BREAKING NEWS

১০ আষাঢ়  ১৪২৮  শুক্রবার ২৫ জুন ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

রাজ্যে সামান্য কমল দৈনিক সংক্রমণ, একদিনে করোনার বলি দেড় শতাধিক

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: May 19, 2021 8:13 pm|    Updated: May 19, 2021 9:06 pm

Corona in West Bengal: 19006 new cases in last 24 hours, 157 death |Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: করোনা ভাইরাসের(Coronavirus) দাপট অব্যাহত বঙ্গে। গত ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমণ খানিকটা কমলেও, মৃত্যুর হার বাড়ল বেশ খানিকটা। স্বাস্থ্যদপ্তরের সাম্প্রতিকতম পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৯ হাজার ৬ জন। মঙ্গলবারও এই সংখ্যা ছিল ১৯,৪২৮। সেই তুলনায় বুধবারের দৈনিক সংক্রমণ খানিকটা কম। একদিনে রাজ্যে করোনার বলি ১৫৭ জন। এটাই রাজ্যে সাম্প্রতিককালের মধ্যে সর্বাধিক। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনার কবল থেকে সুস্থ হয়ে ফিরেছেন ১৯ হাজার ১৫১ জন।

স্বাস্থ্যদপ্তরের পরিসংখ্যান বলছে, এই মুহূর্তে রাজ্যে অ্যাকটিভ করোনা রোগীর সংখ্যা মোট ১ লক্ষ ৩১ হাজার ৪৯১, যা মঙ্গলবারের চেয়ে শ’ তিনেক কম। এ নিয়ে বঙ্গে (West Bengal)মোট কোভিডে আক্রান্ত হয়েছেন ১১ লক্ষ ৭১ হাজার ৮৬১। সুস্থ হয়ে ফিরেছেন ১০ লক্ষ ৪৫ হাজার ৬৪৩জন। মৃত্যু হয়েছে মোট ১৩ হাজার ৭৩৩ জনের। সুস্থতার হার বেড়েছে সামান্য, এই মুহূর্তে তা ৮৭.৮১ শতাংশ। সংক্রমণের শীর্ষে উত্তর ২৪ পরগনা, এখানে দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৪,১৭৭। তার পরেই রয়েছে কলকাতা। গত ২৪ ঘণ্টায় কলকাতায় নতুন করে ৩,৬১৮ জনের শরীরে বাসা বেঁধেছে করোনা ভাইরাস।

[আরও পড়ুন: অমানবিক! অভুক্ত পরিযায়ী শ্রমিককে দেওয়া হল পথকুকুরদের খাবার, শোরগোল ধূপগুড়িতে

কোভিড (COVID-19) রুখতে গত রবিবার থেকে রাজ্যে শুরু হয়েছে নতুন করে বিধিনিষেধ। চলবে ৩০ মে পর্যন্ত। বন্ধ সব গণপরিবহণ, নিষিদ্ধ যাবতীয় জমায়েত। এই বিধিনিষেধ ঠিকমতো মেনে চললে, তার সুফল মিলবে বলে আশাবাদী স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা। এদিকে, বুধবারও রাজ্যে এসেছে ২ লক্ষের বেশি কোভিশিল্ড। টিকার ঘাটতি মেটাতে রাজ্য সরকারের আবেদন মেনে ভ্যাকসিন পাঠানো হচ্ছে  কেন্দ্রের তরফে। সরাসরি উৎপাদক সংস্থার থেকে টিকা কেনাও হয়েছে। তাতেই চলছে টিকাকরণের কাজ। 

[আরও পড়ুন: আগামী সপ্তাহেই আছড়ে পড়বে ‘যশ’, বিপর্যয় মোকাবিলায় প্রস্তুতি শুরু জেলাগুলিতে] 

সূত্রের খবর, এদিন জেলাশাসকদের নিয়ে নবান্ন থেকে কোভিড পরিস্থিতি নিয়ে ভারচুয়াল বৈঠক করেন মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। জেলাশাসকদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, আগামী ৩ দিনের মধ্যে টিকাদানে অগ্রাধিকারের ভিত্তিতে নির্দিষ্ট ডেটাবেস তৈরি করতে হবে। রাজ্য সরকারের তৈরি করোনা টাস্কফোর্সের দায়িত্বে ছিলেন ফিরহাদ হাকিম। তিনি আপাতত জেলবন্দি হওয়ায় দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে। এদিকে, আগামী শুক্রবার থেকে কলকাতায় তৃতীয় লিঙ্গের ব্যক্তিদের করোনার টিকাদান (Corona vaccine) শুরু হবে। কলকাতা পুরসভার উদ্যোগে একইসঙ্গে ভ্যাকসিন পাবেন হকার, পরিবহণকর্মী, বাজারের ব্যবসায়ী, মাছ ও সবজি বিক্রেতারাও। এদিন সাংবাদিক বৈঠকে ঘোষণা করেছেন পুরসভার প্রশাসক অতীন ঘোষ।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement