BREAKING NEWS

১ আশ্বিন  ১৪২৭  শুক্রবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

সেন্সরের কোপে ইতিহাস নির্ভর ছবি ‘কালীক্ষেত্র’, ৫টি দৃশ্য বাদের নির্দেশ

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 10, 2018 9:39 am|    Updated: January 10, 2018 2:39 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অমর্ত্য সেনের তথ্যচিত্র নিয়ে বিতর্ক এখনও বাঙালির স্মৃতিতে টাটকা৷ ‘পদ্মাবত‘ নিয়েও শোরগোল অব্যাহত৷ কিছুদিন আগে ‘ধনঞ্জয়’ ছবি মুক্তি নিয়েও জটিলতা দেখা দিয়েছিল৷ তার মধ্যেই শিরোনামে ‘কালীক্ষেত্র’৷ জাতীয় পুরস্কারজয়ী পরিচালকের ইতিহাস নির্ভর এ ছবি থেকে পাঁচটি দৃশ্য বাদ দেওয়ার নির্দেশ সেন্সরের৷ যা নিয়ে যারপরনাই ক্ষুব্ধ পরিচালক৷

[ রাজস্থানের পর এবার হিমাচল প্রদেশেও নিষিদ্ধ ‘পদ্মাবত’ ]

ইতিহাসের উপর ভিত্তি করেই এ ছবি বানিয়েছেন পরিচালক৷ ইতিমধ্যে তা দূরদর্শনে সম্প্রচারিতও হয়েছে৷ তবে সাধারণ দর্শক যাতে তা দেখতে পান তাই হলে মুক্তির জন্যই সেন্সরের দ্বারস্থ হয়েছিলেন তিনি৷ কিন্তু সেখানেই বিপত্তি৷ ছবির প্রায় পাঁচটি দৃশ্য বাদ দিতে বলা হয়েছে৷ তার মধ্যে যেমন আছে বরাহনগর হত্যাকাণ্ড, তেমনই আছে গান্ধী-বিড়লা সাক্ষাতের ঘটনা৷ কিন্তু ইতিহাসে যা লেখা আছে, তা ছবিতে উঠে এলে আপত্তি কোথায়? আপাতত তার উত্তর নেই৷ এদিকে সেন্সরের নির্দেশ না মানলে ছবিমুক্তিরও সম্ভাবনা নেই৷

এবার ইতিহাস থেকে ভাওয়াল সন্ন্যাসী কাণ্ড পর্দায় আনছেন সৃজিত ]

পহেলাজ জমানা থেকে শুরু করে প্রসূন যোশী- গোটা দেশে সেন্সর বিতর্ক অব্যাহত৷ পহেলাজের সময়ে সেন্সরের কাঁচিতে গৈরিকিকরণের অভিযোগ উঠেছিল৷ বহু বিতর্কের পর সেন্সর প্রধান হন প্রসূন জোশী৷ কিন্তু তাঁর আমলেই সব থেকে বড় বিতর্ক বোধহয় বাধল৷ কর্ণি সেনার হুমকিতে ‘পদ্মাবতী’র মুক্তি চলে গিয়েছিল বিশ বাঁও জলে৷ নাম পালটেও ভয়ের কাঁটা থেকে মুক্ত হতে পারছে না৷ একাধিক রাজ্যে তা ইতিমধ্যে নিষিদ্ধ ঘোষণা হয়েছে৷ আঞ্চলিক ক্ষেত্রেও সেই একই অবস্থা৷ কখনও সেন্সরের আপত্তি৷ কখনও আবার কট্টরপন্থী সংগঠনের হুমকি৷ এর আগে মুক্তির আগে খানিকটা জলঘোলা হয়েছিল অরিন্দম শীলের ‘ধনঞ্জয়’ নিয়ে৷ তারপর ‘রংবেরংয়ের কড়ি’ ছবির শব্দ নিয়েও আপত্তি তোলে কট্টরবাদী সংগঠন৷ বিক্ষোভ দেখানো হয়৷ যদিও চাপের মুখে নতিস্বীকার করতে নারাজ হন পরিচালক রঞ্জন ঘোষ৷ তারও আগে অমর্ত্য সেনের তথ্যচিত্র থেকেও বেশ কিছু শব্দ বাদ দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিল সেন্সর৷ তা নিয়েও বিতর্ক চলছে৷ সব মিলিয়ে সিনে স্বাধীনতা গত কয়েক বছরে যেন অনেকটাই মুখ থুবড়ে পড়ছে৷

‘পদ্মাবত’-এর সঙ্গে ‘প্যাডম্যান’-এর লড়াই, টুইটারে রসিকতা অমিতাভের ]

যদিও সেন্সরের এ নির্দেশের কোনও যৌক্তিকতাই খুঁজে পাচ্ছেন না পরিচালক অনির্বাণ দত্ত৷ যা ইতিহাস, সেন্সর কেন তা মুছে দিতে বলছে? এই প্রশ্ন তুলেই আদালতে আবেদনের ভাবনা তাঁর৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement