BREAKING NEWS

৩০ আশ্বিন  ১৪২৮  রবিবার ১৭ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ঘরে ঢুকে গৃহবধূকে অজ্ঞান করে ডাকাতি, চাঞ্চল্য হিন্দমোটরে

Published by: Tanujit Das |    Posted: September 1, 2018 6:17 pm|    Updated: September 1, 2018 6:17 pm

Robbers strike house in Hind Motors

দিব্যেন্দু মজুমদার, হুগলি: গৃহবধূকে অজ্ঞান করে সোনার গহনা ও মোবাইল নিয়ে চম্পট দিল ডাকাতরা৷ শুক্রবার সন্ধ্যায় ঘটনাটি ঘটে হুগলির হিন্দমোটর এলাকার দেবাইপুকুর রোডের একটি আবাসনে। আক্রান্ত গৃহবধূর নাম মীনাক্ষী চক্রবর্তী। গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় বর্তমানে উত্তরপাড়া স্টেট জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন তিনি। শনিবার থেকে ঘটনাটি জানাজানি হতেই চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকায়৷ প্রশ্ন ওঠে মহিলাদের নিরাপত্তা নিয়ে৷

[শিল্পীর ‘দক্ষতা’য় কবিগুরু হলেন আইনস্টাইন! সিউড়ি স্টেশনে ভ্রান্তিবিলাস]

মীনাক্ষী দেবী জানান, ঘটনার সময় ফ্ল্যাটে একাই ছিলেন তিনি৷ জানালা দিয়ে তিনি দেখেন এক যুবক কেবলের কাজ করছে এবং কিছুক্ষণ পরেই তাঁর টিভি বন্ধ হয়ে যায়। এরপরই ওই যুবককে তিনি টিভি বন্ধ হয়ে যাওয়ার কথা বলতেই, সেট টপ বক্স পরীক্ষা করার কথা বলেন ওই যুবক৷ সেই সুযোগে মীনাক্ষী দেবীর ফ্ল্যাটে ঢোকে সে৷ সেট টপ বক্স খোলার অছিলায় প্রায় দু’ঘন্টার বেশি সময় কাটিয়ে দেয়। এরপর মীনাক্ষী দেবীর অন্যমনস্ক হলেই পিছন থেকে হামলা করে ওই দুষ্কৃতী৷ অভিযোগ, পিছন থেকে এসে প্রচণ্ড জোরে তাঁকে চেপে ধরে সে। একসময় মীনাক্ষী দেবীর কান দিয়ে রক্ত বেরিয়ে আসে। শেষে অজ্ঞান হয়ে যান তিনি। পুলিশের অনুমান, মীনাক্ষী দেবী মৃত ভেবেই তাঁর দেহ ফেলে রেখে হাতের চুরি, কানের দুল ও অন্যান্য সোনার গহনা এবং মোবাইল ফোন নিয়ে চম্পট দেয় ওই যুবক৷

[ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে ছাত্র সংঘর্ষ, ভাঙচুর তালদির মোহনচাঁদ হাই স্কুলে]

জানা গিয়েছে, ঘরের দরজা খোলা দেখে প্রতিবেশীরা মীনাক্ষী দেবীর ফ্ল্যাটে ঢোকেন এবং অজ্ঞান অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করেন৷ তাঁরাই প্রথমে চোখেমুখে জল দিয়ে গৃহবধূর জ্ঞান ফেরান। পরে তাঁকে ভরতি করা হয় উত্তরপাড়া স্টেট জেনারেল হালপাতালে৷ এখনও আতঙ্কে ভুগছেন মীনাক্ষী দেবী৷ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ৷ তবে এলাকাবাসীর অভিযোগ হিন্দমোটর এলাকায় চুরি ছিনতাইয়ের ঘটনা ইদানীংকালে বেড়ে গিয়েছে৷ বিখ্যাত সাঁতারু বুলা চৌধুরীর বাড়িতেও চুরি হয়েছে। সকালে গঙ্গা স্নানে যাওয়ার সম এক বৃদ্ধার গলা থেকে হার ছিনতাই হয়েছে৷ প্রশ্ন উঠেছে নারী নিরাপত্তা নিয়েও৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement