১৬ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শুক্রবার ৩ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ডাইনি অপবাদ দিয়ে পুড়িয়ে খুন! অন্ধবিশ্বাস রুখতে উদ্যোগ মহিলা কমিশনের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 2, 2018 7:47 pm|    Updated: May 2, 2018 8:00 pm

the women commissions initiative to stop superstition

ঘটনাস্থলে রাজ্য মহিলা কমিশনের প্রতিনিধি দল৷ ছবি: মুকুলেসুর রহমান

সৌরভ মাজি, বর্ধমান: কিছু প্রাপ্তিযোগের আশায় নারকীয় ঘটনা ঘটানো হয়েছে৷ আর করতে গিয়ে অন্ধবিশ্বাসকে কাজে লাগানো হয়েছে৷ পূর্ব বর্ধমানের মাধবডিহি থানা নেওড়াগ্রাম পরিদর্শনের পর এমনটাই মনে করছে রাজ্য মহিলা কমিশন৷ সেই কারণে আদিবাসী অধ্যুষিত গ্রামগুলিতে ধারাবাহিকভাবে সচেতনতার-প্রচারে গুরুত্ব দিচ্ছেন তাঁরা৷ বুধবার গ্রামে আসেন রাজ্য মহিলা কমিশনের চেয়ারপার্সন লীনা গঙ্গোপাধ্যায়৷ ছিলেন কমিশনের আরও তিন সদস্য দীপান্বিতা হাজারি, সুনীতা সাহা ও মারিয়া ফার্নান্ডেজ৷

বিগত ২৩ এপ্রিল রাতে এই গ্রামে ডাইনি অপবাদ দিয়ে দুই ভাই-বোন মাকু বাস্কে ও রাম সিং মাণ্ডি ওরফে মঙ্গল মাণ্ডিকে খুন করে পুড়িয়ে দেওয়া হয়৷ এদিন দুপুরে গ্রামে যান মহিলা কমিশনের ওই চার সদস্য৷ পরিদর্শনের পর লীনা গঙ্গোপাধ্যায় জানান, এই ঘটনার কথা শোনার পর প্রথমেই তাঁদের মনে হয়েছিল ঘটনার পিছনে অন্য কোনও কারণ রয়েছে৷ ঘটনার সঙ্গে জমি-জায়গার বিষয় জড়িয়ে রয়েছে বলে প্রকাশ্যে আসে৷ কিছু একটা প্রাপ্তিযোগের আশ্বাস থেকেই এই হত্যাকাণ্ড ঘটানো হয়েছে৷ আর তা করতে অন্ধবিশ্বাসকে কাজে লাগানো হয়েছিল বলেই মনে করছেন তাঁরা৷ ওই বিশেষ সম্প্রদায়ের মানুষদের নিয়ে গ্রামে গ্রামে সচেতনতা শিবির করারও চিন্তাভাবনা করছে কমিশনের৷

এই ঘটনায় প্রশাসন ও পুলিশের ভূমিকায় সন্তোষ প্রকাশ করেছে মহিলা কমিশন। এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত মোট ৩৮ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তবে অন্যতম অভিযুক্ত সেই ওঝা এখনও গ্রেপ্তার হয়নি। যার নিদানেই পাশবিক ঘটনা ঘটেছিল নেওড়াগ্রামে। সেই ওঝার সন্ধান শুরু করেছে পুলিশ। এদিন দুপুরে মহিলা কমিশনের সদস্যদের সঙ্গে গ্রামে যান সদরের মহকুমা পুলিশ আধিকারিক শৌভিক মুখোপাধ্যায়, রায়না-২ বিডিও দীপ্যময় মজুমদার, মাধবডিহি থানার ওসি প্রমুখ। নেওড়াগ্রামের আদিবাসী পাড়ায় যান তাঁরা। যেখানে ওই দুই জনকে খুন করা হয়েছিল সেই জায়গা ঘুরে দেখেন তাঁরা। তারপর যান নিহত মাকু বাস্কের ছেলে জয়দেব বাস্কের বাড়িতে। জয়দেব সেদিনের ঘটনার বিবরণ দেন৷

যা শুনে শিউড়ে ওঠেন মহিলা কমিশনের সদস্যরা। জয়দেব কমিশনের চেয়ারপার্সনকে জানান, ডাইনি অপবাদ দিয়ে তাঁর মা ও মামাকে কীভাবে পিটিয়ে খুন করা হয়। মৃত্যুকালে তাঁরা জল চাইলে তাঁদের মুখে বিষ ঢেলে দেওয়া হয় বলে জানান জয়দেব৷ মঙ্গল মাণ্ডির ভাইপো বিশু মাণ্ডি-সহ তাদের পরিবার ও প্রতিবেশী লোকজন এই নারকীয় হত্যাকাণ্ড ঘটায় বলেও তিনি জানিয়েছেন। দোষীদের কঠোর শাস্তির আর্জি জানিয়েছেন তিনি। পুলিশ ইতিমধ্যেই বিশুকে গ্রেফতার করেছে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে