BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

যখন প্রিয় বান্ধবীই হয় অশরীরী!

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: July 8, 2016 9:48 pm|    Updated: September 23, 2020 3:29 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভূত কী শুধুই গল্প নাকি বাস্তবেও তার অস্তিত্ব রয়েছে? এই প্রশ্ন নিয়ে চায়ের কাপে ঝড় উঠতে পারে৷ চলতে পারে তর্ক এবং আড্ডা৷ কিন্তু একথা প্রত্যেকেই বিশ্বাস করেন যে আত্মার বিনাশ নেই৷ আত্মা অবিনশ্বর৷ তাই মানুষ মারা যাওয়ার পরও তাঁর কাছের মানুষের সামনে আসেন৷ কথা বলেন৷ আর তারপর? তারপর মিলিয়ে যায় পঞ্চভূতে!

ভূতের ঠিকানা ভূতের বাড়ি, শ্মশান কিংবা গোরস্থানে হতে পারে৷ কিন্তু অশরীরী লোকালয়ে, ঘরের ভিতরেও আপনার সামনে আসতে পারে৷ আপনি হয়তো জানেনই না, সে আপনার পাশেই দাড়িয়ে রয়েছেন৷ যাঁরা খুব সচেতন তাঁরা শুধুমাত্র অনুভব করতে পারেন তার উপস্থিতি৷

কিন্তু এমনও হয় যখন অশরীরী নিজে আপনার সামনে আসে৷ নিজের মনের কথা বলে এবং তারপর চলে যায়৷

ঠিক এমনটাই হয়েছিল অভ্রর (নাম পরিবর্তিত) সঙ্গে৷ কলেজে পড়ার সময় অভ্রর এক বান্ধবী ছিলেন৷ সুন্দরী সেই বান্ধবীকে অভ্র বেশ পছন্দ করতেন৷ কিন্তু তাঁর একটি খারাপ অভ্যেস ছিল৷ বান্ধবীটি বেশ ফ্লার্টবাজ ছিলেন৷ অভ্রর বাকি বন্ধুদের সঙ্গে তিনি ফ্লার্ট করতেন৷

এরপর কলেজের পরীক্ষা নিয়ে তাঁরা প্রত্যেকেই বেশ ব্যস্ত হয়ে পড়েন৷ পরীক্ষার শেষে ছুটিও পড়ে যায়৷ অভ্র বেশ মজার সঙ্গেই ছুটি কাটাচ্ছিলেন৷ একদিন হঠাৎ অভ্রর সঙ্গে বাজারে তাঁর ওই বান্ধবীটির দেখা হয়ে যায়৷ সেই সময় অভ্রর সঙ্গে তাঁর এক বন্ধুও ছিলেন৷

অভ্রর কথায়, অন্যদিনের মতো সেদিনও তাঁর বান্ধবীকে বেশ সুন্দর লাগছিল৷ সেই কথা তিনি তাঁর বান্ধবীকে বলেনও৷ এরপর বেশ কিছুক্ষণ বান্ধবীর সঙ্গে কথা হয় তাঁর৷ কথা শেষ করে নিজেরা বাড়িও ফিরে যান৷

কিন্তু বিপত্তি ঘটে তারপরেই৷ তার দু’দিন পরেই অভ্রর অন্য এক কলেজের বন্ধুর সঙ্গে দেখা হয়৷ দেখা হতেই অভ্র তাঁকে বলেন কয়েকদিন আগেই অভ্রর সেই বান্ধবীর সঙ্গে দেখা হয়েছিল৷

ঘটনাটি শোনামাত্রই তাঁর বন্ধু ঘাবড়ে যান এবং বলেন বাজে ঠাট্টা বন্ধ করতে! পুরো ঘটনায় বেশ হতচকিত হয়ে পড়েন অভ্র৷ বন্ধুর এমন কথা বলার কারণ জানতে চাইলে, বন্ধুটি জানান, ঠিক তিনদিন আগে অভ্রর ওই বান্ধবী আত্মহত্যা করেছেন৷

কথাটা বিশ্বাস করতে চাননি অভ্র৷ বান্ধবীর বাড়িতে ছুটে গিয়েছিলেন৷ সেখানে বান্ধবীর দিদির কাছে তিনি সেই একই খবর পান৷ ঘটনাটির চার বছর কেটে গিয়েছে৷ অভ্র এখনও বিশ্বাস করতে পারেন না যে এমনও হতে পারে! ঘটনাটিতে অভ্র যতটা ভয় পেয়েছিলেন তার থেকে অনেক বেশি দুঃখ পেয়েছিলেন৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement