BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

ধর্ষণ করা হয়েছিল দিশাকে! ফের সুশান্তের প্রাক্তন ম্যানেজারের মৃত্যুতদন্তের ফাইল খুলছে CBI

Published by: Suparna Majumder |    Posted: September 30, 2020 12:25 pm|    Updated: October 1, 2020 12:43 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: তিন মাস পরও সুশান্ত (Sushant Singh Rajput) মামলা নিয়ে তরজা অব্যাহত। প্রত্যেকদিনই কোনও না কোনও নতুন খবর প্রকাশ্যে আসছে। শোনা যাচ্ছে, নতুন সম্ভাবনার কথা। এবার সূত্রের খবর মানলে সুশান্তের প্রাক্তন ম্যানেজার দিশা সালিয়ানের (Disha Salian) মৃত্যু মামলার ফাইল ফের খুলতে চলেছে সিবিআই। নতুন করে মামলার বিভিন্ন দিক খতিয়ে দেখতে নাকি বিশেষ তদন্তকারী দল গঠন করতে চলেছে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা (CBI)।

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, মামলায় নাকি নতুন করে সুশান্তের বন্ধু তথা বলিউড প্রযোজক সন্দীপ সিংকে (Sandip Ssingh) জিজ্ঞাসাবাদ করা হতে পারে। সুশান্তের দুই কর্মচারী নীরজ এবং কেশবকে দিল্লি ডাকা হতে পারে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য। সুশান্তের মৃত্যুর প্রায় এক সপ্তাহ আগে অর্থাৎ ৮ জুন বহুতল থেকে পড়ে দিশা সালিয়ানের মৃত্যুর খবর মেলে। সংবাদমাধ্যমটি এও দাবি করে, ঘটনার দিন উপস্থিত থাকা এক প্রত্যক্ষদর্শী নাকি তাদের জানিয়েছেন ওই দিন দিশার প্রেমিক রোহন রায়-সহ মোট ছ’জন পার্টি করছিলেন। চারজন মিলে নাকি দিশাকে ধর্ষণ করে। পার্টির মিউজিক এত বেশি ছিল যে কেউ কিছু শুনতে পাননি। এরই মধ্যে সুশান্তের বন্ধু তথা অভিনেতা যুবরাজ সিং (Yuvraj Singh) আবার আরেক সংবাদমাধ্যমে দাবি করেন, দিশার প্রেমিক রোহন রায়কে (Rohan Rai) গ্রেপ্তার করলেই দিশা ও সুশান্তের মামলার বড় তথ্য মিলবে। অনেক রহস্যের সমাধান হয়ে যাবে।

[আরও পড়ুন: ‘অভব্য ভাষা ব্যবহার করা যাবে না’, কঙ্গনা বনাম BMC মামলায় সঞ্জয় রাউতকে ভর্ৎসনা বম্বে হাই কোর্টের]

শোনা যাচ্ছে, দিশার মৃত্যুর তদন্তেও নাকি মুম্বই পুলিশের বিরুদ্ধে গাফিলতির অভিযোগ রয়েছে। দিশার দেহ নাকি বহুতল থেকে অন্তত ১৪-১৫ ফুট দূরে পড়ে ছিল। তাতে তাঁর হত্যার গুঞ্জন আরও জোরালো হচ্ছে। এরই মধ্যে এক চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ্যে এসেছে, সুশান্তের পরিচারক কেশব নাকি বর্তমানে সারা আলি খানের (Sara Ali Khan) বাড়িতে কাজ করছেন। সূত্রের খবর, ১৪ জুন সুশান্তের মৃত্যুর দিন যারা তাঁর ফ্ল্যাটে ছিলেন তাঁদের একজন কেশব। কেশবই নাকি সুশান্তের হাতে জ্যুসের গ্লাস দিয়েছিলেন। ঘটনার মাদক যোগের অভিযোগে এখনও জেলে রয়েছেন রিয়া চক্রবর্তী (Rhea Chakraborty)। মঙ্গলবার রিয়া ও তাঁর ভাই সৌভিকের জামিনের আবেদন ৯ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত সংরক্ষিত রাখে বম্বে হাই কোর্ট (Bombay High Court)।  

[আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্ত অভিনেতা সোহম চক্রবর্তী, ভরতি কলকাতার বেসরকারি হাসপাতালে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement