BREAKING NEWS

১৯ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  সোমবার ৬ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘তিতলি’-র প্রভাবে বিপর্যস্ত ঝাড়গ্রাম, মৃত্যু যুবকের

Published by: Kumaresh Halder |    Posted: October 12, 2018 3:30 pm|    Updated: October 12, 2018 3:30 pm

Titli affect: Heavy rain in Jhargram, Kharagpur

সুনীপা চক্রবর্তী, ঝাড়গ্রাম: বৃষ্টি ও ঝোড়ো হাওয়ার তাণ্ডবে বিপর্যস্ত ঝাড়গ্রাম৷ রাতভর ভারী বৃষ্টির জেরে থমকে যোগাযোগ ব্যবস্থা৷ শুক্রবার ভোর থেকে মুষলধারে বৃষ্টির জেরে ভেঙে পড়েছে বহু কাঁচাবাড়ি৷ঘরছাড়া অন্তত শ’দেড়েক পরিবার৷ ক্ষতিগ্রস্ত বেশ কিছু পুজোমণ্ডপ৷ একদিকে ঝড় ও অন্যদিকে মুষলধারে বৃষ্টির প্রভাবে ফুঁসছে জঙ্গলমহলের একাধিক নদী৷ টানা সাত-আট ঘণ্টা ধরে অবিরাম  বৃষ্টি চলতে থাকায় সাঁকরাইল-সহ বেশ কিছু এলাকায় বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে বলে খবর৷ অন্যদিকে, খড়গপুরের ধুলিয়াপাতা এলাকায় টানা বৃষ্টিতে কারখানার দেওয়াল চাপা পড়ে এক জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে৷ ঘটনায় জখম হয়েছেন পাঁচ জন৷ তাঁদেরকে মিনপুর হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছে৷

[চার বছর পর দেবীপক্ষে বাড়ি ফিরল হারানো ছেলে]

পুজোর মুখে বৃষ্টি ও ঝোড়ো হাওয়ায় নাকাল ঝাড়গ্রাম ও খড়গপুর শিল্পাঞ্চলের বাসিন্দারা৷ বিপদসীমার ছুঁইছুঁই সুবর্ণরেখা, তারাশ্রেণি ও কংসাবতী নদী৷ ঝাড়গ্রামে বৃহস্পতিবার রাত থেকে চলতে থাকা বৃষ্টিতে বহু মাটির বাড়ি ভেঙে পড়েছে৷ ভেঙেছে একাধিক পুজোর মণ্ডপও৷ এদিনের বৃষ্টি ও ঝোড়ো হাওয়ায় সব থেকে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে সাঁকরাইল৷ এছাড়াও, ঝাড়গ্রাম শহরেও বৃষ্টির প্রভাব পড়েছে৷ একাধিক ওয়ার্ডে জল জমার খবর পাওয়া গিয়েছে৷ যুদ্ধকালীন তৎপরতায় জল নামানোর কাজ চলছে বলে ঝাড়গ্রাম পুরসভা সূত্রে খবর৷ টানা বৃষ্টি ও লাগাতার ঝোড়ো হাওয়ার তাণ্ডবে বিপর্যস্ত সড়ক যোগাযোগ ব্যবস্থা৷ রাজ্য ও জাতীয় সড়কের ভেঙে পড়েছে গাছ৷ রাস্তায় গাছ ভেঙে পড়ায় যান চলাচলে বিঘ্ন ঘটেছে৷ ঝড়ে তার ছিঁড়ে পড়ায় বেশ কিছু এলাকায় এখনও বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়েছে রয়েছে৷ বৃষ্টি কমা না পর্যন্ত পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে না বলে জানিয়েছে বিদ্যুৎ দপ্তর৷

[ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে ‘ব়্যাগিং’, ১২ জনের নামে এফআইআর দায়ের]

অন্যদিকে, ঝাড়গ্রামের মতো দুর্যোগ দেখা না দিলেও পশ্চিম মেদিনীপুরে বিক্ষিপ্তভাবে প্রভাব পড়েছে বলে জানা গিয়েছে৷ হওয়া অফিস সূত্রে খবর,  আগামী ৪৮ ঘণ্টা ঝাড়গ্রাম-সহ জঙ্গলমহলের বেশ কিছু জেলায় বৃষ্টি চলবে৷ তিতলির প্রভাবে ইতিমধ্যেই ফুঁসতে শুরু করেছে দিঘার সমুদ্র৷ দক্ষিণ ২৪ পরগনার বকখালির ফ্রেজারগঞ্জেও জলোচ্ছ্বাস দেখা দিয়েছে৷ বৃষ্টি ও হাওয়ার দাপট থাকায় প্রশাসনের অনুমতি ছাড়া মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যেতে নিষেধ করা হয়েছে৷

ছবি: প্রতীম মৈত্র৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে