BREAKING NEWS

১৩  আষাঢ়  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

স্ত্রী মোবাইলে কথা বলতে ব্যস্ত, রাগের বশে সন্তানের সামনেই কুপিয়ে খুন! গ্রেপ্তার স্বামী

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: May 7, 2022 9:24 pm|    Updated: May 7, 2022 9:39 pm

Husband allegedly stabs wife to death for her random conversation through mobile with another | Sangbad Pratidin

ছবি: প্রতীকী

বিপ্লবচন্দ্র দত্ত, কৃষ্ণনগর: স্ত্রী সারাদিন মোবাইলে কথা বলতে ব্যস্ত। স্বামীর সন্দেহ, স্ত্রীর বিবাহ বহির্ভূত (Extra Marrital Affairs) সম্পর্ক রয়েছে। আর তার জেরে ছোট সন্তানের সামনেই স্ত্রীকে দা দিয়ে কুপিয়ে খুনের অভিযোগ উঠল স্বামী বিরুদ্ধে। রানাঘাটের (Ranaghat)ঘটনায় নিহত গৃহবধূর নাম অলকা দাস, বয়স ২৭ বছর। ঘটনার পর অভিযুক্ত স্বামীকে গ্রেপ্তার করেছে রানাঘাট থানার পুলিশ।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, বছর ছয়েক আগে রানাঘাট থানার পায়রাডাঙ্গা বাজারপাড়ার সঞ্জিত দাসের সঙ্গে বিয়ে হয় অসমের অলকা দাসের। তাঁদের দু’বছরের এক পুত্রসন্তান রয়েছে। অভিযোগ, বিয়ের পর থেকে স্ত্রীর বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক রয়েছে, এই সন্দেহে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে প্রায়ই ঝগড়া, অশান্তি লেগে থাকত। এই নিয়ে বেশ কয়েকবার স্থানীয় পায়রাডাঙ্গা গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্যের কাছে নালিশ জানিয়েছেন উভয় পক্ষই।

[আরও পড়ুন: বিষ কিনতে গিয়ে দোকানদারের সঙ্গে প্রেম, স্বামীকে তালাক দিয়ে ফের বিয়ের দাবিতে অনশনে বধূ

স্বামীর অভিযোগ, অধিকাংশ সময় অলকা মোবাইলে কথা বলায় ব্যস্ত থাকতেন। এরপর শুক্রবার গভীর রাতে বাড়ির অন্যান্য সদস্যরা ঘুমিয়ে পড়লে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া-বিবাদ চরমে ওঠে। দু’বছরের ছেলের সামনে নৃশংসভাবে দা দিয়ে স্ত্রীকে এলোপাথাড়ি কোপ (Stab) দেয় স্বামী। পাশের ঘর থেকে আর্তনাদ শুনে সকলে ছুটে এসে দরজা ভেঙে দেখেন, অলকা রক্তাক্ত অবস্থায় মাটিতে পড়ে রয়েছেন। রাতেই খবর দেওয়া হয় রানাঘাট থানায়। ঘর থেকে রক্তাক্ত অবস্থায় দেহটিকে উদ্ধার করে রানাঘাট মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে যায় পুলিশের। সেখানেই চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন। রাতেই স্বামীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

[আরও পড়ুন: এক বোতল মদ খেয়েও নেশা হয়নি, সটান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে নালিশ মাতালের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে