দেন জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল, সহ-সভাপতি অভিজিত রানা সিংহ৷ সভায় অনুব্রত সরাসরি আরএসএসকে আক্রমণ করেন৷ বলেন, “আরএসএস প্রতিটি বিধানসভা এলাকায় দু’জন করে লোক রেখেছে৷ তাঁরা বাড়ি বাড়ি যাবে। তৃণমূলের সম্পর্কে বাজে বাজে কথা বলবে। আমরা কিন্তু তাঁদের মানব না। আপনাদের বাড়িতে গেলে তাঁদের হাত ধরে উন্নয়ন দেখিয়ে দেবেন। না হলে আমাদের দলীয় অফিসে জানাবেন৷”

[সোশ্যাল মিডিয়ায় বিকৃত ছবি ভাইরাল করল যুবক, আত্মহত্যার চেষ্টা নাবালিকার]

পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে জয়ঢাকের কাঠি দেখিয়ে জেলাজুড়ে ভাল করে ‘ঢাক’ বাজাবার নির্দেশ দিয়েছিলেন তিনি৷ পঞ্চায়েত নির্বাচনে সেই জয়ঢাকের আওয়াজ বিরোধীরা বুঝেছে। বিরোধীদের দাবি অনুব্রত লোকসভা নির্বাচনের বহু আগে থেকেই এভাবে গ্রামে গ্রামে তার দলের সমর্থকদের উসকে দিলেন। অনুব্রত দাবি করেন, “আগামী লোকসভা নির্বাচনে দুটি লোকসভা আসনেই আমরা জিতব। বীরভূম এবং বোলপুর লোকসভা নির্বাচনে আমরা দেড় থেকে আড়াই লক্ষ ভোটে জিতব৷” অনুব্রতর দাবি, ‘‘জেলায় উন্নয়ন বাকি নেই। বাকি থাকলে লোকসভা নির্বাচনের পর করে দেব৷” সাংবাদিক সম্মেলনে বলেন, “পঞ্চায়েত নির্বাচনে উন্নয়ন দাঁড়িয়ে ছিল। এবার লোকসভা নির্বাচনে উন্নয়নই হাত ধরে নিয়ে গিয়ে পথ দেখাবে৷’’

[কথা রাখেনি প্রশাসন, চাঁদা তুলে ১৫ লক্ষ টাকা ব্যয়ে সেতু নির্মাণ স্থানীয়দের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement