BREAKING NEWS

১৩ ফাল্গুন  ১৪২৭  শুক্রবার ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘দাদা আমি সাতে পাঁচে থাকি না!’ তাহলে এটা কী? মোদির সঙ্গে ছবি তুলে ট্রোলড রুদ্রনীল

Published by: Suparna Majumder |    Posted: January 25, 2021 8:41 pm|    Updated: January 25, 2021 9:01 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Narendra Modi) এবং বাংলার রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়ের (Jagdeep Dhankhar) সঙ্গে ছবি পোস্ট করেছিলেন। তারপর থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রোলের শিকার অভিনেত্রী রুদ্রনীল ঘোষ (Rudranil Ghosh)। তাঁরই লেখা কবিতার লাইন ব্যবহার করে করা হচ্ছে বিদ্রূপ।

 
 
 
 
 
View this post on Instagram
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

A post shared by Rudranil Ghosh (@rudranilrudy)

২০২০ সালের ৫ জুন ফেসবুকে নিজের “সাতে পাঁচে থাকি না” কবিতাটি পোস্ট করেছিলেন রুদ্রনীল। “অ্যাঁ! বিপর্যয়? দাদা আমি সাতে পাঁচে থাকি না, যে যা করে দেখি ভাই, সুবিধেটা নিয়ে যাই, দুম করে প্রকাশ্যে আসি না, দাদা আমি সাতে পাঁচে থাকি না।” 

 
 
 
 
 
View this post on Instagram
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

A post shared by Rudranil Ghosh (@rudranilrudy)

এমনই আরেকটি কবিতা সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। যাঁর লেখক হিসেবে দেবাংশু ভট্টাচার্যর নাম উল্লেখ করা হয়েছে। সেখানে আবার লেখা হয়েছে,”দাদা আমি সাতে পাঁচে থাকি না! মোদী মোর কাকু হয়, কাকি না…দাদা আমি, সাতে পাঁচে থাকি না! পনেরো লক্ষ আমি একেলাই পেয়ে গেছি, দুই কোটি চাকরির একখানা পাকা, দালালির দাম আছে; তাই শাসকের পাছে, গালি দিলে গায়ে-টায়ে মাখি না! দাদা আমি সাতে পাঁচে থাকি না!” এরপরই আবার কবিতার ছন্দ পালটে কটাক্ষ করা হয়েছে এবং সবার শেষে রুদ্রনীলকে ‘দেশভক্ত’ হিসেবে ব্যাখ্যা করা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: বাংলার মেয়েদের ধর্ষণের হুমকির বিরুদ্ধে গর্জে উঠলেন সায়নী-নুসরত-দেবলীনারা]

সোমবার আবার পরিচালক অনিকেত চট্টোপাধ্যায় (Aniket Chattopadhyay) “সাতপাঁচ ভেবেই…” ক্যাপশন দিয়ে কবিতার ভিডিও আপলোড করেন। তাতে তিনি বলেন, “দাদা আমি সাতে পাঁচে থাকি না, তবে দুধ চাই, মধু চাই, লালবাতি গাড়ি চাই, তিন লাখি পদ চাই, সে সব তো ছাড়তেই পারি না! দাদা আমি সাতে পাঁচে থাকি না, তবে দেখেছি অনেক ভেবে কী কোথায় পাওয়া যাবে, সেই হিসেবের শেষে সে গোয়ালে কে কে যাবে? যদি লাভ থাকে সে হিসেবে, সে সুযোগ আমি কভু ছাড়ি না। দাদা আমি সাতে পাঁচে থাকি না, লালে লাল উড়িয়েছিল নটবিপ্লবী, দিদির আঁচল ধরে বাগিয়েছি সবই, এবার গেরুয়া ধরে এমপি হবই আমি, আহা দেব হতে সাধ কি মোর জাগে না? দাদা আমি সাতে পাঁচে থাকি না…”। মোট দেড় মিনিটের ভিডিওতে এভাবেই রুদ্রনীল ঘোষের সমালোচনা করেছেন পরিচালক। রুদ্রনীলের পোস্ট করা ছবির ক্যাপশনেও তাঁর লেখা কবিতার লাইন পালটে ব্যবহার করে হয়েছিল।

উল্লেখ্য, বেশ কিছুদিন ধরেই শাসক দলের বিরুদ্ধে প্রকাশ্যে ক্ষোভ প্রকাশ করছেন রুদ্রনীল। শোনা গিয়েছে, ফেব্রুয়ারি থেকে সক্রিয় রাজনীতিতে নামতে চলেছেন রুদ্রনীল। জানুয়ারি মাসের শুরুতে অভিনেতার সঙ্গে দেখা করেন বিজেপির (BJP) যুব মোর্চার সাধারণ সম্পাদক শঙ্কুদেব পণ্ডা। সূত্রের খবর, সেই সাক্ষাতে শঙ্কুই রুদ্রনীলকে বিজেপিতে যোগদানের প্রস্তাব দিয়েছিলেন। তারপর আবার  প্রাক্তন তৃণমূল ও বর্তমান বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারীর সঙ্গে দেখাও হয়েছিল তাঁর। জানিয়েছিলেন শুভেন্দু অধিকারী তাঁর পছন্দের মানুষ।  সেই সময় আবার জানিয়েছিলেন তাঁর সক্রিয় রাজনীতিতে আসা শুধু সময়ের অপেক্ষা। এমন পরস্থিতিতেই ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালে তাঁর প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ ও ছবি পোস্ট নিয়ে নতুন করে সোশ্যাল মিডিয়ায় চর্চা শুরু হয়। 

[আরও পড়ুন: ফ্ল্যাটে বিক্রমের হাত ধরে নাচ ঐন্দ্রিলার, উদ্দাম পার্টির ভিডিও পোস্ট করলেন অঙ্কুশই ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement