২ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

অবশেষে মিলল ছাড়পত্র, ২৫ জানুয়ারিই কি মুক্তি পাচ্ছে ‘পদ্মাবত’ ওরফে ‘পদ্মাবতী’?

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 6, 2018 8:59 am|    Updated: January 8, 2018 10:01 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অবশেষে মিলল সেন্সরের ছাড়পত্র। সব ঠিক থাকলে খুব শিগগিরিই মুক্তি পেতে চলেছে সঞ্জয় লীলা বনশালির ‘পদ্মাবত’ ওরফে ‘পদ্মাবতী’।  শোনা যাচ্ছে, সব ঠিক থাকলে জানুয়ারি মাসের ২৫ তারিখেই মুক্তি পেতে চলেছে শাহিদ-দীপিকা-রণবীরের এই ছবি। খবর চাউর হতেই ফের স্বমূর্তি ধারণ করছে রাজপুত কর্ণি সেনা। এর পরিণতির জন্য সিবিএফসি ও কেন্দ্রীয় সরকার দায়ী থাকবে বলে দেওয়া হল হুঁশিয়ারি।

[সারাগারি যুদ্ধের ভুলে যাওয়া কাহিনি তুলে ধরছেন ‘কেসরি’ অক্ষয়]

প্রধানত কর্ণি সেনার বিক্ষোভের জেরেই পয়লা ডিসেম্বর মুক্তি পায়নি ‘পদ্মাবতী’। বছর গড়িয়ে গেলেও ছবির মুক্তি নিয়ে শঙ্কা কিছুতেই কাটছে না। ইতিমধ্যেই পরিচালকের মাথা কাটার হুমকি দেওয়া হয়েছে। নায়িকার মাথার দাম ১০ কোটি টাকা ধার্য করা হয়েছে। পঙ্গু করে দেওয়ার হুমকিও দেওয়া হয়েছে তাঁকে। পরে ছবি নিয়ে সংসদীয় কমিটির কাছে জবাবদিহি করেছেন পরিচালক সঞ্জয় লীলা বনশালি। এদিকে সিবিএফসি-র হাতেই ছাড়পত্রের দায়িত্ব দেয় সুপ্রিম কোর্ট। সেই U/A ছাড়পত্রই মিলল নতুন বছরের শুরুতে। শোনা গিয়েছে, ইতিমধ্যেই ডিস্ট্রিবিউটরদের সঙ্গে কথা বলতে শুরু করেছে প্রযোজনা সংস্থা। সব ঠিক থাকলে নাকি ২৫ জানুয়ারিই প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে ‘পদ্মাবতী’। প্রসঙ্গত, সাধারণতন্ত্র দিবসে মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল অক্ষয়ের ‘প্যাডম্যান’-এর। তবে শুক্রবারই নিজের ছবির মুক্তি এগিয়ে দেন বলিউডের খিলাড়ি। তাই সে ছবিও একই দিনে মুক্তি পাচ্ছে।

[‘শুভ নববর্ষ’-এ টলিউডে কামব্যাক করতে চলেছেন অভিনেতা বিক্রম]

এদিকে সিবিএফসির সিদ্ধান্তে বেজায় চটেছে কর্ণি সেনা। রাজপুত কর্ণি সেনার সভাপতি সুখদেব সিং গোগামেডি বলেন, যা হল আর এরপর যা হবে তাঁর জন্য কেবল সেন্ট্রাল বোর্ড অফ ফিল্ম সার্টিফিকেশন ও কেন্দ্র সরকারই দায়ী থাকবে। এর জেরে সিবিএফসি প্রধান প্রসূন জোশী, তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি ও একই দপ্তরের রাষ্ট্রমন্ত্রী রাজ্যবর্ধন সিং রাঠৌরের পদত্যাগের দাবি জানিয়েছে তাঁরা। তবে ছবির মুক্তি নিয়ে আত্মবিশ্বাসী প্রযোজনা সংস্থা। এ ছবি দর্শকের দরবারে পৌঁছে দিতে বদ্ধ পরিকর তাঁরা। এ রাজ্যে ‘পদ্মাবতী’কে আগেই স্বাগত জানিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বিক্ষোভের নামে উপদ্রব কোনওভাবেই বরদাস্ত করা হবে না, স্পষ্ট জানিয়েছিলেন তিনি।

[সেন্সরের কোপে এবার ইন্দ্রাশিসের ‘পিউপা’, মুক্তি বিশ বাঁও জলে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement