BREAKING NEWS

১৩ মাঘ  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ২৭ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

সিউড়ির দিলদার শেখ খুনের তদন্তে সিট গঠন বীরভূম জেলা পুলিশের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: April 26, 2018 5:32 pm|    Updated: August 24, 2018 6:12 pm

WB panchayat polls: SIT formed to probe Dildar Sheikh murder

নন্দন দত্ত, বীরভূম:  তিনি কোন দলের কর্মী ছিলেন, তা নিয়ে শাসক-বিরোধী তরজায় সরগরম রাজ্য-রাজনীতি। কিন্তু, বীরভূমের দিলদার শেখকে লক্ষ্য করে কে বা কারা গুলি চালিয়েছিল? এই প্রশ্নের মীমাংসা করতে ৪ সদস্যের বিশেষ তদন্তকারী দল বা সিট গঠন করল বীরভূম জেলা পুলিশ। সিটের নেতৃত্বে জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার। সিউড়ির দিলদার শেখ খুনে বুধবার চারজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। পুলিশের দাবি, ধৃতেরা বিজেপি সমর্থক। দিলদারের বাবার অভিযোগে ভিত্তিতে তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

[সিউড়িতে শেখ দিলদার খুনে গ্রেপ্তার ৪ বিজেপি কর্মী]

পঞ্চায়েতে মনোনয়ন পর্বে সন্ত্রাসের অভিযোগ তুলে আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিল বিরোধীরা। মামলা হয়েছিল সুপ্রিম কোর্টেও। কিন্তু, নির্বাচন প্রক্রিয়ায় হস্তক্ষেপ করতে চায়নি শীর্ষ আদালত। তবে শেষপর্যন্ত এ রাজ্যে পঞ্চায়েত ভোটের নির্বাচনী প্রক্রিয়ার উপর স্থগিতাদেশ জারি করে কলকাতা হাই কোর্ট। দিন কয়েক আগে পঞ্চায়েত মামলার রায় ঘোষণা হয়েছে। আদালতের স্পষ্ট নির্দেশ ছিল, ফের নতুন করে ভোটের মনোনয়নের বিজ্ঞপ্তি জারি করতে হবে। মনোনয়ন পেশে দিতে হবে বাড়তি সময়ও। গত সোমবার গোটা রাজ্যেই ফের মনোনয়ন জমা নেওয়া হয়েছে। আর দ্বিতীয় দফার মনোনয়ন পেশ পর্বেও উত্তপ্ত হয়ে ওঠে বীরভূম। দিনভরই বিক্ষিপ্ত অশান্তি চলে। বেলার দিকে সিউড়ি ১ নম্বর ব্লকের গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যান শেখ দিলদার নামে এক রাজনৈতিক কর্মী। কিন্তু, কে এই শেখ দিলদার? তিনি কোন দলের কর্মী? এই প্রশ্নে তোলপাড় শুরু হয় রাজনৈতিক মহলে। বিজেপির দাবি ছিল, মৃত রাজনৈতিক কর্মী দলের সংখ্যালঘু কর্মী। ত্রিপুরা জয়ের পর বিজেপির বিজয়মিছিলেও তাঁকে দেখা গিয়েছিল। রীতিমতো ছবি ও ভিডিও প্রকাশ করে নিজেদের দাবি প্রমাণের চেষ্টা করে রাজ্য বিজেপি নেতৃত্ব। বিকেলে আবার সাংবাদিক সম্মেলনে করে শেখ দিলদারের বাবা ও স্ত্রী জানিয়ে দেন, তিনি তৃণমূল কর্মী ছিলেন। তাঁর বাড়িতেও যান তৃণমূল নেতারা। ছেলেকে খুনের ঘটনায় বেশ কয়েকজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন শেখ দিলদারের বাবা তহিদ খান। বুধবার চারজনকে গ্রেপ্তার করে সিউড়ি থানার পুলিশ। পুলিশের দাবি, ধৃতেরা বিজেপি সমর্থকরা।

[অব্যাহত পঞ্চায়েত নির্বাচন মামলার জট, ডিভিশন বেঞ্চে যাচ্ছে বাম-কংগ্রেস]

তবে এবার আর সিউড়ি থানা নয়, শেখ দিলদার খুনের তদন্ত করবেন বিশেষ তদন্তকারী দল বা সিটের সদস্যরা। বৃহস্পতিবার চার সদস্যের এই বিশেষ তদন্তরকারী দল বা সিট গঠন করল বীরভূম জেলা পুলিশ। সিটের নেতৃত্বে জেলার অতিরিক্ত পুলিশ। দিলদার শেখ খুনের তদন্ত কোন পথে এগোয়, এখন সেটাই দেখার।

[বীরভূমে স্ক্রুটিনি শেষে উধাও ‘ভূতুড়ে প্রার্থী’, ভূত পালিয়েছে দাবি অনুব্রত মণ্ডলের]

ছবি- বাসুদেব ঘোষ

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে