BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

বিশ্ব বাংলার ‘ব’ বদলে রাতারাতি হল ‘রাম’, তীব্র উত্তেজনা কাঁকিনাড়ায়

Published by: Tanujit Das |    Posted: June 3, 2019 6:18 pm|    Updated: June 3, 2019 6:19 pm

An Images

ধ্রুবজ্যোতি বন্দ্যোপাধ্যায় ও আকাশনীল ভট্টাচার্য: রাজ্য সরকারের বিশ্ব বাংলা লোগোর ‘ব’কে বিকৃত করে লেখা হল ‘রাম’৷ আর এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত জগদ্দল থানার অন্তর্গত কাঁকিনাড়ার মাদরাল এলাকা৷ কে বা কারা একাজ করেছে, তার খোঁজ শুরু করেছে পুলিশ৷ এলাকার সাধারণ মানুষের সঙ্গে কথা বলেছেন পুলিশ আধিকারিকরা৷ ঘটনার সঙ্গে বিজেপি ও গেরুয়াপন্থী সংগঠনগুলির যোগ রয়েছে বলে অভিযোগ স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্বের৷

[ আরও পড়ুন: ‘পুলিশের জিভ ছিঁড়ে নেব’, হুমকি দিয়ে বিতর্কে বীরভূমের বিজেপি নেতা ]

জানা গিয়েছে, কাঁকিনাড়ার মাদরালের একটি হনুমান মন্দিরের ভিতরের পার্কে থাকা ‘বিশ্ব বাংলা’ গ্লোবকে বিকৃত করা হয়েছে৷ লোগোর ‘ব’এর উপর রঙ দিয়ে ‘রাম’ লেখা হয়েছে৷ সোমবার সকালেই ঘটনাটি নজরে আসে এলাকার বাসিন্দাদের৷ তাঁরাই খবর দেন পুলিশে৷ ঘটনাস্থলে এসে মন্দির কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলেন পুলিশ আধিকারিকরা৷ কথা বলেন স্থানীয় বাসিন্দাদের সঙ্গেও৷ সূত্রের খবর, ঘটনার সঙ্গে কে বা কারা জড়িত রয়েছে, সেবিষয়ে তদন্তকারীদের কোনও যথাযথ উত্তর দিতে পারেননি কোনও পক্ষই৷ তবে এই ঘটনার সঙ্গে বিজেপি-সহ গেরুয়াপন্থীদের যোগের অভিযোগ তুলেছে শাসকদলের একাংশ৷ ইতিমধ্যে ঘটনায় জোরদার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ৷

[ আরও পড়ুন: ‘মানুষের প্রতি কৃতজ্ঞ’, সাংসদ হওয়ার পর প্রথমবার বসিরহাটে গিয়ে আপ্লুত নুসরত ]

বঙ্গ রাজনীতিতে এখন সবচেয়ে চর্চিত স্লোগান ‘জয় শ্রীরাম’৷ এই ‘রামনাম’কে কেন্দ্র করেই তুঙ্গে রাজনৈতিক তরজা৷ নির্বাচন চলাকালীন মুখ্যমন্ত্রীর কনভয় লক্ষ্য করে ‘জয় শ্রীরাম’ স্লোগান দিয়ে বিপাকে পড়েন একদল বিজেপি সমর্থক৷ ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটে গত সপ্তাহেও৷ নৈহাটির ধরনা কর্মসূচিতে যাওয়ার সময়ও একই কায়দায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কনভয়কে লক্ষ্য করে এই স্লোগান দেন সেখানকার বিজেপি সমর্থকরা৷ যার জেরে দুই জায়গায় মোট তিনবার কনভয় থামিয়ে ক্ষোভ উগরে দেন মুখ্যমন্ত্রী৷ এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে ১০ জনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ৷ যার প্রতিবাদে মুখ্যমন্ত্রীর বাড়িতে ১০ লক্ষ ‘জয় শ্রীরাম’ লেখা পোস্টকার্ড পাঠাবেন বলে ঘোষণা করেন বারাকপুরের সাংসদ অর্জুন সিং৷ একই ইস্যুতে মুখ্যমন্ত্রীকে আক্রমণ করেন বিজেপি নেতারাও৷ যার পালটা হিসাবে ইতিমধ্যে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির দপ্তরে ‘জয় হিন্দ’, ‘জয় বাংলা’ লেখা পোস্টকার্ড পাঠানোর পরিকল্পনা নিয়েছে শাসকদলও৷ একই বার্তা পাঠানো হবে অর্জুন সিংয়ের হোয়াটসঅ্যাপ নম্বরেও৷ ফলে যত দিন যাচ্ছে, এই ‘রামনাম’কে কেন্দ্র করে ততই উত্তেজনার পারদ চড়ছে রাজ্য রাজনীতিতে৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement