BREAKING NEWS

১২ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

হেমতাবাদের বিজেপি বিধায়ক মৃত্যু মামলায় চার্জশিট দাখিল CID’র

Published by: Sayani Sen |    Posted: September 12, 2020 10:15 am|    Updated: September 12, 2020 6:09 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: উত্তর দিনাজপুরের হেমতাবাদের বিজেপি বিধায়ক দেবেন্দ্রনাথ রায় মৃত্যু মামলার তদন্তভার আগেই নিয়েছে সিআইডি (CID)। এবার ওই মামলাতে চার্জশিট দাখিল করলেন তদন্তকারীরা। শুক্রবার রায়গঞ্জ আদালতে দেবেন্দ্রনাথ রায়ের মৃত্যু মামলায় চার্জশিট দাখিল করে সিআইডি।

জুলাই মাসে রায়গঞ্জের বিন্দোল পঞ্চায়েতের বালিয়া গ্রামে আদি বাড়ি থেকে প্রায় দেড় কিলোমিটার দূরে রাস্তার ধারে বন্ধ চায়ের দোকানে বিধায়ক দেবেন্দ্রনাথ রায়ের ঝুলন্ত দেহ দেখতে পাওয়া যায়। পরিবারের দাবি, ঘটনার আগের রাতে বেশ কয়েকজন যুবক তাঁকে ডেকে নিয়ে যায়। তারপরই এমন কাণ্ড ঘটেছে। এছাড়াও ঝুলন্ত দেহ উদ্ধারের সময় বিধায়কের হাত বাঁধা ছিল। তাই এই ঘটনাকে খুন বলেই দাবি করতে থাকেন বিধায়কের স্ত্রী। যদিও পুলিশ সূত্রে খবর, দেহ উদ্ধারের সময় নিহতের পকেট থেকে একটি সুইসাইড নোট উদ্ধার হয়েছে। ওই সুইসাইড নোটে দু’জনের নামও লেখা ছিল। মৃতের পরিবার সিবিআই তদন্তের দাবি জানালেও ঘটনার তদন্তভার সিআইডি’র হাতে দেয় রাজ্য সরকার। সেই অনুযায়ী তদন্ত শুরু হয়। সামনে আসে বিধায়কের ময়নাতদন্ত রিপোর্টও। তাতে আত্মহত্যার তত্ত্ব স্পষ্ট বলেই দাবি তদন্তকারীদের। যদিও বিধায়কের পরিবারের দাবি, সিআইডি তদন্ত করে কোনও রিপোর্ট প্রকাশ করছে না। পরিবর্তে পুরোটাই সাজানো গল্প বলছে। সেই অভিযোগেই সিআইডি তদন্তের উপর আস্থা হারিয়েছেন নিহতের পরিজনেরা।

[আরও পড়ুন: ঝলমলে রোদ নাকি বৃষ্টিতে ভিজবে বাংলা? জেনে নিন কী বলছে হাওয়া অফিস]

ইতিমধ্যেই বিধায়কের সুইসাইড নোটে নাম থাকা দু’জনকে গ্রেপ্তার করেছে সিআইডি। ধৃতদের হেফাজতে নিয়ে তদন্ত করার পরই বিধায়কের মৃত্যু মামলায় চার্জশিট দাখিল করলেন তদন্তকারীরা। সূত্রের খবর, ওই মামলায় ধৃত নিলয় সিনহা এবং মাবুদ আলির বিরুদ্ধে খুনের মামলা রুজু হয়নি। পরিবর্তে আত্মহত্যায় প্ররোচনা-সহ একাধিক ধারায় মামলা রুজু হয়েছে। তবে এই চার্জশিটে আপত্তি রয়েছে নিহতের পরিবারের। তাই সিবিআই তদন্তে দাবি জানিয়েছেন বিধায়কের স্ত্রী।

[আরও পড়ুন: পরীক্ষার এক সপ্তাহের মধ্যেই JEE মেন পরীক্ষার ফলপ্রকাশ, রাজ্যে প্রথম ঢাকুরিয়ার শ্রীমন্তী]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement