BREAKING NEWS

১২  আষাঢ়  ১৪২৯  সোমবার ২৭ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

জঙ্গলে বড় বড় পায়ের ছাপ, বাঘের আতঙ্কে ঘুম উড়েছে লালগড়বাসীর

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: February 1, 2018 8:58 am|    Updated: February 1, 2018 9:37 am

Pug mark sparks tiger scare in Jhargram’s Lalgarh

সুনীপা চক্রবর্তী, ঝাড়গ্রাম: জঙ্গলে বড় বড় পায়ের ছাপ। ঘুমে উড়েছে লালগড়ের। বাঘের আতঙ্কে ভুগছেন গ্রামবাসীরা। স্থানীয় মানুষজনের ধারণা, লালগড় লাগোয়া জঙ্গলে ঢুকে পড়েছে বাঘ কিংবা চিতাবাঘ। খবর পেয়ে বুধবার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন বনদপ্তরের আধিকারিকরা। কোনও ঝুঁকি নিতে চাইছেন না তাঁরা। এলাকাবাসীকে সতর্ক করতে শুরু হয়েছে মাইকিং। তবে বনদপ্তরের প্রাথমিক ধারণা, ওই পায়ের ছাপ কোনও বড় ধরনের হায়নার হতে পারে।

[শিয়ালের কামড়ে জখম অন্তত ১৫, আতঙ্কে ঘুম উড়েছে বৈষ্ণবনগরে]

গত ২ দিন ধরে লালগড়ের রামগড় এবং রাঙামাটিয়া, করমশোল, লক্ষ্মনপুর এলাকার সংলগ্ন জঙ্গলগুলিতে বড় বড় পায়ের ছাপ নজরে এসেছে গ্রামবাসীদের। তাঁদের দাবি, ওই পায়ের ছাপ বুনো বিড়ালের নয়। জঙ্গলে বাঘ কিংবা চিতাবাঘ ঢুকেছে। বুধবার ভাউদি বিটের জঙ্গলগুলিতেও একই পায়ে ছাপ দেখতে পাওয়ায় রীতিমতো আতঙ্কিত গ্রামবাসীরা। ঘটনাস্থলে গিয়েছিলেন মেদিনীপুর বনদপ্তরের আধিকারিক রবীন্দ্রনাথ সাহা। জঙ্গলগুলি ঘুরে ঘুরে তিনি নিজে পায়ের ছাপগুলি দেখেছেন। গ্রামবাসীদের সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়েছেন বনদপ্তরের ওই পদস্থ আধিকারিক। বনদপ্তর সূত্রে জানা গিয়েছে, পুরুলিয়া জেলায় হায়না পাওয়া গেলেও ঝাড়গ্রাম জেলা এবং পশ্চিম মেদিনীপুরের জঙ্গলে হায়নার দেখা মেলার কোন তথ্য নেই। তবে গত ৫-৬ বছর আগে এক বার খড়্গপুরের জঙ্গলে একটি হায়না উদ্ধার হয়েছিল। তাই লালগড় রেঞ্জের জঙ্গলে যে পায়ের ছাপ দেখা গিয়েছে তা হায়নারই বলে মনে করা হচ্ছে। বনকর্মীদের মতে, কোনওভাবে হয়ত পাশের জেলা পুরুলিয়া থেকে লালগড়ের জঙ্গলে চলে এসেছে হায়না। তবে পায়ের ছাপগুলি হায়নারই কিনা, তা নিয়ে নিশ্চিত নন বনকর্মীরা। আপাতত গ্রামবাসীদের সতর্ক থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। গ্রামবাসীদের বনকর্মীরা বলেছেন, যে কেউ যদি জন্তুটি দেখতে পান, তাহলে যেন সঙ্গে সঙ্গে তাঁদের খবর দেওয়া হয়। তবে এখনও জন্তুটিকে দেখা যায়নি বলেই খবর।

[অস্ট্রেলিয়ায় রহস্যমৃত্যু বাঙালি তরুণের, বেঙ্গালুরুতে তরুণীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার]

মেদিনীপুর ডিভিশনের ডিএফও রবীন্দ্রনাথ সাহা বলেন, “খবর শোনার পরই ঘটনাস্থলে পরিদর্শনে গিয়েছিলাম। ভাউদি বিট এলাকার লক্ষ্মণপুর এলাকার জঙ্গলে বেশ বড় পায়ের থাপার ছাপ দেখা গিয়েছে। প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে এটি কোন বড় হায়নার পায়ের ছাপ। যদিও হায়না এই এলাকায় সচরাচর দেখা যায় না। তবে অন্য কোন জায়গা থেকে চলে আসতে পারে। তাও আমরা কোনও ঝুঁকি নিচ্ছি না। এলাকার মানুষদের সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে। কেউ কিছু দেখতে পেলে বনদপ্তরকে খবর দিতে বলা হয়েছে। আমরা স্থানীয়দের সতর্ক করতে মাইকিংও করব।”

[এক ধাক্কায় অনেকটা বাড়তে পারে সিনেমার টিকিটের দাম]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে