BREAKING NEWS

১৫ ফাল্গুন  ১৪২৭  রবিবার ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

গরু পাচার কাণ্ডে বিনয় মিশ্রের ঘনিষ্ঠ ব্যবসায়ীর বাড়িতে CBI হানা, দীর্ঘক্ষণ চলল তল্লাশি

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: January 27, 2021 6:30 pm|    Updated: January 27, 2021 6:33 pm

An Images

জ্যোতি চক্রবর্তী, বসিরহাট: গরু পাচার কাণ্ডে (Cattle smuggling) অন্যতম মূল অভিযুক্ত বিনয় মিশ্রের (Vinay Mishra)ঘনিষ্ঠ ব্যবসায়ী বারিক বিশ্বাসের বাড়িতে বুধবার তল্লাশি চালাল সিবিআই (CBI)। এদিন সকালে সিবিআইয়ের একটি বিশেষ দল বসিরহাটে বারিক বিশ্বাসের বাড়িতে হানা দেয়। চলে চিরুণি তল্লাশি। এলাকায় ইমপোর্ট-এক্সপোর্ট ব্যবসার সঙ্গে জড়িত আবদুল বারিক বিশ্বাস। কিন্তু তার আড়ালেই তাঁর অবৈধ ব্যবসা রয়েছে, গোপন সূত্রে সেই খবর পান সিবিআই কর্তারা। জানা যায়, এক বিশেষ রাজনৈতিক দলের নেতা, কর্মীদের অবাধ যাতায়াত ছিল তাঁর বাড়িতে। এসব খবরের ভিত্তিতেই বুধবার তল্লাশি চালায় সিবিআই।

সূত্রের খবর, বসিরহাটের সংগ্রামপুরে বাড়ি ব্যবসায়ী বারিক বিশ্বাসের। ২০০৬ সাল থেকে বিশ্বাস পরিবারের সঙ্গে রাজনৈতিক ঘনিষ্ঠতা শুরু হয়। এর আগে বারিক বিশ্বাস ছিলেন বাম নেতাদের ছত্রছায়ায় ছিল। ২০০৮ সালের পঞ্চায়েত নির্বাচনে বামেদের ক্ষমতা হারাতে দেখে বারিক শিবির বদলের পরিকল্পনা করে। তৃণমূলের সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা বৃদ্ধি করে। পাশাপাশি চোরাই কারবারের ব্যবসা অব্যাহত রাখে। ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে অবৈধভাবে সব বিষয়েই পাচারের অভিযোগ রয়েছে বারিকের বিশ্বাসের বিরুদ্ধে। বেশ কয়েকবার তাঁকে বিএসএফ, কেন্দ্রীয় সরকারের শুল্ক বিভাগ ও আয়কর দপ্তর জেরার মুখে পড়তে হয় বলে সূত্রের খবর।

[আরও পড়ুন: সরকারি নির্দেশ উপেক্ষা করে স্কুল খুলল হাওড়ায়! পুলিশ-প্রশাসনের দ্বারস্থ স্থানীয়রা]

এরপর ২০১১ সালে তৃণমূল ক্ষমতায় আসার পরে বারিক বিশ্বাসের ব্যবসার আরও রমরমা হয়। তাঁর ভাই গোলাম বিশ্বাস, স্ত্রী সাফিজা বিবি জেলা পরিষদের কর্মাধ্যক্ষ পদে বসেন। প্রভাব বিস্তার করে জেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসনের উপরেও। পাশাপাশি, বিনয় মিশ্রর সঙ্গেও তাঁর ঘনিষ্ঠতা বাড়তে থাকে। এসব তথ্য হাতে পেয়ে বুধবার সিবিআইয়ের একটি দল বসিরহাটে বারিক বিশ্বাসের বাড়িতে তল্লাশি চালায়। ম্যারাথন তল্লাশির পর বিকেল পৌনে চারটে নাগাদ সিবিআই অফিসাররা তাঁর বাড়ি থেকে বেরিয়ে যান। এই অভিযান নিয়ে বারিকের ভাই মালেক বিশ্বাসের অভিযোগ, ”চক্রান্ত করে আমার দাদাকে ফাঁসানো হচ্ছে। এইসব ব্যবসার সঙ্গে সে কোনওভাবেই জড়িত নয়। কে কোথা থেকে নাম বলে দিচ্ছে, আমাদের জানা নেই। সম্পূর্ণ রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ঘটনা। সিবিআই তল্লাশির নামে অহেতুক আমার দাদার নাম কালিমালিপ্ত করা হচ্ছে।” তাঁর আরও দাবি, ”উনি একজন সমাজসেবী মানুষ। সকলের পাশে থাকেন।”

[আরও পড়ুন: ভোটের আগে ফোকাসে নন্দীগ্রাম, মমতার কেন্দ্রে আগাম সমীক্ষা করবেন সুব্রত মুখোপাধ্যায়]

এদিকে, গরু পাচার চক্রে অন্যতম অভিযুক্ত বিনয় মিশ্রের বিরুদ্ধে এদিনই গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছে সিবিআই আদালত। তদন্তের স্বার্থে তাকে বারবার ডেকে পাঠিয়েছিল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। কিন্তু নানা অজুহাতে হাজিরা এড়িয়েছে সে। এরপরই বিশেষ আদালতে বিনয় মিশ্রের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির আরজি জানায় সিবিআই। সেই আরজি মঞ্জুর করে গরু পাচার কাণ্ডের অন্যতম অভিযুক্তের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করল আসানসোলের বিশেষ সিবিআই আদালত।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement