BREAKING NEWS

০৫ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শুক্রবার ২০ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

পরকীয়ায় মজে রাজ কাপুর, ঘর ছাড়তে হয়েছিল স্ত্রীকে!

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 17, 2017 1:44 pm|    Updated: January 17, 2017 1:44 pm

Raj Kapoor’s extra marital affair forced wife, son to leave home

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রথমে দাউদ, এরপর নিজের বাবা। নিজের আত্মজীবনীতে কাউকেই রেয়াত করেননি ঋষি কাপুর। দাউদের সঙ্গে দেখা করার অভিজ্ঞতা যেমন নিজের বইতে লিখেছেন, তেমনই খুল্লম খুল্লা বাবা রাজ কাপুরের চরিত্র নিয়ে। পরিচালক-অভিনেতা রাজ কাপুর সম্পর্কে বহু কথা বলিউডের ঘোরাফেরা করে। নারীদের প্রতি তাঁর আসক্তি, মাদকের প্রতি তাঁর ভালবাসা নিয়ে বহু কথাই চালু রয়েছে। বইতে সে সব কথাই খোলসা করেছেন ঋষি।

নিজের বইতে রাজ কাপুর এবং নার্গিসের সম্পর্ক নিয়েও মুখ খুলেছেন ঋষি। কিন্তু এও লিখেছেন এক মহিলায় সন্তুষ্ট থাকতে পারতেন না রাজ। অভিনেত্রী বৈজয়ন্তীমালার সঙ্গেও তাঁর ঘনিষ্ঠতা ছিল বলেও তিনি জানিয়েছেন।এতেই থেমে নেই বিষয়টি। অভিনেত্রী বৈজয়ন্তীমালা অবশ্য এ সম্পর্ককে অস্বীকারই করতেন। তাঁর এই মনোভাব না-পসন্দ ঋষির।

কিন্তু এই যে সিনিয়র কাপুরের এত মহিলা সঙ্গী, রাজ কাপুরের স্ত্রীর জীবন কেমন ছিল? ঋষি কাপুর জানিয়েছেন, অভিনেত্রী বৈজয়ন্তীমালার সঙ্গে রাজ কাপুরের যখন সম্পর্ক তৈরি হয়েছিল, তখন তাঁর স্ত্রী ছোট চিন্টুকে(ঋষি কাপুর) নিয়ে বাড়ি ছেড়েছিলেন। মেরিন ড্রাইভের নটরাজ হোটেলে ছিলেন তিনি। আবার স্বামীর সঙ্গে প্রেমিকার সম্পর্ক ভাঙলে তবেই বাড়ি ফেরেন।

মহিলাদের পাশাপাশি মদেও তীব্র আসক্তি ছিল রাজ কাপুরের। দেশ-বিদেশের দারুণ সব মদ পানে আগ্রহ ছিল তাঁর। ছেলেদের সঙ্গে বসে যখন তিনি পান করা শুরু করেন, তখন ঋষিরা দেখেন, বাবা লন্ডন থেকে আসা জনি ওয়াকার ছাড়া কিছু ছুঁয়েও দেখেন না। তবে ছেলেদের জন্য বরাদ্দ ছিল স্থানীয় হুইস্কি। তাঁর মৃত্যুর পর আলমারিতে মেলে না খোলা অসংখ্য সুরার বোতল।

কিন্তু এতকিছুর পরেও নিজের বাবার প্রতি শ্রদ্ধার রেখেছেন ঋষি। জানিয়েছেন প্রথম জীবনে বাবকে ভয় পেলেও পরবর্তী সময়ে তাঁর নিজের বাবার প্রতি শ্রদ্ধা বেড়েছে। বাবার মধ্যেই নিজের গুরুকে খুঁজে পেয়েছেন তিনি। তাঁর সঙ্গে তিনটি ছবিতে কাজ করার সুযোগ পাওয়ায় নিজেকে ধন্য মনে করেন ঋষি।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে