৩০ কার্তিক  ১৪২৬  রবিবার ১৭ নভেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

নিজস্ব সংবাদদাতা, বনগাঁ: রাজ্যে ফের নির্ভয়া কাণ্ডের ছায়া। এবার বনগাঁয়। শহরের একটি সিনেমা হলে নাবালিকাকে ধর্ষণ করে পালাল দুষ্কৃতীরা। বনগাঁ মহকুমা হাসপাতালে ভরতি নির্যাতিতা। তার শারীরিক অবস্থা গুরুতর বলে জানা দিয়েছে।

[আরও পড়ুন: ডিম চাওয়ার ‘অপরাধ’, শিশুর গায়ে গরম খিচুড়ি ঢালল অঙ্গনওয়াড়ি কর্মী ]

বৃহস্পতিবার যখন রাজ্যের ৪২টি আসনে লোকসভা ভোটের ফল প্রকাশিত হচ্ছে, তখন নারকীয় ঘটনা ঘটে গেল উত্তর ২৪ পরগনা বনগাঁয়। শহরের একটি সিনেমা হলে ধর্ষিতা হল সতেরো বছরের এক কিশোরী। নির্যাতিতার দাবি, বৃহস্পতিবার সকালে এক বান্ধবীর ফোন পেয়ে বনগাঁ বাজারে যায় সে। কিছুক্ষণ ঘোরাঘুরি করার পর, সিনেমা দেখতে শহরের একটি সিনেমা হলে ঢোকে দু’জনে। নির্যাতিতার দাবি, প্রথমে সিনেমা দেখতে যেতে রাজি ছিল না সে। বান্ধবীই তাকে একপ্রকার জোর করে সিনেমা হলে নিয়ে যায়। কিন্তু সিনেমার মাঝ পথেই হলে থেকে বেরিয়ে যায় নির্যাতিতার বান্ধবী। এরপর সিনেমা হলে ওই কিশোরীকে তিনজন যুবক মিলে ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ। নির্যাতিতার চিৎকারে যখন সিনেমা হলের কর্মীরা ঘটনাস্থলে পৌঁছান, ততক্ষণে পালিয়েছে অভিযুক্তেরা। খবর পেয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় ওই কিশোরীকে প্রথমে বাড়িতে নিয়ে চলে যান পরিবারের লোকেরা। কিন্তু শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় শেষপর্যন্ত তাকে ভরতি করা হয় বনগাঁ মহকুমা হাসপাতালে।   

এদিকে যে বান্ধবীর বিরুদ্ধে নির্যাতিতাকে সিনেমা হলে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে, তার দাবি, ওই কিশোরীকে সে চেনে ঠিকই। তবে গত ১৩ মে-র পর দু’জনের আর দেখা হয়নি। ঘটনার তদন্তে নেমেছে বনগাঁ থানার পুলিশ। এখনও পর্যন্ত কাউকে গ্রেপ্তার করা হয়নি। দিন কয়েক আগে বছর বাইশের এক যুবতীকে গণধর্ষণের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছিল জলপাইগুড়ির ধূপগুড়িতে। সেবার নদীর পাড় থেকে নির্যাতিতাকে অচৈতন্য অবস্থায় উদ্ধার করেছিল পুলিশ।

[আরও পড়ুন: লীয় কর্মী খুন, প্রতিবাদে রানাঘাট-শিয়ালদহ শাখায় রেল অবরোধ বিজেপির]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং