BREAKING NEWS

১০ মাঘ  ১৪২৮  সোমবার ২৪ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

১০০ পেরিয়েও খামতি নেই উৎসাহে, নাতবউয়ের কাঁধে ভর দিয়ে ভোট দিলেন বৃদ্ধা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: May 14, 2018 2:23 pm|    Updated: May 14, 2018 2:32 pm

West Bengal panchayat polls: Centenarian woman, visually impaired man cast vote in Jalpaiguri

সঞ্জীব মণ্ডল, শিলিগুড়ি: বয়স আঠেরো পেরোলেই ভোটার৷ তাগিদই বলুন কিংবা উত্তেজনা, প্রথমবার গণতান্ত্রিক অধিকার প্রয়োগের সুযোগ হাতছাড়া করতে চান না নতুন ভোটাররা৷ কিন্তু, ওই পর্যন্তই! ভোট দিতে একেবারেই উৎসাহী নয় তরুণ প্রজন্ম৷ উলটো দিকে আবার যাবতীয় শারীরিক প্রতিবন্ধকতা উপেক্ষা করে বছরের পর বছর ভোট দিচ্ছেন জলপাইগুড়ির শীলা রায় ও লক্ষ্মীকাণ্ড মণ্ডল৷ প্রথমজনের বয়স একশো পেরিয়েছে৷ অশক্ত শরীর কাঁপে সর্বক্ষণ৷ আর দ্বিতীয়জনের দৃষ্টিশক্তি নেই৷ সোমবার পঞ্চায়েত ভোটে অংশ নিলেন দু’জনেই৷

[রানিগঞ্জের বাঁশরায় আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে বহিরাগতদের বুথ দখলের চেষ্টা রুখল বাসিন্দারা]

গণতন্ত্রের উৎসবে ফের রক্ত ঝরল বাংলায়৷ পঞ্চায়েত ভোটে এখনও পর্যন্ত ৮ জনের প্রাণহানির খবর মিলেছে৷ অশান্ত দক্ষিণবঙ্গ৷ দু’একটা বিচ্ছিন্ন ঘটনা ঘটেছে বটে৷ তবে উত্তরবঙ্গে পঞ্চায়েত ভোট মোটের উপর শান্তিপূর্ণই বলা চলে৷ শিলিগুড়ি লাগোয়া জলপাইগুড়ির রাজগঞ্জ ব্লকে তো ছিল রীতিমতো উৎসবের মেজাজ৷ তবে সবচেয়ে বড় কথা, ফুলবাড়ি ১ নম্বর পঞ্চায়েতের মধূসুদন ভোটকেন্দ্রে এবারেও ভোট দিলেন শতায়ু শীলা রায়৷ সোমবার সকালে নাতবউয়ের সঙ্গে টোটোয় চেপে ভোট দিতে এসেছিলেন তিনি৷ উৎসাহে খামতি নেই৷ কিন্তু, শতবর্ষ পেরনো শরীরটা যে বিদ্রোহ করেছে! টোটোয় বসে রীতিমতো কাঁপছিলেন শীলাদেবী৷ কোনওমতে তাঁকে বুথের ভিতরে নিয়ে যাওয়া হয়৷ কিন্তু, নিজের হাতে ভোট দিতে পারেননি ওই বৃদ্ধা৷ তাঁর ভোটটি দেন নাতবউ শিল্পী রায়৷ নিয়ম অনুসারে, কোনও কারণে প্রবীণ নাগরিকরা যদি ভোট দানে অপারগ হন, তাহলে ভোটারের উপস্থিতিতে তাঁর মনোনীত কোনও ব্যক্তি সংশ্লিষ্ট ভোটারের হয়ে ভোট দিতে পারেন৷ তাই এক্ষেত্রে শীলা রায়ের হয়ে তাঁর নাতবউ শিল্লীকে ভোট দেওয়ার অনুমতি দেন ওই বুথের প্রিসাইডিং অফিসার৷ শীলা রায়ের বাড়ি রাজগঞ্জ ব্লকের অম্বিকানগরে৷ পরিবারে লোকেদের দাবি, তাঁর বয়স ১০৩৷ একশো বছরের জীবনে সবকটি নির্বাচনেই ভোট দিয়েছেন শীলাদেবী৷

[লঙ্কা গুঁড়ো আর ভোজালি নিয়ে বুথে হামলার চেষ্টা কাঁথিতে, অভিযোগের তির বিজেপির দিকে]

সোমবার পঞ্চায়েত ভোট চলাকালীন বৃষ্টি নেমেছিল শিলিগুড়ি-সহ উত্তরবঙ্গের একাংশে৷ জলপাইগুড়ির রাজগঞ্জের অম্বিকানগরের একটি বুথে ছেলের কাঁধে চেপে যখন পৌঁছলেন লক্ষ্মীকান্ত মণ্ডল, তখন বাইরে তুমুল বৃষ্টি৷ জানা গিয়েছে, প্রতিটি নির্বাচনে এভাবেই ভোট দিতে আসেন লক্ষ্মীকান্তবাবু৷ দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছে নব্বই ছুঁই ছুঁই ওই বৃদ্ধ৷ দু’চোখে আঁধার৷ কিন্তু, তাতে কী! প্রতিটি নির্বাচনে প্রিসাইডিং অফিসারের অনুমতি নিয়ে বাবার হয়ে ভোট দেন ছেলে৷

[নামখানায় অগ্নিদগ্ধ হয়ে মৃত্যু বাম দম্পতির, তুঙ্গে রাজনৈতিক বিতর্ক]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে