BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

ফের বিড়ম্বনায় বিজেপি, প্রেমিকার অভিযোগে গ্রেপ্তার আনিসুর রহমান

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 8, 2018 6:13 am|    Updated: January 8, 2018 7:26 am

An Images

সম্যক খান, মেদিনীপুর: নোয়পাড়ায় মঞ্জু বসুর নাম ঘোষণা নিয়ে কম বিড়ম্বনায় পড়তে হয়নি। এবার বিজেপির অস্বস্তি বাড়ালেন আনিসুর রহমান। প্রেমিকার অভিযোগে সদ্য গেরুয়া শিবিরে যোগ দেওয়া এই নেতাকে গ্রেপ্তার করল পুলিশ। দলীয় নেতা বেকায়দায় পড়লেও তাঁর পাশে দাঁড়ায়নি বিজেপি।

ANISUR-BJP-ARREST

[‘তৃণমূলের সঙ্গেই আছি’, বিজেপির প্রার্থী হচ্ছেন না জানিয়ে দিলেন মঞ্জু]

আনিসুরের প্রাক্তন প্রেমিকা বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয় এমফিল করেন। মেদিনীপুর শহরের এক মেসে থাকেন ওই তরুণী। কিছু দিন ধরে আনিসুরের সঙ্গে সম্পর্ক চললেও পরে তা কেটে যায়। আবার দুজনের কথাবার্তা নতুন করে শুরু হলেও ফের সম্পর্ক তলানিতে ঠেকে। গত রবিবার ভোরে ওই তরুণী কয়েকটি ঘুমের ওষুধ খায়। তাঁর বান্ধবীরা স্থানীয় এক ডাক্তারের কাছে নিয়ে যান। চিকিৎসক তাঁকে একটি নার্সিংহোমে ভরতির সুপারিশ করেন। প্রেমিকার অসুস্থতার খবর কোনওভাবে আনিসুর পেয়ে যান। রবিবার রাতে তিনি যান মেদিনীপুরে। অভিযোগ মেয়েটিকে জোর করে নার্সিংহোম থেকে ছাড়ানোর চেষ্টা করেন ওই বিজেপি নেতা। জোরাজুরির সময় ওই তরুণী কোতোয়ালি থানায় ফোন করেন। এরপর আনিসুরকে নার্সিংহোমে আটকে রাখা হয়। পুলিশ মেয়েটির সঙ্গে কথা বলে। এই খবর পেয়ে স্থানীয় তৃণমূল নেতা স্নেহাশিস ভৌমিকের নেতৃত্বে কয়েকজন নার্সিংহোমে যায়। আনিসুরকে গ্রেপ্তারের দাবি জানাতে থাকে। জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শচীন মক্কর ঘটনাস্থলে যান। রাত দুটোর সময় আনিসুরকে থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। গভীর রাতে তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়। সোমবার ওই বিজেপি নেতাকে মেদিনীপুর জেলা আদালতে পেশ করা হবে।

[শ্যামপুরের পর কোচবিহার, এবার জুয়াড়িদের হাতে আক্রান্ত ৫ পুলিশকর্মী]

পুলিশ জানিয়েছে ওই তরুণীর অভিযোগের ভিত্তিতে আনিসুরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। জানা গিয়েছে আনিসুরের স্ত্রী, সন্তান রয়েছে। তারপরও ওই ছাত্রীর সঙ্গে তিনি সম্পর্ক রেখে চলছিলেন। ২৪ বছরের ওই যুবতীর বাড়ি তমলুকে। আনিসুরে বিতর্ক জড়ানোয় তাঁর থেকে দূরত্ব রাখার ইঙ্গিত দিয়েছে গেরুয়া শিবির। দলের দাপুটে নেতা বেকায়দায় পড়ার পরও পশ্চিম মেদিনীপুর বিজেপি জেলা সভাপতি সমিত দাস জানান, এই ব্যাপারে তিনি কিছুই জানেন না। মাস খানেক আগে তৃণমূল ছেড়ে আনিসুর বিজেপিতে যোগ দেন। তিনি পাঁশকুড়া পুরসভায় দলের নির্দেশ অমান্য করে চেয়ারম্যান পদে ছিলেন। এর জন্য আনিসুরকে বহিষ্কার করেছিল তৃণমূল।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement