২ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

মুর্শিদাবাদে ভয়াবহ পথ দুর্ঘটনা, নদীতে তলিয়ে গেল যাত্রীবাহী বাস

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 29, 2018 3:09 am|    Updated: January 29, 2018 6:24 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সাতসকালে মুর্শিদাবাদে ভয়াবহ দুর্ঘটনা। ইসলামপুরের বালিরঘাটে ব্রিজের পাঁচিল ভেঙে বিলের জলে তলিয়ে গেল একটি যাত্রীবাহী বাস। প্রত্যক্ষদর্শীদের দাবি, কয়েকজন যাত্রী সাঁতরে পারে উঠতে পারলেও, অধিকাংশ যাত্রী নদীতে তলিয়ে গিয়েছেন। যুদ্ধকালীন তৎপরতায় শুরু চলছে উদ্ধারকাজ। ঘটনাস্থলে রয়েছেন মহকুমাশাসক, বিডিও-সহ প্রশাসনের পদস্থ আধিকারিকরা। তবে এখনও পর্যন্ত দুর্ঘটনাগ্রস্থ বাসটির কোনও খোঁজ মেলেনি। অসমর্থিত সূত্রে খবর, ইতিমধ্যেই একজনের মৃতদেহ উদ্ধার করা গিয়েছে। অসমর্থিত সূত্রে তিনজনের দেহ উদ্ধারের খবর মিলেছে।

[শিয়ালের কামড়ে জখম অন্তত ১৫, আতঙ্কে ঘুম উড়েছে বৈষ্ণবনগরে]

শীতের দাপট কিছুটা কমেছে ঠিকই। তবে সকালে ঘন কুয়াশায় দৃশ্যমানতা বেশ কম থাকে। সেকারণে সম্ভবত বালিরঘাটে ব্রিজে  ওই যাত্রীবাহী বাসটি দুর্ঘটনা কবলে পড়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। বাসের এক যাত্রীর আবার দাবি, চালক নাকি মোবাইলে ব্যস্ত ছিলেন। তাই বালিরঘাট ব্রিজে বাসের নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন তিনি। রেলিং ভেঙে বিলের জলে পড়ে যায়  বাসটি। এখন যুদ্ধকালীন তৎপরতায় উদ্ধার কাজে নেমেছেন পুলিশ ও প্রশাসনের আধিকারিকরা। উদ্ধারকাজে হাত লাগিয়েছেন স্থানীয় বাসিন্দারাও। তবে এখনও পর্যন্ত দুর্ঘটনাগ্রস্ত বাসটির হদিশ মেলেনি। কয়েকজন যাত্রী সাঁতরে পারে উঠতে পারলেও, অধিকাংশ যাত্রীই নদী গর্ভে তলিয়ে গিয়েছেন বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। অসমর্থিত সূত্রে খবর, এখনও পর্যন্ত একজনের মৃতদেহ উদ্ধার করা গিয়েছে।

[গৌড়বঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজাল্টে গরমিল, পড়ুয়াদের ‘গ্রেস নম্বর’ দেওয়ার অভিযোগ]

প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে, বালিরঘাট ব্রিজে যে বাসটি দুর্ঘটনা কবলে পড়েছে, সেটি  নদিয়ার শিকারপুর-মালদা রুটের একটি সরকারি বাস। সোমবার সকালে মালদা যাওয়ার পথে, মুর্শিদাবাদের দৌলতাবাদে  বালিরঘাট ব্রিজে আমচকাই নিয়ন্ত্রণ হারান চালক। প্রথমে ব্রিজের পাঁচিলে ধাক্কা মারে বাসটি। এরপরই পাঁচিল ভেঙে বাসটি পড়ে যায় কোরবা বিলে। চোখের নিমেষে যাত্রী-সহ বাসটি পুরোপুরি তলিয়ে যায়। বাসে  ৫০ জনের মতো যাত্রী ছিলেন বলে মনে করা হচ্ছে।

দেখুন ভিডিও:

[পুলিশ এসে বিয়ে আটকাল নাবালিকার, তবু বউভাতের ভোজ খেল গোটা গ্রাম]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement