BREAKING NEWS

১৭  আষাঢ়  ১৪২৯  রবিবার ৩ জুলাই ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বোল্ড আইটেম গার্ল হয়ে দর্শকদের সমালোচনায় বিদ্ধ ‘ভাবিজি’ শিল্পা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: September 11, 2017 10:20 am|    Updated: September 28, 2019 6:44 pm

Shilpa Shinde trolled over 'Maro Line' item dance

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: টেলিভিশনের ‘ভাবিজি’ ছিলেন। জনপ্রিয়তাও ভালই পেয়েছিলেন। কিন্তু প্রযোজকের সঙ্গে ঝামেলা করে আচমকাই বেরিয়ে আসেন শো থেকে। তাও বেশ কয়েক মাস হতে চলল। এই কয়েকমাসেই নিজেকে আমূল পালটে ফেলেছেন ‘ভাবিজি’ শিল্পা শিণ্ডে। বোকাবাক্স থেকে বেরিয়েই বড়পর্দায় নিজেকে তুলে ধরেছেন আইটেম গার্ল হিসেবে।

[সাত পাকে বাঁধা পড়তে চলেছেন অভিনেত্রী মনামী ঘোষ!]

সেপ্টেম্বর মাসের প্রথম দিকেই ইউটিউবে প্রকাশিত হয়েছে ‘প্যাটেল কি পাঞ্জাবি শাদি’র এই নতুন গান। যেখানে স্বল্পবসনা হয়ে ঠুমকা লাগিয়েছিলেন শিল্পা। আর এতেই বেধেছে বিপত্তি। শিল্পার এই ছোট পোশাক মোটেও পছন্দ হয়নি নেটিজেনদের। পছন্দ হয়নি শিল্পার স্থূল চেহারাও। অনেকেই এ নিয়ে খোঁটা দিয়েছেন অভিনেত্রীকে। কেউ কেউ আবার ‘ভাবিজি’কে পরামর্শ দিয়েছেন টেলিভিশনের কমেডি চরিত্রেই ফেরত যাওয়ার জন্য।

fans-comment-on-shilpa-shinde-item-song_c30624691e04eec9e8a0970b0e57dbfa

প্রায় বছর খানেক আগে ‘ভাবিজি ঘর পে হ্যায়’ শো ছেড়েছিলেন শিল্পা৷ কিন্তু গত মার্চ মাসে হঠাৎ করে সংবাদের শিরোনামে উঠে আসে তাঁর নাম৷ প্রযোজক সঞ্জয় কোহলির বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেন৷ তাঁর অভিযোগ ছিল, টেলিভিশনের জগতে অনেক হালকাভাবে আড্ডা, ইয়ার্কি মারা হয়৷ কিন্তু প্রযোজক সঞ্জয় কোহলি সহজ হওয়ার ভান করেই সুযোগ নিতেন৷ কখনও প্রচারের বাহানায় তাঁকে বাইরে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করতেন, কখনও আড্ডার অজুহাতে মেক আপ রুমে চলে আসতেন৷ ছবি তোলার বাহানায় নানাভাবে নাকি শিল্পাকে ছোঁয়ার চেষ্টা করতেন৷ এই ঘটনা তখনই নাকি সহ-শিল্পী সোমিয়া ট্যান্ডনকে জানিয়েছিলেন শিল্পা৷ সোমিয়া তাঁকে বলেন, ইন্ডাস্ট্রিতে কেউ কাউকে ধর্ষণ করে না৷ পরদিন শিল্পা জানতে পারেন সোমিয়া মারফত খবর কানে গিয়েছে প্রযোজকের স্ত্রী বেনেফারের৷ বেনেফার এসে নাকি তাঁকে প্রচুর কথা শোনান এবং শো থেকে বের করার হুমকি দেন৷ শোয়ের কলাকুশলীরাও শিল্পার সঙ্গে কথা বলা বন্ধ করে দেন৷ এরপরই তিনি শো ছেড়ে বেরিয়ে যান৷ কিন্তু তারও বেশ কয়েকমাস বাদে এফআইআর দায়ের করেছিলেন৷ এর স্বপক্ষে নায়িকার যুক্তি ছিল, ঘটনায় মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে গিয়েছিলেন তিনি৷ সাহস সঞ্চয় করতেই এতটা সময় লেগে যায়৷ নিজের এই অভিযোগে সেবারে অনেক দর্শককে পাশে পেয়েছিলেন অভিনেত্রী৷ কিন্তু এবারে সেই দর্শকরাই তাঁর সমালোচক হয়ে শিল্পার চিন্তা অনেকটাই বাড়িয়ে দিলেন৷

[পুজোর দশদিন আগেই অনলাইনে ‘মাতৃরূপেণ’]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে