১২ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৯ নভেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

পাহাড়ে কর্মরত কর্মচারীদের জন্য নয়া উপহার রাজ্য সরকারের

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: November 28, 2017 1:14 pm|    Updated: September 22, 2019 12:35 pm

West Bengal govt. announced new cercular for state govt employee who were presented at morcha strike

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পাহাড়ে চাকরিরত রাজ্য সরকারি কর্মীদের জন্য সুখবর। পাহাড়ে মোর্চার ডাকা বনধের সময় যাঁরা যাঁরা কাজে যোগ দিয়েছিলেন তাঁদের জন্য অতিরিক্ত ১৫ দিনের ছুটি ঘোষণা করা হল রাজ্য সরকারের। আর যাঁরা যোগ দিতে পারেননি, তাঁদের ক্ষেত্রে কেবল ১৫ দিনের মাইনে কাটা হবে। মঙ্গলবার এই সংক্রান্ত নির্দেশিকা জারি করল নবান্ন।

[মমতার উপহার দেওয়া ছবি থাকবে হৃদয়ে, আপ্লুত রাষ্ট্রপতি]

ক্ষমতায় আসার পর থেকেই বনধের ব্যাপারে কড়া অবস্থান নিয়েছিল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরকার। নির্দেশিকা জারি করে জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল, বনধকে কোনওভাবেই সমর্থন করা হবে না। এমনকী ওই দিন কোনও অজুহাতেই অনুপস্থিত থাকতে পারবেন না সরকারি কর্মচারীরা। সেক্ষেত্রে নিয়ম চালু করে বলা হয়েছিল, কোনও রাজনৈতিক দলের ডাকা বনধে সরকারি কর্মীরা যদি অফিসে অনুপস্থিত থাকেন, তাহলে তাঁদের মাইনে থেকে একদিনের মজুরি কেটে নেওয়া হবে এবং চাকরি জীবন থেকে একদিন কেটে নেওয়া হবে। কিন্তু সরকারের এই নিয়মেই কার্যত ফাঁপড়ে পড়েন পাহাড়ে কর্মরত কর্মীরা। কারণ মোর্চার ডাকা বনধে দীর্ঘদিন কাজে যোগ দিতে পারেননি তাঁরা। আর তাই বিনয় তামাংদের পক্ষ থেকে বারেবারেই রাজ্য সরকারের কাছে এই মর্মে আবেদন করা হয়, পাহাড়ের পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে সরকার যেন ওই কর্মীদের ছাড়ের ব্যবস্থা করেন। এরপরই নবান্নের তরফ থেকে ঘোষণা করা হয়, যাঁরা যাঁরা বনধে অফিসে আসতে পেরেছেন তাঁদের অতিরিক্ত ১৫ দিনের ছুটি দেওয়া হবে। আর যাঁরা আসতে পারেননি তাঁদের ১৫ দিনের ছুটি কেটে নেওয়া হবে এবং সেই সঙ্গে কাটা হবে ১৫ দিনের মাইনে। মূলত বনধের সময় সে সমস্ত সরকারি কর্মীরা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কাজ করেছেন তাঁদেরই পুরস্কৃত করল রাজ্য সরকার৷ পাহাড়ে মোর্চার ডাকা বনধ মোকাবিলায় প্রথম থেকেই কড়া মনোভাব দেখিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ ওই বনধ বেআইনি ঘোষণা করে পাহাড়ে সরকারি কর্মীদের হাজিরা বাধ্যতামূলক, একথাও জানিয়েছিল রাজ্য সরকার৷

[সেজে উঠছে সেন্ট্রাল পার্ক কমপ্লেক্স, বইমেলার থিম কান্ট্রি এবারও ফ্রান্স]

এদিকে, চুক্তিভিত্তিক কর্মীদের জন্যও নয়া নির্দেশিকা জারি করল রাজ্য সরকার। জানানো হয়েছে, চুক্তিভিত্তিক কর্মীদের কেউ যদি ৬০ বছর হওয়ার আগেই কর্মরত অবস্থায় মারা যান, সেক্ষেত্রে মৃতের পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হবে এককালীন ২ লক্ষ টাকা। আগে এই টাকার পরিমাণ ছিল এককালীন দেড় লক্ষ টাকা। সেটাই এবার আরও বাড়ানো হল। স্বভাবতই খুশির হাওয়া ওই কর্মীদের মধ্যে।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে