BREAKING NEWS

১৯ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২ জুন ২০২০ 

Advertisement

ফের উত্তরপ্রদেশে দুর্ঘটনার কবলে পরিযায়ীদের বাস, জখম পুরুলিয়ায় ২২ শ্রমিক

Published by: Paramita Paul |    Posted: May 23, 2020 9:48 pm|    Updated: May 23, 2020 9:48 pm

An Images

ছবি: প্রতীকী

সুমিত বিশ্বাস, পুরুলিয়া: ফের উত্তরপ্রদেশে দুর্ঘটনার কবলে পড়লেন পুরুলিয়ার পরিযায়ী শ্রমিকরা। জখম হয়েছেন ২২ জন। শুক্রবার রাতে উত্তরপ্রদেশের কানপুর–এলাহাবাদ হাইওয়েতে একটি পরিযায়ী শ্রমিক বোঝাই বাস যন্ত্রাংশ ভেঙে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে উলটে যায়। এই ঘটনায় মোট ৩০ জন শ্রমিক জখম হন। তাদের মধ্যে ২২ জনই পুরুলিয়ার। বাকিরা ঝাড়খন্ডের বোকারো জেলার বাসিন্দা। এদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তার মধ্যে দু’জন পুরুলিয়ার বাসিন্দা। অপরজন ঝাড়খন্ডের বাসিন্দা।

দুর্ঘটনার পরই উত্তরপ্রদেশ পুলিশ তড়িঘড়ি জখমদের ওই এলাকার সমাদয় মেডিক্যাল হাসপাতালে ভরতি করে। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসার পর শনিবার পুরুলিয়ার জখম শ্রমিকরা একটি অ্যাম্বুলেন্স-সহ পুনরায় একটি বাস ভাড়া করে জেলায় আসার জন্য রওনা দিয়েছেন। পুরুলিয়া জেলা পরিষদের সভাধিপতি সুজয় বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “ওই জখম শ্রমিকরা রবিবার সকালেই পুরুলিয়া পৌঁছবেন। তাদেরকে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করে দেবেন মাহাতো গভর্নমেন্ট মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে ভরতি করা হবে। আসার পথে ওই শ্রমিকদের যাতে কোনও সমস্যা না হয়ে সেটা দেখা হচ্ছে।”

[আরও পড়ুন : হুগলিতে পানীয় জল ও বিদ্যুতের দাবিতে বিক্ষোভ, ত্রাণ নিয়ে ক্ষোভ লকেটের]

বাংলা-ঝাড়খন্ডের এই শ্রমিকরা রাজস্থানের আজমেঢ়ে পাথর কাটার কারখানায় কাজ করতেন। লকডাউনে আটকে পড়ে ভোগান্তির শিকার হন। সেখানে সেভাবে খাবার না মেলায় তারা সমস্যায় পড়ে যান। ফলে রাজ্যে আসার অনুমতি মিলতেই ওই এলাকার একটি বাস ভাড়া করে তারা ঘরে ফিরছিলেন। আজমেঢ় থেকে তারা শুক্রবার ভোর রাতে রওনা হন। এক এক জন শ্রমিক পাঁচ হাজার টাকা করে বাস ভাড়া দেন। পুরুলিয়া জেলা পরিষদ সূত্রে জানা গিয়েছে, পুরুলিয়ার জখম ২২ জনের মধ্যে জয়পুরের ২১ জন ও কোটশিলার একজন রয়েছেন। যে তিনজনের আঘাত গুরুতর তার মধ্যে দু’জনই জয়পুরের। জেলা পরিষদ ও তৃণমূলের তরফে তাদের পরিবারকে এই দুর্ঘটনার কথা জানিয়ে পাশে থাকার আশ্বাস দেওয়া হয়েছে।

[আরও পড়ুন : চিন্তা বাড়াচ্ছে পরিযায়ী শ্রমিকরা, গত ২৪ ঘণ্টায় হুগলিতে সর্বাধিক আক্রান্তের হদিশ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement