BREAKING NEWS

০৮ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৪ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

অসুস্থ পড়ুয়াকে মারধরের অভিযোগ, কাঠগড়ায় বাঁকুড়ার ইংরেজি মাধ্যম স্কুল

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: July 24, 2019 4:58 pm|    Updated: July 25, 2019 2:18 pm

Teacher thrashes student badly, minor in intensive care

টিটুন মল্লিক, বাঁকুড়া: অসুস্থ পড়ুয়াকে মারধরের অভিযোগে এবার কাঠগড়ায় বাঁকুড়ার একটি ইংরেজি মাধ্যম স্কুল। জোড়া ধাক্কায় জেরবার হয়ে বাঁকুড়া মেডিক্যাল কলেজের আইসিইউ-তে চিকিৎসাধীন তৃতীয় শ্রেণির পড়ুয়া ওই শিশু। তবে মারধরের অভিযোগ অস্বীকার করেছে স্কুল কর্তৃপক্ষ।

[আরও পড়ুন:‘মমতাকে খুন করে ফেলব’, মুখ্যমন্ত্রীকে প্রাণনাশের হুমকিতে অভিযুক্ত প্রাথমিক শিক্ষক]

বাঁকুড়ার ওন্দা ব্লকের রতনপুর এলাকার একটি ইংরেজি মাধ্যম স্কুলের তৃতীয় শ্রেণির পড়ুয়া রূপম পাল। জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার তাদের স্কুলে কবাডি প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়েছিল। সেখানে অংশ নিয়েছিল রূপম। খেলা শেষ হওয়ার পরই অসুস্থ হয়ে পড়ে সে। সেই কারণে ক্লাসে গিয়ে বসেছিল ক্লাস থ্রি’র বাচ্চাটি। সেই সময়ই তাদের ক্লাসে যান এক বিজ্ঞান শিক্ষিকা। অন্য পড়ুয়ারা দিদিমণিকে দেখে উঠে দাঁড়ালেও, অসুস্থতার কারণে বসেই ছিল রূপম। আর সেটাই হল কাল।

অভিযোগ, উঠে না দাঁড়ানোয় ওই শিক্ষিকাই রূপমের কাছে গিয়ে বেঞ্চে তার মাথা ঠুকে দেয়। এরপর থেকেই লাগাতার বমি করতে শুরু করে রূপম। গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় স্কুলের তরফেই হাসপাতালে ভরতি করা হয় রূপমকে। বর্তমানে সেখানেই চিকিৎসাধীন সে।

যদিও শিশুর পরিবারের সমস্ত অভিযোগ ভিত্তিহীন বলেই দাবি স্কুল কর্তৃপক্ষের। স্কুলের তরফে জানানো হয়েছে, “কবাডি খেলা শেষের পর থেকেই অসুস্থ হয়ে পড়েছিল রূপম। আমাদের নজরে পড়তেই আমরা তাকে হাসপাতালে ভরতি করি।” কিন্তু স্কুল কর্তৃপক্ষের যুক্তি কার্যত ভিত্তিহীন বলেই দাবি অসুস্থ পড়ুয়ার বাবা চক্রধর পালের। তিনি জানান, প্রতিদিন তাঁর বাড়়ির গাড়ি রূপমকে স্কুলে ছেড়ে সেখানেই অপেক্ষা করেন। ছুটির পর রূপমকে নিয়েই ফেরে। সেক্ষেত্রে স্কুলে রূপম অসুস্থ হয়ে পড়লে কেন তার বাড়ির চালককে না জানিয়েই কেন হাসপাতালে ভরতি করা হল? প্রশ্ন চক্রধরবাবুর। তবে এখনও ওই পড়ুয়ার পরিবারের তরফে এখনও থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়নি। স্কুলের এই ভূমিকায় প্রশ্ন উঠছে বিভিন্ন মহলে৷

[আরও পড়ুন: ফুড ডেলিভারি বয় সেজে এটিএম লুটের পরিকল্পনা, পুলিশের জালে দুষ্কৃতী]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে